পুত্র নয়, কন্যাসন্তানের বাবা হচ্ছেন আশরাফুল

মাঝে একটা সময় তার জীবনে অসংখ্য ঝড়ঝাপটা গেছে। কিন্তু সবকিছু সামলে বাংলাদেশ ক্রিকেটের প্রথম সুপারস্টার মোহাম্মদ আশরাফুল এখন নতুন দিনের স্বপ্নে বিভোর। দেড় মাসেরও কম সময়ের মধ্যে স্পট ফিক্সিং এর দায়ে কাঁধে চাপা তিন বছরের নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে প্রতিযোগিতামূলক ক্রিকেটে ফিরবেন তিনি। পাশাপাশি অপেক্ষার প্রহর গুনছেন পরিবারে নতুন অতিথি আগমনেরও।

image

Advertisment

আশরাফুল যে প্রথমবারের মত বাবা হতে চলেছেন এটা অবশ্য পুরনো খবর। পাশাপাশি এটাও অবশ্য শোনা গিয়েছিল যে প্রথম সন্তানটি ছেলে হবে। কিন্তু শনিবার এক সাক্ষাৎকারে আশরাফুল নিজেই নিশ্চিত করলেন, পুত্র নয় বরং কন্যাসন্তানের বাবা হতে চলেছেন তিনি। “আমার স্ত্রীর (আনিকা তাসলিমা অর্চি) প্রেগনেন্সির সাত মাস চলছে। মাস দুয়েকের মধ্যে কন্যা সন্তান আগমনের আশা করছি আমরা।”

আশরাফুল আরও জানান, “হ্যাঁ, এটা কন্যাসন্তানই। আমরা পরিবারের সবাই অধীর আগ্রহে তার আগমনের অপেক্ষা করছি। আমরা আলাদা করে কোন লিঙ্গ নির্ধারনী পরীক্ষা করাইনি, ডাক্তার নিজে থেকেই এটা জানিয়েছেন। আমার মা আমার স্ত্রীকে নিয়ে আলট্রা সাউন্ড সনোগ্রাফি করাতে গিয়েছিল, সেখানেই এটা ধরা পড়েছে। প্রেগনেন্সির সপ্তম মাসে আসার পর এদেশের চিকিৎসকেরা জানিয়ে দেন বাচ্চা ছেলে হবে না মেয়ে হবে।”

জানিয়ে রাখা ভাল, পার্শ্ববর্তী ভারত বা অন্যান্য অনেক দেশে শিশু জন্মানোর আগেই তার লিঙ্গ জেনে নেওয়ার বিষয়টি আইনত নিষিদ্ধ হলেও, বাংলাদেশের প্রচলিত আইনে এ ধরণের কোন নিষেধাজ্ঞা নেই। এ ব্যাপারে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)’র চিকিৎসক দেবাশিস চৌধুরী বলেন, “হ্যাঁ, বাংলাদেশে এটা অবৈধ নয়। তবে বাংলাদেশ সরকার অদূর ভবিষ্যতে এটার ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের চিন্তাভাবনা করছে।”

এদিকে বাবা হওয়া ও ক্রিকেটে ফেরা নিয়ে দারুণ উত্তেজিত আশরাফুল আরও জানিয়েছেন, এখনো মেয়ের জন্য পছন্দসই কোন নাম বের করে উঠতে পারেন নি। “ওর কি নাম রাখা যেতে পারে সেটা এখনো ঠিক হয়নি। তবে আত্মীয়স্বজন আর বন্ধুবান্ধবদের বলে রাখব ভাল কিছু নাম সাজেস্ট করতে।”

– জান্নাতুল নাঈম পিয়াল, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটিম ডট কম