পুরো দেশ ঘুরে ভক্তদের সাথে শিরোপা উৎসব করবে কিউইরা

0
480

ইংল্যান্ডের মাটিতে ভারতকে হারিয়ে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের শিরোপা জিতেছে নিউজিল্যান্ড। করোনা ভাইরাসের ভয়াবহ বাস্তবতায় নিজেদের ইতিহাসের প্রথম বৈশ্বিক শিরোপা জয়ের পর নিজ দেশের ক্রিকেট সমর্থকদের সাথে উদযাপন করতে পারেনি কিউইরা। এবার সব বাধা টপকে সপ্তাহব্যাপী গোটা দেশের নানা প্রান্তে ঘুরে সমর্থকদের সাথে প্রথম শিরোপা জয়ের আনন্দ ভাগাভাগি করে নেবেন নিউজিল্যান্ডের ক্রিকেটাররা।

পুরো দেশ ঘুরে ভক্তদের সাথে শিরোপা উৎসব করবে কিউইরা

Advertisment

গত ২৩ জুন ইংল্যান্ডের সাউদাম্পটনে ভারতকে ৮ উইকেটে হারিয়ে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের প্রথম আসরের শিরোপা জেতে নিউজিল্যান্ড। ফাইানাল জিতে শ্রেষ্ঠত্বের ‘গদা’ বা মেস নিয়ে দেশে ফিরলেও করোনা ভাইরাস মহামারীর কারণে আইসোলেশনে যেতে হয় ক্রিকেটারদের। ফলে সেই সময় সমর্থকদের সাথে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে শিরোপা জয়ের উৎসব উদযাপন করতে পারেননি উইলিয়ামসনরা।

ক্রিকেটাররা আইসোলেশন থেকে মুক্তি পেতেই গোটা দেশের ক্রিকেট ভক্তদের সাথে নিজেদের প্রথম শিরোপা জয়ের আনন্দ ভাগাভাগি করে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড। আগামী ২৬ জুলাই থেকে ১ আগস্ট পর্যন্তু পুরো সপ্তাহজুড়ে গোটা দেশের ৭টি শহরে ট্রফি নিয়ে ভ্রমণ করবেন ক্রিকেটাররা। এছাড়া সেখানকার সমর্থকদের সাথে আলাদা করে সময়ও কাটাবেন তারা।

দেশটির উত্তরের ভানাগেরি অঞ্চল থেকে শুরু হয়ে দক্ষিণাঞ্চলের ইনভারকারগিল এসে সাতদিনের এই আনন্দ ভ্রমণ শেষ হবে৷ এই পথে অকল্যান্ড, তাউরাঙ্গা, হ্যামিল্টন, নিউ পলিমাউথ, উত্তর পালমাস্ট্রোন, ওয়েলিংটন এবং ক্রাইস্টচার্চের বিভিন্ন রাস্তায় ঘুরে বেড়াবেন ক্রিকেটাররা।

কাউন্টি ও দ্য হান্ড্রেডে চুক্তিবদ্ধ থাকায় অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন , কাইল জেমিসন, ডেভন কনওয়ে এবং কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম এখনও ইংল্যান্ড থেকে দেশে ফেরেননি। তাই এই আনন্দ ভ্রমণে তাদের যোগ দেওয়া হচ্ছে না। টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনালের স্কোয়াডে না থাকলেও দলকে ফাইনালে তুলতে অবদান রাখায় উইল সোমারসিল, জিৎ রাভাল ও টড অ্যাসেলরা সঙ্গী হবেন এই ভ্রমণের।

সমর্থকদের সাথে শিরোপা জয়ের আনন্দ ভাগাভাগি করে নেওয়ার এই আয়োজন নিয়ে কিউই পেসার টিম সাউদি বেশ উচ্ছ্বসিত। তিনি মনে করছেন, ভক্তরা তাদের সব সময় যেভাবে তাদের সমর্থন দেন এই উৎসব সেটারই প্রতিদান।

সাউদি বলেন, ‘শুধু টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের এই কয়েকটা বছর না, দীর্ঘদিন ধরে সমর্থকরা আমাদের যেভাবে সাপোর্ট করেছে আমি মনে করি এটা তাদেরকে প্রতিদান দেওয়ার সবচেয়ে ভালো উপায়।’

এই ভ্রমণের মাধ্যম দেশটির ছোট শহরগুলোতে বসবাসকারীদের মাঝে আনন্দ ছড়িয়ে দিতে চান সাউদি। এছাড়া আগামী দিনের ক্রিকেটারদের উৎসাহ জোগাবেন বলেও জানান এই পেসার।

সাউদি আরও বলেন, ‘ছোট শহরগুলো যেখানে সাধারণত খুব বেশি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট অনুষ্ঠিত হয় না এবং ক্রিকেটারদের দেখার সুযোগ হয় না সেই সব ছোট শহরগুলোতে ফিরে যাওয়ার দারুণ উপলক্ষ্য পাওয়া গেছে। আমি জানি, ছোট শহরগুলোতে বড় হলে সেখানে এই ধরণের আয়োজন সব সময়ই বিশেষ কিছু।’

‘আশা করছি, আমাদের সমর্থকদের প্রতিদান দিতে পারব। এবং সেই সাথে আগামী দিনে ক্রিকেটার হতে চাওয়া ছোট শিশুদের মাঝে কিছুটা আাশা জাগাতে পারব।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।