ফুটবলার বাবার অনুপ্রেরণাতেই ক্রিকেটার হওয়া তামিম-নাফিসের

0
659

যখনই সুযোগ হয়েছে নিজেদের বাবাকে প্রশংসা বন্যায় ভাসিয়েছেন নাফিস ইকবাল ও তামিম ইকবাল। তবে খুব অল্প বয়সে বাবাকে হারানো দুই ভাইয়ের আক্ষেপও কম নয়। যদি আর কিছুদিন তার সংস্পর্শে থাকতে পারতেন, অনেক কিছুই শেখা হতো। বাবার অনুপ্রেরণাতেই ক্রিকেটার হয়েছেন বলে জানান নাফিস।

না খেয়ে তামিমের জন্য টাকা জমাতেন নাফিস

Advertisment

বাংলাদেশ ক্রিকেট ঐতিহ্যের সাথে মিশে আছে চট্টগ্রামের খান পরিবার। বাবা প্রয়াত ইকবাল খান ও চাচা আকরাম খানের পদাঙ্ক অনুসরণ করে বাইশ গজের ক্রিকেটে হাতেখড়ি তামিম-নাফিসের। তবে সেই সময় জাতীয় দলের খেলা নিয়ে ব্যস্ত থাকায় আকরামকে সেভাবে পাননি দুই ভাই। বাবা ইকবালই ছিলেন তাদের আদর্শ।





বাবা জনপ্রিয় ফুটবলার হলেও নাফিস-তামিম দু’জনেই হয়েছেন ক্রিকেটার, খেলেছেন জাতীয় দলে। সম্প্রতি বিডিক্রিকটাইমের ঈদ আড্ডা অনুষ্ঠানে এসে নিজেদের ক্রিকেটার হবার গল্প শোনালেন নাফিস।

এ প্রসঙ্গে নাফিস বলেন, ‘আব্বা কিন্তু ক্রিকেট‌ও খেলতেন। এমনকি স্বাধীনতার পর চট্টগ্রাম লিগের প্রথম সেঞ্চুরিয়ান আমার আব্বা। তিনি আসলে ক্রিকেট খেললেও ফুটবলার হিসেবেই জনপ্রিয় ছিলেন। ওই সময়ে ফুটবল নিয়ে মাতামাতিটা বেশি ছিল।’






‘তবে ১৯৯৭ সালে আইসিসি ট্রফি জয়ের পর ক্রিকেটেও জনপ্রিয়তা শুরু হল। তখন আমরাও ক্রিকেটের প্রতি ঝুঁকে গেলাম। ওই কারণেই ক্রিকেটে আসা।’– সাথে যোগ করেন তিনি।

২০০০ সালে মারা যান ইকবাল খান। সেই সময় চট্টগ্রামে নিজ বাসায় বাবার পাশে ছিলেন তামিম। সেদিনের মতই বাবাকে খুব বেশিদিন কাছে পাননি নাফিস। অল্প বয়সে পড়াশোনার জন্য থিতু হয়েছিলেন ঢাকায়। তবে যতদিন বাবার পাশে থাকতে পেরেছেন তার অনুপ্রেরণা আর আগ্রহেই ক্রিকেটে আসা বলে জানান নাফিস।

নাফিস বলেন, ‘আব্বা কখনোই আমাদের উপর কিছু চাপিয়ে দেননি। সবসময় আমাদের চাহিদাকে প্রাধান্য দিয়েছেন। আমি আসলে উনাকে কমই পেয়েছি। কারণ, ক্লাস টু এর পর আমি ঢাকায় চলে আসি শিক্ষার জন্য। তবে আমাদের ক্রিকেটার হওয়ার জন্য যে আগ্রহ বা অনুপ্রেরণা তার কাছ থেকেই পেয়েছি। দুর্ভাগ্য যে খুব অল্প সময়ে আমরা তাকে হারিয়েছি।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।