SCORE

সর্বশেষ

বল টেম্পারিংয়ের কারণে সন্তান হারিয়েছেন ওয়ার্নার

এক বল টেম্পারিংয়ের ঘটনা লণ্ডভণ্ড করে দিয়েছে অস্ট্রেলিয়ান ক্রিকেটার ডেভিড ওয়ার্নারের জীবন। খ্যাতি, সম্মান, নেতৃত্ব- সবই হারিয়েছেন। তবে সবচেয়ে বড় ক্ষতিটা হয়েছে ওয়ার্নারের পরিবারের। বল টেম্পারিংয়ের ঘটনার পরবর্তী ধকল সামলাতে না পেরে গর্ভপাত ঘটেছে ওয়ার্নারের স্ত্রীর পেটে থাকা অনাগত শিশুর।

বল টেম্পারিংয়ের কারণে সন্তান হারিয়েছেন ওয়ার্নার

টেম্পারিংয়ে জড়িত থাকার ঘটনা স্বীকার করার পর ওয়ার্নারকে ১২ মাসের জন্য নিষিদ্ধ করে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। এরপর তাকে নিয়ে সমালোচনা হয়েছে, তাতে স্বভাবতই পরিবারের উপর সৃষ্টি হয়েছিল চাপ। একই সময়ে স্থানান্তরণের কারণে ওয়ার্নারের গর্ভবতী স্ত্রীকে উড়োজাহাজের জটিল ভ্রমণের স্বাদ নিতে হয়েছে। সব মিলিয়ে কাজ করেছে গর্ভপাতের কারণ হিসেবে।

Also Read - টানা টেস্ট খেলার রেকর্ড ছুঁলেন কুক

ডেভিড ওয়ার্নারের স্ত্রী ক্যানডিস ওয়ার্নার সম্প্রতি অস্ট্রেলিয়ার একটি ম্যাগাজিনকে জানান তাদের এই দুঃসহ স্মৃতির কথা। তিনি বলেন-

‘ডেভকে ডেকে জানাই রক্ত ঝরছে। আমরা জানতাম গর্ভপাত ঘটছে। একে অপরকে জড়িয়ে ধরে দুজনেই কেঁদেছি। এই গর্ভপাতটা আসলে একটি ভয়ংকর সফরের মর্মান্তিক সমাপ্তি। বল টেম্পারিং নিয়ে জনতার নানা অপমানজনক কথা সহ্য করার পরীক্ষা দিতে গিয়ে এই খেসারত গুনতে হয়েছে। ওই মুহূর্ত থেকে আমরা সিদ্ধান্ত নিই, আর কখনো কোনো কিছুকে আমাদের জীবনে এভাবে প্রভাব ফেলতে দেব না।

সন্তানকে পৃথিবীর আলো দেখার আগেই হারিয়ে ফেলার বিষাদে ক্যানডিস বলেন, আমরা খুব সুখে ছিলাম। জানতাম, আরেকজন খুদে ওয়ার্নার আসছে। বাচ্চাটা আমাদের কাছে কতটা আকাঙ্ক্ষিত ছিল, সেটা বোধ হয় দুজনের কেউই বুঝতে পারি না। আমরা বেশ কষ্টকর এবং সবচেয়ে দীর্ঘ ফ্লাইটে এসেছি (দক্ষিণ আফ্রিকা সফর থেকে)। কেউ জানত না আমি অন্তঃসত্ত্বা। ডেভ আমাকে নিরাপদ রাখতে সম্ভাব্য সব চেষ্টাই করেছে। ও ভয় পাচ্ছিল, এর চেয়ে বেশি চাপে পড়লে আমাদের অনাগত শিশুর বিপদ হবে। আমাদের নিশ্চিত করা হয়েছিল, বিমানবন্দর থেকে আমরা নির্বিঘ্নেই বেরিয়ে যেতে পারব। কিন্তু গণমাধ্যমকে দেখার পর ভীষণ ভেঙে পড়ি, বিশেষ করে ২৩ ঘণ্টা ফ্লাইটের পর। বিশ্ব তো জানত না, আমি তৃতীয় বাচ্চা বহন করছি।

আরও পড়ুনঃ অবসর নিলেন এড জয়েস

Related Articles

ব্যানক্রফটের নতুন ‘ঘর’

পাপন কিংবা সাকিব নন, তারিখ জানাবেন হোয়ে

ইংল্যান্ডের সর্বকালের সেরা একাদশ ঘোষণা

সিরিজ জিতেও রেটিং হারাল বাংলাদেশ

‘বল টেম্পারিংয়ের ভিডিও এডিটেড ছিল’