Scores

বাংলাদেশে কেন কোহলি-ডি ভিলিয়ার্সরা আসে না?; নাফীসের ব্যাখ্যা

বাংলাদেশ ক্রিকেট দিনে দিনে এগিয়ে যাচ্ছে। আমরা সাকিব আল হাসানের মতো বিশ্ব নন্দিত অলরাউন্ডার পেয়েছি। মাশরাফি বিন মুর্তজার মতো প্রশংসীয় অধিনায়ক পেয়েছি। কিন্তু বহির্বিশ্বের খ্যাতনামা কিছু ক্রিকেটারদের ঘাটতি এখনো রয়ে গিয়েছে।

বাংলাদেশি ব্যাটসম্যান তামিম ইকবাল, মুশফিকুর রহিমরা বিশ্ব ক্রিকেটে প্রশংসা কুড়িয়েছেন তাদের ব্যাটিং প্রদর্শনী দিয়ে। কিন্তু ভারতের বিরাট কোহলি কিংবা দক্ষিণ আফ্রিকার এবি ডি ভিলিয়ার্সদের মতো ধারাবাহিকতা দেখানোর অভাব রয়েছে তাদের মাঝে। যদিও মুশফিক গত কয়েকটা বছর সেদিকে এগিয়ে যাচ্ছেন। এই পিছিয়ে থাকার কারণ নাফীস মনে করেন অভিজ্ঞতার অভাব।

Also Read - ওয়ার্নকে 'খুবই অর্ডিনারি' বোলার ভাবতেন নাফীস


পাওয়ারপ্লে  কমিউনিকেশন্সের সরাসরি ফেসবুক অনুষ্ঠানে বলেন, ‘ভারতের ক্রিকেট ইতিহাস প্রায় ১০০ বছরের ওপরে, দক্ষিন আফ্রিকারও ৮০-৯০ বছরের কাছাকাছি। ভারতে আজ বিরাট কোহলি এসেছে। তার আগে রোল মডেল ছিলেন শচীন টেন্ডুলকার, শচীনের রোল মডেল ছিলেন সুনীল গাভাস্কার। তার আগেও বিনু মানকাড়রা ছিলেন। তারা কিন্তু আগেরজনকে দেখে পরে নিজেকে অন্য লেভেলে নিয়ে গিয়েছেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘ওই তুলনায় আমরা দেখি বাংলাদেশের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বয়স মাত্র ২০ বছর। কিন্তু এই ২০ বছরেও কিন্তু আমরা সাকিব, তামিম, মুশফিক, মাশরাফি, মোহাম্মদ রফিক, মোহাম্মদ আশরাফুল তৈরি করতে পেরেছি। আমরা হাবিবুল বাশার, জাভেদ ওমর, মেহরাব হোসেনদের শুরুটা দেখেছি। ওনাদের দেখে আমরা এগিয়ে গিয়েছি। তারপর আমাদের পরবর্তী সাকিব-তামিমরা সেটা আরও বড় জায়গায় নিয়েছে।’

নাফীসের মতে ২০ বছরেও বাংলাদেশের অর্জনকে কম করে দেখার সুযোগ নেই। আগে যখন বাংলাদেশের তরুণরা শচীন- কোহলি হওয়ার স্বপ্ন দেখতো, তারা এখন সাকিব- তামিম- মুশফিক হওয়ার স্বপ্ন দেখে। এটা অবশ্যই বাংলাদেশ ক্রিকেটের উন্নতির ধারা।

এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যান বলেন, ‘একটা সময় বাংলাদেশের ওরকম মানের খেলোয়াড় আসবে, তৈরি হবে। এখনো যে হয়নি এটা কীভাবে বলি! সাকিব আল হাসান কিন্তু বিশ্ব ক্রিকেট ইতিহাসের অন্যতম সেরা একজন অলরাউন্ডার। আমরা কিন্তু একটা জায়গায় চলে এসেছি। এখন আমরা শচীন-কোহলি না, সাকিব-তামিম-মুশফিক হতে চাই। এটাও অনেক বড় উন্নতি ও পাওয়া। যত সময় যাবে আমাদের আরও রোল মডেল আসবেন।’

বাংলাদেশেও ওরকম খ্যাতানামা ক্রিকেটার তৈরি হওয়ার জন্য প্রতিভাবানদের অভাব নেই। সাকিব তার উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত। কিন্তু প্রতিভাবানদের তুলে আনার জন্য সেই পদ্ধতি আরও উন্নত করতে জোর দেয়ার আহ্বান নাফীসের।

তার ভাষায়, ‘আমাদের দেশে অনেকেই প্রতিভাবান আছেন। কিন্তু ওই অনুযায়ী আমাদের পদ্ধতিটা উন্নত না। কিন্তু পদ্ধতিটা ভালো বলেই আমরা এগিয়ে যাচ্ছি। কিন্তু এই পদ্ধতিটাকে আরও উন্নত করতে হবে। তাহলে এখন যেমন একজন দুইজন করে ভালো খেলোয়াড় উঠে আসছে তখন হাজার হাজার প্রতিভাবান উঠে আসবে।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

এবি-ডু প্লেসিদের আইপিএলে যোগ দেওয়া অনিশ্চিত

ডি ভিলিয়ার্সকে দলে ফেরাতে চাপ দিচ্ছিলেন সতীর্থরা!

‘আমি প্রস্তুত থাকছি, ভবিষ্যতে কী হবে জানি না’

জার্সি-ব্যাট নিলামে তুলছেন ডু প্লেসি

এনটিনি জুনিয়রের বোলিং তোপে জুতা খুলে গেল এবির