Scores

বাংলাদেশের সামনে র‍্যাঙ্কিংয়ে উন্নতির ‘কঠিন’ চ্যালেঞ্জ

২৮ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হতে যাচ্ছে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড ও বাংলাদেশের মধ্যকার তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজ। আসন্ন সাদা পোশাকের এ লড়াইয়ে বাংলাদেশের সামনে সুযোগ থাকছে র‍্যাঙ্কিংয়ের উন্নতির। যদিও প্রতিকূল পরিবেশে রেটিং কিংবা র‍্যাঙ্কিংয়ের উন্নতি ঘটাতে অসা্মান্য কীর্তিই এর জন্য গড়তে হবে সফরকারীদের।

নিউজিল্যান্ডে অপেক্ষা করছে কঠিন চ্যালেঞ্জ

বর্তমান টেস্ট র‍্যাঙ্কিংয়ে উভয় দলের অবস্থান
বর্তমান টেস্ট র‍্যাঙ্কিংয়ে ১০৭ রেটিং নিয়ে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট দল। যেখানে ৬৯ রেটিং নিয়ে নবমস্থানে অবস্থান বাংলাদেশের।

Also Read - টেস্ট র‍্যাঙ্কিংয়ে টাইগার ব্যাটসম্যানদের অবস্থান


বাংলাদেশ ৩-০ ব্যবধানে জিতলে
কিউইদের বিপক্ষে তাদের ঘরের মাটিতে নিজেদের সর্বোচ্চটা দিয়ে ৩-০ ব্যবধানে সিরিজ জিতলে র‍্যাঙ্কিংয়ে উন্নতি হবে বাংলাদেশের। সেক্ষেত্রে টাইগারদের রেটিং বেড়ে দাঁড়াবে ৮১ রেটিংয়ে। সফরকারীদের বিপক্ষে কোনো কারণে এমন তিক্ত স্বাদের অভিজ্ঞতা পেলে ১০ রেটিং হারাবে কিউইরা। সেক্ষেত্রে তাদের রেটিং কমে দাঁড়াবে ৯৭ রেটিংয়ে।

বাংলাদেশ ২-০ ব্যবধানে জিতলে
তাহলে বাংলাদেশের রেটিং বেড়ে দাঁড়াবে ৭৯তে। যার ফলে উইন্ডিজকে টপকে র‍্যাঙ্কিংয়ের অষ্টমস্থানে আরোহণ করবে সফরকারীরা। এমন তিক্ত অভিজ্ঞতার সম্মুখীন হলে কিউইদের রেটিং কমে দাঁড়াবে ৯৮ রেটিংয়ে।

বাংলাদেশ ২-১ ব্যবধানে জিতলে
সেক্ষেত্রেও র‍্যাঙ্কিংয়ে অবস্থানের উন্নতি হবে বাংলাদেশের। ৭৮ রেটিং নিয়ে এক ধাপ ওঠে আসবে দলটি। আর ব্ল্যাকক্যাপসদের রেটিং কমে দাঁড়াবে ১০০ রেটিংয়ে।

নিউজিল্যান্ড ৩-০ ব্যবধানে জিতলে
বাংলাদেশের ওপরের অবস্থানে থাকায় ৩-০ ব্যবধানের সিরিজ জয়ে মাত্র ২ রেটিং পাবে কিউইরা। সেক্ষেত্রে তাদের রেটিং বেড়ে দাঁড়াবে ১০৯ রেটিংয়ে। যা র‍্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে থাকা ভারতের সাথে তাদের ব্যবধান কমিয়ে আনবে ৭ রেটিংয়ে।

সফরকারীরা সিরিজের সবকয়টি ম্যাচে হারলে রেটিং হারাবে ২ পয়েন্ট। সেক্ষেত্রে তাদের রেটিং কমে দাঁড়াবে ৬৭তে।

নিউজিল্যান্ড ২-০ ব্যবধানে জিতলে
এক্ষেত্রে রেটিংয়ের কোনো উন্নতি হবে না কিউইদের। অর্থাৎ সিরিজ শুরুর আগের ১০৭ রেটিং নিয়েই সিরিজ শেষ করবে দলটি। এক্ষেত্রে বাংলাদেশের ক্ষেত্রেও ঘটবে একই ঘটনা।

নিউজিল্যান্ড ২-১ ব্যবধানে জিতলে
তাহলে ব্ল্যাকক্যাপসদের ১ রেটিং খোয়ানোর বিপরীতে প্রাপ্তির খাতায় ২ রেটিং যুক্ত হবে বাংলাদেশের। যা সফরকারীদের র‍্যাঙ্কিংয়ের আটে থাকা উইন্ডিজের সাথে ব্যবধান কমিয়ে আনবে ৬ পয়েন্টে।

সিরিজটি ১-১ ব্যবধানে শেষ হলে
তাহলে ৫ রেটিং পাবে বাংলাদেশ। পক্ষান্তরে ৪ রেটিং হারাবে স্বাগতিকরা। সেক্ষেত্রে বাংলাদেশের রেটিং বেড়ে দাঁড়াবে ৭৪এ। আর কিউইদের রেটিং কমে হবে ১০৩।

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

র‍্যাংকিংয়ের শীর্ষস্থান ধরে রাখলেন দুই অস্ট্রেলিয়ান

টেস্ট র‍্যাকিংয়ে সাকিবের পিছিয়ে পড়ার কারণ

টেস্ট র‍্যাঙ্কিংয়ে স্মিথ-লায়নের উত্থান

টেস্টে বাৎসরিক হালনাগাদে বাংলাদেশের জন্য দুঃসংবাদ

টেস্ট র‍্যাঙ্কিংয়ে টাইগার ব্যাটসম্যানদের অবস্থান