Score

বাদ পড়লেন স্মিথ-কামিন্স

অক্টোবরে ভারতের মাটিতে টেস্ট সিরিজের জন্য স্কোয়াড ঘোষণা করেছে উইন্ডিজ। বাংলাদেশের বিপক্ষে স্কোয়াডে ছিলেন এমন ক্রিকেটারদের মধ্যে বাদ পড়েছেন দুজন্। তারা হলেন ডেভন স্মিথ ও মিগুয়েল কামিন্স। দলে ফিরেছেন জোমেল ওয়ারিক্যান, আলজারি জোসেফ ও সুনিল অ্যামব্রিস। ডাক পেয়েছেন অনভিষিক্ত উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান জাহমার হ্যামিল্টন।

বাদ পড়লেন স্মিথ-কামিন্স
ডেভন স্মিথ। ©গেটি

 

Also Read - নবির অনন্য কীর্তি

টেস্টে ফেরার পর নয় ইনিংসে দুইটি অর্ধশতক হাঁকালেও সব মিলিয়ে বিবর্ন ৩৬ বছর বয়সী ডেভন স্মিথের পারফরম্যান্স। বাকি সাত ইনিংসের পাঁচটিতেই স্মিথ আউট হয়েছেন এক অঙ্কের ঘরে। ভারত সফরে তাকে ছাড়াই দল ঘোষণা করা হয়েছে।

২০১৭ সালে অভিষেক হয় ব্যাটসম্যান সুনিল অ্যামব্রিসের। দুই টেস্ট খেলা অ্যামব্রিস চোটের কারণে ছিটকে পড়েছিলেন। ভারতের বিপক্ষে মাঠে নামলে এ বছরের প্রথম টেস্ট খেলবেন তিনি। প্রায় আট মাস পর দলে ডাক পেয়েছেন অ্যামব্রিস।

ফিরেছেন ২১ বছর বয়সী পেসার আলজারি জোসেফ। ডানহাতি এ পেসার চোটের কারণে দলের বাইরে ছিলেন। বাংলাদেশের বিপক্ষে দ্বিতীয় টেস্টের স্কোয়াডে থাকলেও একাদশে ছিলেন না। তবে ওয়ানডে সিরিজে প্রত্যবর্তন হয় এ তরুণ পেসারের।

দীর্ঘদিন পর ডাক পেয়েছেন জোমেল ওয়ারিক্যান। ২০১৬ সালের পর আর টেস্ট খেলা হয়নি এ চার টেস্ট খেলা ক্রিকেটারের। ডাক পেয়েছেন অনভিষিক্ত উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান জাহমার হ্যামিল্টন। এর আগে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ঘরের মাটিতে টেস্ট সিরিজে ডাক পেলেও মাঠে নামা হয়নি জাহমার হ্যামিল্টনের। ভারতে সফরে শেন ডাওরিচের বিকল্প পছন্দ হিসেবে থাকছেন জাহমার হ্যামিল্টন।

দুই টেস্ট দিয়ে ভারত সফর শুরু হবে উইন্ডিজের। এরপর খেলবে পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ এবং তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ। প্রথম টেস্ট অনুষ্ঠিত হবে চার অক্টোবর।

উইন্ডিজ স্কোয়াডঃ জেসন হোল্ডার (অধিনায়ক), সুনিল অ্যামব্রিস, দেবেন্দ্র বিশ, ক্রেইগ ব্রাথওয়েট, রোস্টোন চেজ, শেন ডাউরিচ, শ্যানন গ্যাবরিয়েল, জাহমার হ্যামিল্টন, শিমরন হেটমেয়ার, শাই হোপ, আলজারি জোসেফ, কিমো পল, কিরন পাওয়েল, কেমার রোচ এবং জোমেল ওয়ারিক্যান।


আরো পড়ুনঃ সাব্বির-মোসাদ্দেককে বিসিবির তলব 


 

Related Articles

সিরিজ জিততে মরিয়া শাই হোপ

মাশরাফির কাছে হারের কারণ দু’টি

মিরপুরে এটাই শেষ ম্যাচ কি না, জানা নেই মাশরাফির

হোপের ব্যাটিংয়ে সিরিজে সমতা ফেরালো উইন্ডিজ

জোশির কথা একটাই- জিততে হবে