বিপিএল উদ্বোধনীর মঞ্চ মাতিয়ে টাকা নিতে চাননি সালমান

গত ৮ ডিসেম্বর পর্দা উঠে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের সপ্তম ও বিশেষ আসর বঙ্গবন্ধু বিপিএলের। ১১ ডিসেম্বর মাঠের লড়াই শুরুর আগে এদিন টুর্নামেন্টের উদ্বোধন ঘোষণা করেন প্রধানমন্ত্রী ও বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা। 

প্রধানমন্ত্রীর দেখা পেয়ে উচ্ছ্বসিত সালমান

Advertisment

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ আকর্ষণ ছিলেন বলিউড অভিনেতা সালমান খান। তার সঙ্গী হয়ে এসেছিলেন বলিউড অভিনেত্রী ক্যাটরিনা কাইফও।





তবে তাদের বাংলাদেশে আনার প্রক্রিয়াটা সহজ ছিল না। সিনেমার কাজ ছিল বলে সালমান প্রথমে ‘না’ বলে দিয়েছিলেন বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিলকে। কিন্তু বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে বিপিএলের এই বিশেষ আসর- এটি জানার পর ব্যস্ততার মাঝেও বাংলাদেশে আসতে রাজি হন। বিষয়টি জানার আগে বিপিএল কর্তৃপক্ষকে দিয়ে বসেছিলেন আসর পেছানোর প্রস্তাব, যাতে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অংশ নিতে পারেন!

দেশের শীর্ষস্থানীয় সংবাদমাধ্যম প্রথম আলোর এক প্রতিবেদনে উঠে এসেছে এসব তথ্য। তবে সবচেয়ে চমকপ্রদ তথ্য হল- বিপিএলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান মাতালেও সালমান নাকি কোনো পারিশ্রমিক নিতে চাননি। এমনকি সহশিল্পী ক্যাটরিনাকেও পারিশ্রমিক না নেওয়ার জন্য বলেন তিনি।






বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের চেয়ারম্যান শেখ সোহেল প্রথম আলোকে বলেন, ‘সালমান খান পারিশ্রমিক নিয়ে কখনোই কথা বলেনি। যখন টাকার আলাপ তুলেছি, আমার কাঁধে হাত দিয়ে হেসে বলেছেন, জীবনে টাকা কি সব? তুমি আমাকে এক কাপ চা বানিয়ে দিয়ো। ওটাই খাব। “দাবাং থ্রি” নিয়ে তিনি এত ব্যস্ত ছিলেন, ওই সময় আর কোনো অনুষ্ঠানেই যাননি। ক্রিকেট আর বঙ্গবন্ধুর নাম শুনে আমাদের অনুষ্ঠানে আসতে রাজি হয়েছেন। কোনো টাকা নিতে চাননি। তা-ই নয়, ক্যাটরিনা কাইফকে বলেছেন, তুমিও কোনো পারিশ্রমিক নিয়ো না।’

তবে শেষপর্যন্ত খালি হাতে ফিরে যেতে পারেননি সালমান-ক্যাটরিনা। সালমানের দাতব্য প্রতিষ্ঠানকে ২ কোটি টাকা ও ক্যাটরিনাকে ৫০ লাখ টাকা দেওয়া হয়। তবে দুই অতিথি শিল্পীর আন্তরিকতা মুগ্ধ করেছে বিপিএল-কর্তাদের।

প্রথমবারের মত বিডিক্রিকটাইম নিয়ে এলো অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ্লিকেশন। বাংলাদেশ এবং সকল আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বল বাই বল লাইভ স্কোর, এবং সাম্প্রতিক নিউজ সহ সবকিছু এক মুহূর্তেই পাবেন বাংলাদেশ ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় অনলাইন পোর্টাল BDCricTime এর অ্যাপে। অ্যাপটি ডাউনলোড করতে গুগল প্লে-স্টোর থেকে সার্চ করুন BDCricTime অথবা ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।