বিপিএল চতুর্থ আসরের কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স

বাংলাদেশ প্রমিয়ার লিগে (বিপিএল) প্রথম বারের মতো অংশগ্রহণ করে গড়-পড়তা এক দল নিয়েই আসরে চমক দেখিয়ে শিরোপা জিতে নিয়েছে মাশরাফির নেতৃত্বাধীন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। নিজেদের প্রথম আসরের গতি ও দলের আত্মবিশ্বাস ধরে রেখে আসন্ন বিপিএলের চতুর্থ আসরেও শিরোপা জয়ের দিকেই নজর বিপিএলের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন দলটির।

BRB-BPL-2015-Champion-Comilla-Victorians

Advertisment

এজন্য ইতোমধ্যে নিজেদের পছন্দ মতো দলও সাজিয়ে ফেলেছে আসরের অন্যতম শক্তিশালী দলটি। লক্ষ্য একটাই চলতি আসরেও শিরোপা ধরে রাখা।

এ মিশনে আগের আসরের কোচ সালাউদ্দিনকে পাশে না পেলেও নতুন কোচ হিসেবে অভিজ্ঞ মিজানুর রহমান বাবুলকে নিয়োগ দিয়েছে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। সাথে দলে ভিড়িয়েছে একাধিক অভিজ্ঞ ক্রিকেটারকে । দেশী-বিদেশী ক্রিকেটারদের সমন্বয়ে গড়ে তুলেছে গত আসরের তুলনায় বেশ শক্তিশালী দলও।

অভিজ্ঞ ক্রিকেটারদের দলে ভিড়ালেও কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স গত আসরের ন্যায় এবারও ছুটেনি তারকা ক্রিকেটারদের পিছনে। বরং পারফরমারদের খুঁজে নিয়ে সাজিয়েছে অন্যরকম একটি দল।

বিপিএলের তৃতীয় আসরে পারফর্ম করা ক্রিকেটারদের মধ্য থেকে দুজন ক্রিকেটারকে দলে রেখে দেওয়া যাবে বিপিএল গভর্নিং কমিঠির এ সিদ্ধান্তকে কাজে লাগিয়ে ইমরুল কায়েস ও উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান লিটন দাসকে দলে রেখে দিয়েছে দলটি। সেইসাথে বিদেশী ক্রিকেটারদের মধ্যে অভিজ্ঞ আশহার জাইদি ও নুয়ান কুলাসেকারাকে।

শুধু অভিজ্ঞ নয় তরুণ ক্রিকেটারদের দিকেও নজর দিয়েছে দলটি। সুযোগ দেওয়া হয়েছে বাংলাদেশের আগামী দিনগুলোর জন্য সম্ভাবনাময়ী কিছু ক্রিকেটারকে। যাদের মধ্যে ঘরোয়া ক্রিকেটে পরীক্ষিত আল আমিন জুনিয়র ও নাজমুল হোসেন শান্তর নাম উল্লেখযোগ্য। একইসাথে জাতীয় দল থেকে ছিটকে যাওয়া ক্রিকেটারদেরও দলটিতে স্থান করে দিয়েছে টিম ম্যানেজমেন্ট। অভিজ্ঞ মোহাম্মদ শরীফ, নাবিল সামাদকে জায়গা করে দেওয়া হয়েছে দলটিতে।

দেশী ক্রিকেটারদের বাইরে বিদেশী ক্রিকেটারদের মধ্যে থেকেও পারফরমারদের ভিড়ানো হয়েছে দলটিতে। এখানেও অভিজ্ঞদের পাশাপাশি জায়গা পেয়েছে তরুণ উদীয়মান ক্রিকেটার। বাংলাদেশের বিপক্ষে সিরিজ জুড়ে দারুণ পারফর্ম করা আফগানিস্তানের উদীয়মান লেগ স্পিনার রশিদ খানের মতো তরুণ ক্রিকেটারকেও ভিড়ানো হয়েছে দলে। সেই সাথে জায়গা পেয়েছেন রোভম্যান পাওয়েল, রশিদ খান, থিসারা পেরেরা, জেসন হোল্ডারদের মতো পারফর্মাররা।

সুতরাং, শিরো ধরে রাখার লড়াইয়ে আসন্ন আসরে যে মাশরাফির নেতৃত্বাধীন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স হতে যাচ্ছে অন্যতম শক্তিশালী দল  ব্যাপারে কোন সন্দেহ নেই।

কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স দলঃ মাশরাফি বিন মুর্তজা, ইমরুল কায়েস, লিটন কুমার দাস, খালিদ লতিফ, শাহজাইব হাসান, আল-আমিন জুনিয়র, নাজমুল হোসেন শান্ত, নাহিদুল ইসলাম, মোহাম্মদ সাইফ উদ্দিন, জেসন হোল্ডার, মোহাম্মদ শরীফ, নাবিল সামাদ, জসীমউদ্দিন, রাসেল আল মামুন, সৈকত আলী, সোহেল তানভীর, ইমাদ ওয়াসিম, আশহার জাইদি, নুয়ান কুলাসেকেরা, থিসারা পেরেরা, রাশিদ খান  ও রোভম্যান পাওয়েল।

-ইমরান হাসান, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটিম ডট কম