Scores

বিশ্বকাপে যত প্রথম

চলে এসেছে ক্রিকেট বিশ্বকাপের মাস। ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় আসরের উত্তাপ টের পাচ্ছেন ক্রিকেটপ্রেমীরা। বিশ্বকাপে নানান কীর্তি গড়ে ইতিহাসে নাম লিখিয়েছন নানান ক্রিকেটার।  তবে কারো নাম চিরস্থায়ী। প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে কোনো কিছু করার কীর্তি তো আর বদলানো সম্ভব নয়।

এক নজরে ক্রিকেট বিশ্বকাপের কিছু ‘প্রথম’

প্রথম শতক

Also Read - পাঞ্জাবকে হারিয়ে লড়াইয়ে এগিয়ে গেল কলকাতা


বিশ্বকাপে যত প্রথম

১৯৭৫ সালে অনুষ্ঠিত হয় প্রথম বিশ্বকাপ।  ১৯৭৫ সালের ৭ জুন প্রথম ম্যাচে ইংল্যান্ডের মুখোমুখি হয় ভারত। প্রথমে ব্যাটিং করা ইংল্যান্ডের হয়ে শতক হাঁকান ওপেনার ডেনিস অ্যামিস। ৬০ ওভারের ম্যাচে ৩৩৪ রান করে ইংল্যান্ড। মদন লালের বলে বোল্ড হওয়ার আগে ১৪৭ বলে ১৩৭ রান করেন ডেনিস অ্যামিস। বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচসেরাও তিনি। ইংল্যান্ড-ভারত ম্যাচটি স্মরণীয় হয়ে আছে আরেকটি কারণে। তা হলো এ ম্যাচে ভারতের ওপেনার সুনীল গাভাস্কার খেলেছিলেন ১৭৪ বলে ৩৬ রানের এক অতি মন্থর ইনিংস।   এদিন আরেক ম্যাচে ২০১৩ বলে ১৭১ রান করেছিলেন নিউজিল্যান্ডের গ্লেন টার্নার।

 

প্রথম শত রানের জুটি

ভারতের বিপক্ষে ১৯৭৫ সালে দ্বিতীয় উইকেটে ১৭৬ রানের জুটি গড়েন ডেনিস অ্যামিস আর কেথ ফ্লেচার। তাদের জুটি ভাঙেন আবিদ আলি। এক উইকেটে ৫৪ রান থেকে দলকে ২৩০ রান পর্যন্ত নিয়ে যান ডেনিস অ্যামিস আর কেথ ফ্লেচার। ৬৮ রানের ইনিংস খেলেন কেথ ফ্লেচার।

প্রথম ডাক

বিশ্বকাপের প্রথম ডাকের তিক্ত অভিজ্ঞতা শ্রীলঙ্কার সাবেক অধিনায়ক অনুরা তেন্নেকুনের। উইন্ডিজের বিপক্ষে এ ম্যাচে ৪ বলে ০ রান করে শিকার হন বার্নার্ড জুলিয়েনের। ম্যাচটিতে ৮৬ রানে গুটিয়ে যায় লঙ্কানরা।

প্রথম দ্বিশতক

বিশ্বকাপে যত প্রথম
২০১৫ সালে দ্বিশতকের দেখা পায় ক্রিকেট বিশ্বকাপ। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ডাবল সেঞ্চুরি হাঁকিয়ে প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে বিশ্বকাপে এ কীর্তি গড়েন ক্যারিবিয়ান হার্ড হিটার ক্রিস গেইল। ১৪৭ বলে ২১৫ রানের ইনিংস খেলেছিলেন তিনি। তার ইনিংসে ছিল ১০ চার আর ১৬ জয়।

প্রথম বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক 

১৯৭৫ সালের বিশ্বকাপ জিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। তাদের নেতৃত্বে ছিলেন ক্লাইভ লয়েড। প্রথম বিশ্বকাপ জিতে ইতিহাসের পাতায় ঠাঁই করে নিয়েছেন তিনি।

প্রথম পাঁচ উইকেট 

বিশ্বকাপে যত প্রথম

বিশ্বকাপে প্রথম পাঁচ উইকেটও হয়েছিল প্রথম বিশ্বকাপের প্রথম দিনেই। লিডসে অস্ট্রেলিয়ার ২৭৮ রানের জবাব দিতে নেমে ২০৩ রান করে অলআউট হয় পাকিস্তান। অস্ট্রেলিয়ার পেসার ডেনিস লিলি ১২ ওভারে ৩৪ রানের বিনিময়ে ৫ উইকেট শিকার করেছিলেন। তার শিকার হয়েছিলেন সাদিক মোহাম্মদ, আসিফ ইকবাল, সরফরাজ নওয়াজ, ওয়াসিম বারি আর আসিফ মাসুদ।

প্রথম হ্যাটট্রিক

১৯৮৭ সালের বিশ্বকাপে হয় প্রথম হ্যাটট্রিক। নাগপুরে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে হ্যাটট্রিক করেছিলেন ভারতের ডানহাতি পেসার চেতন শর্মা। প্রথমে বোল্ড করেন কেন রাদারফোর্ডকে। ২৬ রান করেন তিনি। পরের দুই বলে বোল্ড করেন যথাক্রমে ইয়ান স্মিথ আর ইউয়েন চ্যাটফিল্ডকে। এটি ছিল আন্তর্জাতিক ওয়ানডে ক্রিকেটের তৃতীয় হ্যাটট্রিক।

প্রথম উইকেটরক্ষক হিসেবে পাঁচ ডিসমিসাল

বিশ্বকাপে প্রথম উইকেটরক্ষক হিসেবে পাঁচটি ডিসমিসালের কীর্তি ভারতের উইকেটরক্ষক সৈয়দ মুজতবা হোসেন কিরমানির। ১৯৮৩ বিশ্বকাপে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে পাঁচ ডিসমিসাল করেন তিনি। পাঁচটিই ছিল ক্যাচ।  তাকে ক্যাচ দিয়ে ফিরেন আলি ওমরশাহ, জ্যাক হেরন, ডেভ হৌটন, রবিন ব্রাউন এবং পিটার রসন।

প্রথম ফিল্ডার হিসেবে এক ম্যাচে পাঁচ ক্যাচ 

এ রেকর্ডের পাশে নামের ঘরটা খালি। বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত এক ম্যাচে সর্বাধিক ক্যাচ নেওয়ার রেকর্ড চারটি। এ রেকর্ড রয়েছে বাংলাদেশের সৌম্য সরকার, ভারতের মুহাম্মদ কাইফ ও পাকিস্তানের উমর আকমল। ২০১৯ বিশ্বকাপে কেউ এক ম্যাচে পাঁচ ক্যাচ নিলেই তিনি হয়ে যাবেন প্রথম।

প্রথমবারের মত বিডিক্রিকটাইম নিয়ে এলো অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ্লিকেশন। বাংলাদেশ এবং সকল আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বল বাই বল লাইভ স্কোর, এবং সাম্প্রতিক খবর সহ সবকিছু এক মুহূর্তেই পাবেনবাংলাদেশ ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় অনলাইন পোর্টাল BDCricTime এর অ্যাপে। অ্যাপটি ডাউনলোড করতে গুগল প্লে-স্টোর থেকে সার্চ করুন BDCricTime অথবা ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

সম্ভাবনাময় বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচের সামনে বাংলাদেশ

বিশ্বকাপে পাকিস্তানের সবচেয়ে বড় পরাজয়

উইন্ডিজের বিশ্বকাপ রিজার্ভ লিস্টে পোলার্ড ও ব্রাভো

লেস্টারে পৌঁছেছে বাংলাদেশ দল

বাংলাদেশ থেকে সাবধান পাকিস্তানকে রমিজ রাজা