Scores

বিশ্বকাপ জিতে মরগানের কণ্ঠে তৃপ্তি আর মুগ্ধতা

আর কয়েক ফুট এগিয়ে জেমস নিশাম কোনোমতে দাগ ছুঁয়ে ফেললেই ম্যাচ জিতে যেত নিউজিল্যান্ড। ৫০ ওভার শেষে টাই হওয়ার পর সুপার ওভারেও টাই। কিন্তু বাউন্ডারির সংখ্যা বেশি হওয়ায় বিজয়ী ইংল্যান্ড। ইয়ন মরগানের যেন বিশ্বাসই হচ্ছে না। এমন একটি শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচে শেষে বিশ্বচ্যাম্পিয়ন যে তারই দল!

বিশ্বকাপ জিতে মরগানের কণ্ঠে তৃপ্তি আর মুগ্ধতা

ম্যাচ শেষে মরগানের কথায় থাকল আত্মতৃপ্তি আর মুগ্ধতার ছোঁয়া। প্রশংসা করলেন বেন স্টোকস ও জস বাতলারের- ব্যাটিং বিপর্যয় প্রতিরোধ করে যারা পরাজয় ঠেকিয়েছেন। দীর্ঘ সময়ে গড়ে তোলার দলের এমন অর্জনের দিনে কৃতিত্ব দিয়েছেন স্লগ ওভার ও সুপার ওভারে নৈপুণ্য প্রদর্শন করা আলোচিত জফরা আর্চারকেও।

Also Read - এমন রোমাঞ্চকর ম্যাচ, ভাবতে পারেননি বাটলার-স্টোকসরাও


মরগান বলেন, ‘ম্যাচে খুব বেশি পার্থক্য ছিল না। খুবই অবাক হয়েছি এমন ম্যাচ খেলে। আমি কেন উইলিয়ামসনের (নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক) সাথে এই ম্যাচ স্মরণীয় রাখতে চাই। তারা যে উদ্যম প্রদর্শন করেছে… অনেক কঠিন ম্যাচ ছিল।’

নিজেদের নিবেদন ও পরিশ্রমের প্রশংসা করে ইংলিশ অধিনায়ক জানান, ‘চার বছরের একটি যাত্রা। এই সময়ে নিজেদের অনেক উন্নতি ঘটিয়েছি, বিশেষ করে গত দুই বছরে। ক্রিকেট বিশ্ব এখন আমাদের। মাঝখানের সময়টাতে ছেলেরা শান্ত রেখেছে আমাদের। অভিজ্ঞতা কাজে লাগিয়ে যেভাবে খেলেছে… দুই দলের মধ্যে তফাৎ ছিল না তেমন। দিনশেষে ট্রফি আমরা উঁচিয়ে ধরছি বলে আনন্দিত।’

‘স্টোকস, বাটলার ও আর্চারকে কৃতিত্ব দিতে হবে। আর্চার যত খেলে তত নিজের উন্নতি ঘটায়। ক্রিকেট বিশ্ব এখন তার পায়ের নিচে।’– বিশ্বজয়ের নায়কদের এভাবেই মূল্যায়ন করলেন মরগান।

 

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

বিশ্বকাপে মুশফিকের ভুল নিয়ে কথা বললেন ডমিঙ্গো

আবারো পর্যালোচনা করা হবে ফাইনালের সেই ওভারথ্রো

ইন্টারনেটে রেকর্ড গড়লো বিশ্বকাপের দ্বাদশ আসর

নেতৃত্ব থেকে অব্যহতি দেয়া হচ্ছে ডু প্লেসিকে!

বিশ্বকাপের পারফরম্যান্সের রিপোর্ট এখনও পায়নি বিসিবি