SCORE

‘বিশ্বাস রাখলেই ভালো ফল আসবে’

চতুর্থ দিনের খেলা শেষে শ্রীলঙ্কা অকপটে জানিয়েছিল, ইতিবাচক মানসিকতার অভাবেই ম্যাচে ব্যাকফুটে চলে গিয়েছে বাংলাদেশ। কথাটি অবশ্য ভুল ছিল না। দলের ভেতরকার অবস্থা অজানা থাকলেও, টাইগাররা একটু খারাপ খেললেই দলের বাইরে শুরু হয়ে যায় নেতিবাচক আলোচনা। যার প্রভাব পড়ে খেলার মাঠেও।

শতকের পর মুমিনুলের উদযাপন শতকের পর মুমিনুলের উদযাপন

রোববার শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দুই ম্যাচ টেস্ট সিরিজের প্রথম ম্যাচে দারুণ এক ড্র এনে দেওয়ার পর সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হন ম্যাচের নায়ক মুমিনুল হক। সেখানে তিনি সবার প্রতি দলের উপর বিশ্বাস রাখার তাগিদ জানান।

Also Read - সোমবার থেকে মাঠে গড়াচ্ছে প্রিমিয়ার লিগ

মুমিনুল বলেন, ‘এই পরিস্থিতিতে আমরা এর আগেও অনেকবার পড়েছিলাম। এ নিয়ে রিয়াদ ভাইয়ের সাথেও কথা হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হল মানসিকভাবে দৃঢ় থাকাটা। নিজের কাছে বিশ্বাস থাকতে হবে। এমনকি টিম ম্যানেজমেন্ট থেকে শুরু করে টিম বয়… আমার মনে হয় আপনারা সংবাদমাধ্যমের যারা আছেন তাদের মতেও। পুরো দেশবাসীরই এরকম বিশ্বাস করতে হবে। সত্যি কথা এটা… সবাই বিশ্বাস করলে জিনিসটা আসবে।’

নিজেদের উপর যেন বিশ্বাসটা থাকে, এজন্য পঞ্চম দিনের খেলা শুরুর আগে এটি নিয়ে আলোচনাও হয়েছে দলের ভেতর। সংবাদ সম্মেলনে রিয়াদের পাশে বসে থাকা মুমিনুল সাংবাদিকদের বলেন, ‘রিয়াদ ভাইয়ের সাথে আলাপ করেছিলাম, উনিও একই কথা বলেছে। তো আমরা এটাই বলছিলাম- ইচ অ্যান্ড এভরিওয়ান, কারও ভেতরে যেন সন্দেহ না আসে যে এই ম্যাচটা আমরা বাঁচাতে পারবো না। একজনের মধ্যে জিনিসটা আসলেই ভাইরাসের মতো এটা চলতে থাকে।’

ইতিবাচক মানসিকতার উত্তর জোরদার করে মুমিনুল আরও বলেন, ‘আমরা দলের মধ্যে যখন কথা বলি, তখন আমরা নিশ্চিত করেছি আমাদের কারও ভেতরে যেন কোনো সন্দেহ না থাকে। যদি আমরা বিশ্বাস করি যে খেলাটা শেষ করতে পারবো, তাহলেই খেলা শেষ করে হাসিমুখে মাঠ থেকে বেরিয়ে আসবো। এই বিশ্বাসটা ছিল সবার ভেতরেই।’

আরও পড়ুনঃ নতুন অতিথি আসছে মুশফিকের ঘরে

Related Articles

চট্টগ্রাম টেস্টে সেদিন শতক হয়নি শচীনের!

সেশন বাই সেশন খেলেই মুমিনুলের চাপ জয়

‘বাংলাদেশ নেতিবাচক মানসিকতায় চলে গিয়েছিল’

২০০ রানের লিড নিয়ে ৭১৩-তে থামল শ্রীলঙ্কা

বড় লিডের লক্ষ্যে লড়ছে শ্রীলঙ্কা