Scores

ব্যর্থ সাব্বির, শুভ-সানজামুলে শিরোপা জিতল গোমতী

তারকা ক্রিকেটারদের উপস্থিতিতে যেন জ্বলজ্বল করছিল কুমিল্লার শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত ক্রিকেট স্টেডিয়াম। বড় তারকা হিসেবে বেশি আলো ছিল সাব্বির রহমানের দিকেই। তবে ফর্মহীনতা থেকে বেরই হতে পারছেন না এই ক্রিকেটার। 

কুমিল্লায় জাঁকজমক কাউন্সিলর কাপ টি-২০ ক্রিকেট টুর্নামেন্টের ফাইনালে মুখোমুখি হয় রয়েল অব গোমতী ও ওয়েলফেয়ার ইউনাইটেড। ম্যাচে অনায়াস জয় তুলে নিয়ে শিরোপা জিতেছে রয়েল অব গোমতী।

Also Read - ব্যাংকার্স লিগে বাংলাদেশ ব্যাংক, এসসিবি, এইচএসবিসি ও প্রাইম ব্যাংকের জয়






প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ১৯৮ রান জড়ো করে রয়েল অব গোমতী, ৫ উইকেট হারিয়ে। এই দলের নেতৃত্বে ছিলেন সাব্বির রহমান। দলে ছিলেন শামসুর রহমান, সানজামুল ইসলামের মত তারকারাও।

শামসুর দলের পক্ষে দ্বিতীয় ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ৫৭ রান করে অপরাজিত থাকেন, সানজামুল করেন ২১ রান। কিন্তু সাব্বির করতে পেরেছেন মাত্র ১ রান। রান আউট হয়ে ফিরে যান সাজঘরে। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৬০ রান আসে জসিমউদ্দিন সায়মনের ব্যাট থেকে।






জয়ের লক্ষ্যে খেলতে নেমে জাকির হাসান, রকিবুল হাসানের দল ওয়েলফেয়ার ইউনাইটেড ভালো করতে পারেনি। নির্ধারিত ২০ ওভারও খেলতে পারেনি দলটি। ১৯ ওভার ব্যাট করে সবকটি উইকেট হারিয়ে ফেলে দলীয় ১৬৫ রানেই। এতে রয়েল অব গোমতী তুলে নেয় ৩৩ রানের বড় জয়।

বল হাতে আলো ছড়িয়েছেন দেশের ক্রিকেটের পরিচিত মুখ সানজামুল। ৪ ওভার বল করে ২৭ রানের খরচায় প্রতিপক্ষের ৩টি উইকেট শিকার করেন ৩০ বছর বয়সী এই বাঁহাতি স্পিনার। সাব্বির ব্যাট হাতে আলো ছড়াতে না পারলেও তার নেতৃত্বে শিরোপা জেতে দল।

ব্যাট ও বল হাতে নজরকাড়া পারফরম্যান্সে ম্যাচ সেরার পুরস্কার জিতেছেন শাহ পরায়ন।

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

 

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন
Tweet 20
fb-share-icon20

Related Articles

সাব্বিরের ‘ডাক’-এর দিনে আশরাফুলদের শিরোপা উৎসব

নববর্ষ উদযাপনে প্রাণ হারালেন ক্রিকেটার

শিরোপার দিকেই নজর কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের

ওপারে পাড়ি জমালেন সেই রবিউল

“কুমিল্লা ছাড়ার ব্যাপারটা পুরোটাই প্রফেশনাল”