Scores

ভারতের কাছে বাংলাদেশি যুবাদের স্বপ্নভঙ্গ

অনূর্ধ্ব ১৯ এশিয়া কাপ ২০১৯ আসরের ফাইনালে বাংলাদেশকে ৫ রানে হারিয়ে শিরোপা জিতেছে ভারতের যুবারা। ভারতের ১০৬ রানের জবাবে ১০১ রানে থামে বাংলাদেশের যুবাদের ইনিংস। যার ফলে শিরোপা হাতছাড়ার আক্ষেপে পুড়তে হয় প্রথমবারের মতো যুব এশিয়া কাপের ফাইনালে খেলা বাংলাদেশি যুবাদের।

বাংলাদেশি যুবাদের বোলিং তোপে দিশেহারা ভারত।
রান তাড়া করতে নেমে শুরুটা মোটেও ভালো হয়নি বাংলাদেশের যুবাদের। রানের খাতা খোলার আগেই সাজঘরে ফিরেন তানজিদ হাসান। আম্পায়ারের ভুল সিদ্ধান্তে ইনিংসের চতুর্থ বলেই তার উইকেট হারায় যুবা টাইগাররা। দলের চাপ বাড়িয়ে ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারে আউট হন পারভেজ হোসেনও।

দুই ওপেনারের বিদায়ের পর ব্যর্থতার পরিচয় দিয়ে তাদের পথে হাঁটেন তৌহিদ হৃদয় (০) ও মাহমুদুল হাসান জয় (১)। পঞ্চম ওভারের মধ্যে স্কোরবোর্ডে ১৬ রান তুলতেই ৪ উইকেট হারিয়ে বসে বাংলাদেশ।

Also Read - ক্রিকেটাররা মেশিন নয়: ম্যাকেঞ্জি


দলের শিরোপা জয়ের স্বপ্ন যখন ফ্যাঁকাসে হতে শুরু করে তখন ক্রিজে আসেন দলনেতা আকবর। পঞ্চম উইকেট জুটিতে শাহাদাত হোসেনকে নিয়ে ইনিংস মেরামতের লড়াই চালান। তবে সফল হননি। ৩০ বলে ৩ রান করা শাহাদাত বিদায় নিলে ভাঙ্গে দু’জনার মধ্যকার জুটি। এরপর ক্রিজে এসে নিজের সামর্থ্যর প্রমাণ দিতে ব্যর্থ হন শামীম হোসেন। দলীয় ৫১ রানে ষষ্ঠ উইকেট হারায় বাংলাদেশ।

সপ্তম উইকেটে আকবর ও মৃত্যুঞ্জয় মিলে বাংলাদেশকে জয়ের স্বপ্ন দেখান। তবে পরপর দুই বলে আকবর (২৩) ও মৃত্যুঞ্জয় (২১) আউট হলে ফিঁকে হয়ে যায় যুবা টাইগারদের সে স্বপ্ন।

নবম উইকেটে ফিঁকে হওয়া স্বপ্নকে নতুন করে জাগিয়ে তোলেন রাকিবুল হাসান ও তানজিম হাসান সাকিব। ২৩রানের জুটি গড়ে দলকে জয়ের কাছাকাছি নিয়ে আসেন তারা। আম্পায়ারের ভুল সিদ্ধান্তে তীরে এসে তরী ভেড়ানোর আগেই বিচ্ছিন্ন হয় এ জুটি। ব্যাটে বল লাগার পরও লেগ-বিফোর দেওয়া হয় সাকিবকে। ১২ রান করে তিনি ফিরে গেলে ক্রিজে আসেন শাহিন আলম। তিন বল মোকাবেলার পর আউট হয়ে যান তিনিও। দলীয় ১০১ রানে থামে যুবা টাইগারদের ইনিংস। ক্রিজের অপর প্রান্তে ১১ রান নিয়ে অপরাজিত থেকে তাই আফসোস নিয়েই মাঠ ছাড়তে রাকিবকে।

শ্রীলঙ্কার আর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয় ভারত। শুরু থেকেই বাংলাদেশি বোলারদের বোলিং তোপের মুখে পড়ে ভারত। তানজিম হাসান সাকিব ও মৃত্যুঞ্জয় চৌধুরীর বুদ্ধিদীপ্ত বোলিংয়ের সাথে শামীমের অসাধারণ ফিল্ডিংয়ে ৮ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে বসে ভারত।

চতুর্থ উইকেটে ধ্রুব জুরেল ও শাসওয়াত রাওয়াতের ব্যাটে খেলায় ফেরার স্বপ্ন দেখে ভারত। তবে সে স্বপ্নে জল ঢেলে দেন শামীম। ইনিংসের ১৫তম ওভারে প্রথমবারের মতো আক্রমণে এসেই বাজিমাত করেন তিনি। ১৯ রান করা রাওয়াতকে আউট করে প্রথমে ভাঙ্গেন ৪৫ রানের চতুর্থ উইকেট জুটি। এর একবল পর আবারও আঘাত হেনে আউট করেন ভরুনকে (০)। তার এক ওভারে দুই উইকেট শিকারে ৫৫ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে আবারও চাপে পড়ে ভারত।

দলটির বিপর্যয় বাড়ে সেট ব্যাটসম্যান রাওয়াত ৩৩ রান করে শামীমের শিকারে পরিণত হলে। তার বিদায়ে দলীয় ৬২ রানে সপ্তম উইকেটের পতন ঘটে ভারতের।

অষ্টম উইকেট জুটিতে করন লাল ও সুশান্ত মিশ্র মিলে ২০ রান যোগ করেন। সুশান্ত বিদায় নিলে শেষদিকে একাই লড়ে যান করন। তার ৩ চার ও ১ ছক্কায় করা সর্বোচ্চ ৩৭ রানের ইনিংসে শেষ পর্যন্ত ১০৬ রানের পুঁজি পায় ভারত।

বাংলাদেশি বোলারদের মধ্যে ৬ ওভার বল করে ৮ রান খরচায় সর্বোচ্চ ৩ উইকেট নেন শামীম। তাছাড়া মৃত্যুঞ্জয়ও লাভ করেন তিন উইকেট। তাছাড়া,সাকিব ও শাহিন একটি করে উইকেট লাভ করেন।

সংক্ষিপ্ত স্কোর-
ভারত অ. ১৯: ১০৬/১০ (৩২.৪ ওভার)
করন ৩৭, রাওয়াত ৩৩; শামীম ৬-২-৮-৩, মৃত্যুঞ্জয় ৭.৪-০-১৮-৩।

বাংলাদেশ অ. ১৯ দল: ১০১/১০ (৩৩ ওভার)
আকবর ২৩, মৃত্যুঞ্জয়।

প্রথমবারের মত বিডিক্রিকটাইম নিয়ে এলো অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ্লিকেশন। বাংলাদেশ এবং সকল আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বল বাই বল লাইভ স্কোর, এবং সাম্প্রতিক নিউজ সহ সবকিছু এক মুহূর্তেই পাবেন বাংলাদেশ ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় অনলাইন পোর্টাল BDCricTime এর অ্যাপে। অ্যাপটি ডাউনলোড করতে গুগল প্লে-স্টোর থেকে সার্চ করুন BDCricTime অথবা ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

মৃত্যুঞ্জয়ের চোটে বিশ্বকাপে রুয়েল

বাংলাদেশি যুবাদের সামনে ইতিহাস গড়ার হাতছানি

বাংলাদেশি যুবাদের বোলিং তোপে দিশেহারা ভারত

এক ওভারে দুই উইকেট নিলেন শামীম

ভারতের বিপক্ষে বাংলাদেশের যুবাদের দুর্দান্ত শুরু