‘ভারত সুবিধা পাচ্ছে বলা বন্ধ করুন’

গ্রুপ পর্বের দুই ম্যাচ বাকি থাকতেই সুপার ফোরের সূচি ঘোষণা করেছে এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিল (এসিসি)। আর এতেই ক্ষেপেছে পাকিস্তান বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক। তবে বিসিসিআইয়ের এক কর্মকর্তা ভারতকে বাড়তি সুবিধা দেওয়া হচ্ছে কথাটি বলা বন্ধ করতে বলেছেন।

‘ভারত সুবিধা পাচ্ছে বলা বন্ধ করুন’
সুপার ফোরের প্রত্যেকটি ম্যাচ দুবাইতে খেলবে ভারত। ছবিঃ গেটি

এসিসির নেওয়া সিদ্ধান্তে অবাক হয়েছে অনেক ক্রিকেট বোদ্ধারা। কেউ এটির প্রতিবাদ করছে আবার কেউ চুপ। মূলত ঘটনাটি এশিয়া কাপের সুপার ফোরের সূচি নিয়ে। গতকালই সেটি প্রকাশ করেছে এসিসি। অথচ তখনও দুইটি ম্যাচ বাকি গ্রুপ পর্বের। ভারত-পাকিস্তান লড়াই এবং বাংলাদেশ-আফগানিস্তানের ম্যাচ হওয়ার আগেই এমন অদ্ভুত সূচি প্রকাশ করেছে এসিসি।

এতে অবশ্য চুপ থাকেননি বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি মুর্তজা ও পাকিস্তানের অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ। সূচিতে বাংলাদেশ ও পাকিস্তানকে গ্রুপের রানার্স-আপ হিসেবে ঘোষণা করেছে এসিসি। অথচ নিজেদের শেষ ম্যাচে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার দৌড়ে লড়ছে বাংলাদেশ ও আফগানিস্তান। একাংশ দাবি করছেন ভারতকে সুবিধা দিয়েই গ্রুপ পর্বের ম্যাচের আগে সূচি প্রকাশ করেছে এসিসি।

মূলত ভারতীয় ক্রিকেট দলের যাতায়াতের ধকল যাতে সামলানো না লাগে এই জন্য আগেই সূচি প্রকাশ এসিসির। এই নিয়ে বেশ গরম সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম। এইবার এটি নিয়ে মুখ খুলেছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড বিসিসিআই। তাদের বোর্ডের এক কর্মকর্তা এই বিষয়ে কথা বলেছে। জানিয়েছেন ভারতকে সুবিধা দেওয়া হচ্ছে চেচামি বন্ধ করতে। ভারতের মুম্বাই মিররে প্রকাশিত প্রতিবেদন উল্লেখ করা হয়,

Also Read - স্ট্রিক-জনসন-মিলসদের ছাড়িয়ে গেলেন সাকিব

“এটা তো সবারই জানা, দুবাইতে বেশি টিকেট বিক্রি হয়। আর ভারতের ম্যাচেই সবচেয়ে বেশি আয় করা সম্ভব। সেখানে ২৪টি কর্পোরেট বক্স রয়েছে। মানুষ যেটাই চিন্তা করুক না কেন, আয়টাই মূল বিষয়। হংকং ও আফগানিস্তানের মত দেশ উন্নয়ন না হলে এসিসি কোথায় তহবিল পাবে?”

এবারের এশিয়া কাপ যে ভারতে হওয়ার কথা ছিল সেটি মনে করিয়ে দেন ভারতের এই বোর্ড কর্মকর্তা। সেই সাথে ভারত সুবিধা পাচ্ছে সেই চেচামিও বন্ধ করার দাবি জানান তিনি।

“এই সূচি তো একদিনে তৈরি করা হয়নি। আপনারা হয়ত ভুলে গেছেন এবারের আসরটি ভারতেই হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু পাকিস্তানের জন্য এখানে অনুষ্ঠিত হবে। সবাইকে কিছু ছাড় দিতে হচ্ছে। আর ভারত সুবিধা পাচ্ছে এটি বলাও বন্ধ করা উচিৎ।”

এসিসির দেওয়া সূচি অনুযায়ী সুপার ফোরের প্রত্যেকটি ম্যাচই দুবাইতে খেলবে ভারত। যেখানে বাকি তিন দল, আফগানিস্তান, বাংলাদেশ, পাকিস্তানকে দুবাই-আবুধাবিতে খেলতে হচ্ছে। সেই সাথে মনে করিয়ে দিয়েছেন মাঠে শ্রীলঙ্ক-আফগানিস্তান ম্যাচে দর্শকদের কথাও। তবে এইদিক দিয়ে ভারত থেকে পিছিয়ে নেই বাংলাদেশ। এখন পর্যন্ত দুইটি ম্যাচে হাউসফুল ছিল গ্যালারি।

আরও পড়ুনঃ জনসন-মিলসদের ছাড়িয়ে গেলেন সাকিব

Related Articles

এই মিরাজ অনেক আত্মবিশ্বাসী

মিঠুনের ‘মূল চরিত্রে’ আসার তাড়না

‘আঙুলটা আর কখনো পুরোপুরি ঠিক হবে না’

এক নয় মাশরাফির তিন ইনজুরি

‘বিশ্ব ক্রিকেটে সম্মানজনক জায়গা আদায় করেছে বাংলাদেশ’