মাহমুদউল্লাহর অনুরোধেই বেশি ছয় মারেননি মাশরাফি

 

mash-riyad

Advertisment

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ টি-টোয়েন্টির চতুর্থ আসরের টুর্নামেন্টে টিকে থাকার লড়াইয়ে আজ মাঠে নেমেছিল কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানন্স। মাহমুদউল্লাহর খুলনা টাইটানস কে পাঁচ উইকেটে হারিয়ে শেষ চারের আশা বাঁচিয়ে রাখলো কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স।

ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে আগেই ঢুকেই গিয়েছিল খুলনা টাইটানস অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ কিন্তু তার পেছনে আস্তে আস্তে সংবাদ সম্মেলনে ঢুকলেন ভিক্টোরিয়ান্স অধিনায়ক মাশরাফি মোর্তাজা। ঢুকেই বলেন আজ দুইজনেই একসাথে সংবাদ সম্মেলন করবো। ওদের দেখাদেখি দায়িত্ব বদল করে নিয়েছেন দুই দলের মিডিয়া ম্যানেজারও। সংবাদ সম্মেলনের পর্বটা শুরু করেছিলেন ভিক্টোরিয়ান্স অধিনায়ক মাশরাফি মুর্তাজা।

পুরো ম্যাচে দুই দল মিলে ছক্কা হাঁকিয়েছে মাত্র ৭টি, চারটি মেরেছে কুমিল্লা। যার ৩টি ছয়ই এসেছে অধিনায়কের ব্যাট থেকে। মাশরাফি পর্ব শেষে মাহমুউল্লাহ পর্ব চলাকালীন, তার বোলিং প্রসঙ্গ উঠতেই মাশরাফি মজা করে বলেন, “রিয়াদ আমাকে যতটুকু বলেছে ততটুকুই মেরেছি। বল হাতে নেওয়ার সময় বলে, দুইটার বেশি মাইরেন না।কিন্তু টিমকে তো দেখাতে হয় ব্যাট ঘোরানো। একটা দেখাতে গিয়ে ব্যাটের কানায় লেগেছে।”

কুমিল্লার ইনিংস চলাকালীন ১২তম ওভারে বল করতে আসেন রিয়াদ। আর সেই ওভারের দ্বিতীয় ও পঞ্চম বলে ছয় হাঁকান মাশরাফি। বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের অনুশীলন চলাকালীনও মাশরাফি ছয় হাঁকান রিয়াদের বলে।

“অনুশীলনে আমাকে মাশরাফি ভাই সব সময়ই ভালো মারেন। আজকে আমি চেষ্টা করেছিলাম ওয়াইড ইয়র্কার করতে। কিন্তু পারিনি। তারপরও উনি ভালো সামর্থ্য দেখিয়ে ছয় মেরেছেন।”

(দেখুন খুলনার বিপক্ষে মাশরাফির ৩ উইকেট আর ৩ বিশাল ছয়)

-আফরিদ মাহমুদ রিফাত, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটিম ডট কম