SCORE

মিরাজ-মুস্তাফিজ তোপে ১১৩ রানেই শেষ ঢাকা

জাতীয় ক্রিকেট লিগের শেষ রাউন্ডের খেলা শুরু হয়েছে আজ (২০ ডিসেম্বর)। বাংলাদেশ ক্রীড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের (বিকেএসপি) তিন নম্বর মাঠে খুলনা বিভাগের মুখোমুখি হয়েছে ঢাকা বিভাগ। প্রথম দিনেই মিরাজ-মুস্তাফিজ তোপে মাত্র ১১৩ রানে গুটিয়ে গেছে ঢাকা বিভাগ।

 

Also Read - আইপিএলে সাকিব-মুস্তাফিজদের নিলামের তারিখ ঘোষণা

 

সকালে টসে জিতে প্রথমে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেন খুলনার অধিনায়ক আব্দুর রাজ্জাক। অধিনায়কের সিদ্ধান্তকে যথার্থ প্রমাণ করতে সময় নেয় নি খুলনার বোলাররা। দলীয় স্কোর ৪ রানের মাথায় রনি তালুকদারকে আউট করে শুভসূচনা করেন মুস্তাফিজ। দলীয় ১৬ রানের মাথায় দ্বিতীয় উইকেট হারায় ঢাকা। এবারও উইকেট শিকারী মুস্তাফিজ। ঢাকার তৃতীয় উইকেটের পতন ঘটে দলীয় ২৬ রানের মাথায়। এবার আঘাত হানেন জাতীয় দলের আরেক পেসার রুবেল হোসেন।

এরপর রকিবুল হাসান ও শুভাগত হোম মিলে ৪৫ রানের জুটি গড়ে প্রাথমিক বিপর্যয় সামাল দেন। তবে ৬১ রানে শুভাগত হোমকে বোল্ড করে জুটি ভাঙ্গেন তরুণ স্পিনার মেহেদী হাসান মিরাজ। এরপরের গল্পটা শুধুই এই ডানহাতি স্পিনারের। পরের সব উইকেট নিয়েছেন মিরাজ। ৬১ রানে তিন উইকেট থেকে ১১৩ রানেই গুটিয়ে যায় ঢাকা বিভাগ। ঢাকার ইনিংসের স্থায়ীত্ব ছিল মাত্র ৩৮.৪ ওভার। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ২৮ রান করেন রকিবুল হাসান। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২১ রান আসে শুভাগত হোমের ব্যাট থেকে। এছাড়া স্পিনার নাজমুল ইসলাম অপু করেছেন ১৪ রান।

খুলনা বিভাগের পক্ষে ১১.৪ ওভার বোলিং করে মাত্র ২৪ রানের বিনিময়ে ৭টি উইকেট নিয়েছেন মিরাজ। পাশাপাশি এই স্পেলে ছিল ৫ টি মেডেন। এছাড়া শুরুর দিকে ঢাকার টপ অর্ডারদের ফিরিয়ে ভালো সূচনা এনে দেয়া মুস্তাফিজ পেয়েছেন ২টি উইকেট। ৫ ওভার বোলিং করে ১৬ রানের বিনিময়ে উইকেট দুইটি পান মুস্তাফিজ। ঢাকার অন্য উইকেটি পেয়েছেন রুবেল।

এদিকে প্রথম ইনিংসে ইতোমধ্যে ব্যাট করতে নেমে গেছে খুলনা। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত তাদের সংগ্রহ বিনা উইকেটে ২৩ রান।

[আরো পড়ুনঃ আইপিএলে সাকিব-মুস্তাফিজদের নিলামের তারিখ ঘোষণা]

 

Related Articles

বদলে যাচ্ছে লঙ্গার ভার্সনের চেহারা

“আব্বা থাকলে সবচেয়ে বেশি খুশি হতেন”

ছুটি কমেছে টাইগারদের

ঘরোয়া লঙ্গার ভার্শনে মনোযোগ মাশরাফির

মাইলফলকের সামনে রাজ্জাক