মুমিনুলের আক্ষেপ, শান্ত’র অর্ধশতক পূর্ণ

৩২৭ রানের জয়ের লক্ষ্যমাত্রায় ব্যাট করতে নেমে দলীয় ৪২ রানে দুই ওপেনারের উইকেট হারায় বিসিবি একাদশ। জহুরুল ও সাদমানের দ্রুত বিদায়ের পর তৃতীয় উইকেট জুটিতে সফরকারীদের হাল ধরেন মুমিনুল হক ও নাজমুল হোসেন শান্ত। উইকেট জুটিতে দৃঢ়তার সাথে খেলতে থাকলেও ৪০তম ওভারে এসে ঘটে বিপত্তি। ব্যক্তিগত ৪৫ রানে আউট হয়ে অর্ধশতকের আক্ষেপ নিয়ে মাঠ ছাড়েন মুমিনুল।

বিদেশে শেষ ১১ ইনিংসে মুমিনুলের গড় ৬!
প্রতিপক্ষ শিবিরের অধিনায়কের উইকেট তুলে নেন শুভহাম। ৪ চারে ইনিংসটি সাজিয়েছিলেন মুমিনুল। বাঁহাতি এ ব্যাটসম্যান ব্যক্তিগত মাইলফলক স্পর্শ করতে ব্যর্থ হলেও ঠিকই তা করে দেখিয়েছে শান্ত। ৬ চার ও ১ ছক্কার সাহায্যে সফরের দ্বিতীয় অর্ধশতকের দেখা পান তিনি।

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত, দ্বিতীয় ইনিংসে বিসিবি একাদশের সংগ্রহ ৩ উইকেটে ১৪৬ রান। অর্ধশতক পূর্ণ করা শান্ত ৫৪ ও নতুন ব্যাটসম্যান সাইফ অপরাজিত আছেন ১৬ রানে। জয়ের জন্য সফরকারীদের প্রয়োজন আরও ১৮১ রান। হাতে অবশিষ্ট আছে ৭ উইকেট।

তৃতীয় দিনের ৮ উইকেটে করা ২৭৪ রান নিয়ে চতুর্থ দিনের খেলা শুরু করে ড. ডিওয়াই পাতিল ক্রিকেট অ্যাকাডেমি। স্কোরবোর্ডে আরও ৩৭ রান যোগ করে স্বাগতিকরা। অর্ধশতকের হাতছানি নিয়ে আগের দিন শেষ করা ইকবাল আব্দুল্লাহ মাইলফলক স্পর্শ করেন এ দিন।

Advertisment

তার অর্ধশতক হাঁকানোর আগে সফরকারী দলের পক্ষে পাঁচ উইকেট শিকারের মাইলফলক স্পর্শ করেন তাসকিন আহমেদ। ১৩ রান করা মুকেশকে বোল্ড করে ব্যক্তিগত মাইলফলের পাশাপাশি দলেকে এনে দেন ব্রেকথ্রু। এরপর ইকবালকে ফিরিয়ে স্বাগতিকদের ইনিংসের ইতি টানেন নাঈম হাসান। আউটের আগে ইকবাল খেলেন ৭২ রানের দুর্দান্ত এক ইনিংস।

বাংলাদেশি বোলারদের মধ্যে ২০ ওভার বল করে ৯১ রান খরচায় ৫ উইকেট লাভ করেছেন তাসকিন। পাঁচটি উইকেট-ই প্রতিপক্ষ শিবিরের ব্যাটসম্যানদের সরাসরি বোল্ড করে শিকার করেছেন তিনি। বাকি বোলারদের মধ্যে ৬৬ রানের বিনিময়ে নাঈম দুটি, তাইজুল, শহিদুল ও মুমিনুল একটি করে উইকেট নিয়েছেন।

সংক্ষিপ্ত স্কোর- (এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত)

ড. ডিওয়াই পাতিল ক্রিকেট অ্যাকাডেমি
(১ম ইনিংস): ১০২.৫ ওভারে ৩৩১/১০
সারদেশাই ১২৮, শুভম ৫০, আমান ৪৩; তাইজুল ৩৩.৫-৭-১৪৪-৬,তাসকিন ২৩-৫-৪৭-২, শহিদুল ২০-৪-৪২-১, নাঈম ১৮-৩-৭০-১, আরিফুল ৮-৩-১৯-০।

বিসিবি একাদশ (১ম ইনিংস): ৩০৬/১০
জহুরুল ৪৪, সাদমান ৪৯, মুমিনুল ১৮, শান্ত ৩৪, সোহান ৮৭, আরিফুল ১৪, সাইফ ২৭, নাঈম ১০, তাইজুল ২, শহিদুল ০, তাসকিন ১; মুকেশ ১৬-২-৬৫-৩।

ড. ডিওয়াই পাতিল ক্রিকেট অ্যাকাডেমি (২য় ইনিংস): ৬৮ ওভারে ২৭৪/৮
নওশাদ ১০৮, ইকবাল ৭২, সরফরাজ ৩৬; তাসকিন ২০-২-৯১-৫, নাঈম ১১.৩-০-৬৬-২, শহিদুল ১৭-৪-৫০-১, মুমিনুল ৩-০-৯-১, তাইজুল ১৯-১-৭৫-১।

বিসিবি একাদশ (২য় ইনিংস): ৪৭ ওভারে ১৪৬/৩
জহুরুল ১১, সাদমান ১৬, মুমিনুল ৪৫, শান্ত ৫৪*, সাইফ ১৬*