Score

মুশফিক-মুস্তাফিজকে নিয়েই ভারতের বিপক্ষে লড়বে বাংলাদেশ

সুপার ফোরে নিজেদের প্রথম ম্যাচে শুক্রবার দুবাইয়ে ভারতের বিপক্ষে মাঠে নামবে বাংলাদেশ। ভারতের বিপক্ষে ম্যাচের জন্যই গ্রুপ পর্বে আফগানিস্তানের বিপক্ষে নিজেদের শেষ ম্যাচে মুশফিকুর রহিম ও মুস্তাফিজুর রহমানকে বিশ্রাম দিয়েছে বাংলাদেশ। ভারতের বিপক্ষে নিজেদের সেরা একাদশ নিয়েই মাঠে নামবে টাইগাররা।

 

Also Read - আশরাফুলদের বিপক্ষে সোহানের দুর্দান্ত শতক

গ্রুপ পর্বের দুইটি ম্যাচেই জিতেছে ভারত। নিজেদের প্রথম ম্যাচে হং কংকে ২৬ রানে হারিয়েছে তারা। শেষ ম্যাচে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী পাকিস্তানকে হারিয়েছে আট উইকেটে।

অন্যদিকে বাংলাদেশের সূচনাটা হয়েছিল দুর্দান্ত। শ্রীলঙ্কাকে ১৩৭ রানের বিশাল ব্যবধানে পরাজিত করে বাংলাদেশ। এরপর লঙ্কানরা আফগানিস্তানের কাছে পরাজিত হলে সুপার ফোর নিশ্চিত হয়ে যায় বাংলাদেশের। নিয়ম রক্ষার শেষ ম্যাচে আফগানিস্তানের কাছে রানে পরাজিত হয়েছে বাংলাদেশ। পরাজয়ের ক্ষত নিয়েই সুপার ফোরের লড়াইয়ে মাঠে নামবে বাংলাদেশ।

টুর্নামেন্ট শুরুর আগে থেকেই বাংলাদেশের দুশ্চিন্তা ছিল ওপেনিং নিয়ে। তামিম ইকবালের ওপর আস্থা রাখা গেলেও তার যোগ্য সঙ্গী খুঁজে পাচ্ছিল না বাংলাদেশ। এবার যেন সেই দুর্ভাবনা আরো বাড়ল। এশিয়া কাপের প্রথম ম্যাচেই পাওয়া চোটের ধাক্কায় টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে গিয়েছেন আস্থাভাজন তামিম। আফগানিস্তানের বিপক্ষে লিটন ও নাজমুলের নতুন ওপেনিং জুটি থেকে রান এসেছে মাত্র ১৫।

যেটি নিয়ে বাংলাদেশের সচেয়ে বেশি দুর্ভাবনা সেটি নিয়েই যেন সবচেয়ে বেশি নির্ভার ভারত। ওপেনিংয়ে শিখর ধাওয়ান ও রোহিত শর্মার জুটি যেকোনো দলের জন্যই ভয়ঙ্কর। উদ্বোধনী জুটি দিয়েই নিজেদের অনুকূলে ম্যাচ নিয়ে আসার সামর্থ্য রয়েছে রোহিত-ধাওয়ানের। দুজন আছেনও বেশ ছন্দে। হং কংয়ের বিপক্ষে ১২৭ রানের ইনিংস খেলেন ধাওয়ান। পাকিস্তানের বিপক্ষে অর্ধশতক হাঁকান রোহিত শর্মা।

বোলিংয়ে সাকিব-মুশফিকদের মোকাবেলা করতে হবে কুলদীপ-চাহালের স্পিনকে। ওপেনিং জুটিকে পরীক্ষা দিতে হবে ভুবনেশ্বর কুমারের নতুন বলের সুইংয়ের সামনে। অকেশনাল স্পিনার কেদার যাদবও রাখছেন দারুণ ভূমিকা। তাই তাকেও খেলতে হবে সতর্কতার সাথে।

উদ্বোধনী জুটি থেকে রান যেন বাংলাদেশ দলের জন্য পরম আকাঙ্ক্ষিত। শান্ত আর লিটনের ব্যাট দলকে এনে দিতে পারে দারুণ মোমেন্টাম।

ব্যাট হাতে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ১৪৪ রানের এক অসাধারন ইনিংস খেলেছিলেন মুশফিকুর রহিম। এক রানে দুই উইকেট হারিয়েছিল দল। চাপের মুখে ব্যাট হাতে নেমে সামাল দেন চাপ। এরসাথে ছিল পাঁজরের চোট। সবকিছু মিলিয়ে এ ১৪৪ রানের ইনিংসটি যেন ছিল এক দুর্দান্ত ইনিংস। চোট নিয়েই মাঠে নামতে যাচ্ছেন মুশফিক। ভারতের বিপক্ষে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ থাকায় আফগানিস্তানের বিপক্ষে মুশফিককে বিশ্রাম দেওয়া হয়।

সাকিব আল হাসান এশিয়া কাপের আগে ফর্মে থাকলেও এশিয়া কাপে শুরুটা ভালো হয়নি। দুই ম্যাচে করেছেন ৩২ রান। ভারতের বিপক্ষে তার ব্যাটের দিকেও তাকিয়ে বাংলাদেশ।

বোলিংয়ে অভিষেকে দুই উইকেট শিকার করা আবু হায়দার রনি অথবা রুবেল হোসেনের যেকোনো একজন থাকছেন একাদশে। ফিরবেন বাঁহাতি পেসার মুস্তাফিজুর রহমান। অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তাজা তো আছেনই।

আফগানিস্তানের বিপক্ষে আবু ধাবিতে খেলে পরের দিনই দুবাইয়ে মাঠে নামতে হচ্ছে বাংলাদেশের। ম্যাচে তাই বাংলাদেশের সঙ্গী ক্লান্তি আর পরাজয়ের ক্ষত। অন্যদিকে ভারতের সুপার ফোরে সব ম্যাচই দুবাই। তাই চিন্তা নেই ভ্রমণ নিয়ে। তবে চোট জর্জরিত রোহিত শর্মারা। চোটের কারণে এশিয়া কাপ থেকে ছিটকে গিয়েছেন অক্ষর প্যাটেল, হার্দিক পান্ডিয়া এবং শার্দুল ঠাকুর। অলরাউন্ডার হার্দিক পান্ডিয়ার পরিবর্তে একাদশে দেখা যেতে পারে স্পিন অলরাউন্ডার রবিন্দ্র জাদেজাকে।

সম্ভাব্য একাদশঃ

বাংলাদেশঃ  লিটন কুমার দাস, নাজমুল হোসেন শান্ত, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম (উইকেটরক্ষক), মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মোহাম্মদ মিঠুন, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, মেহেদি হাসান মিরাজ, মাশরাফি বিন মুর্তাজা, মুস্তাফিজুর রহমান, আবু হায়দার রনি/রুবেল হোসেন।

ভারতঃ রোহিত শর্মা, শিখর ধাওয়ান, আম্বাতি রাইডু, দীনেশ কার্তিক, কেদার যাদব, মহেন্দ্র সিং ধোনি, রবিন্দ্র জাদেজা, ভুবনেশ্বর কুমার, কুলদীপ যাদব, জাসপ্রিত বুমরাহ এবং যুযবেন্দ্র চাহাল।


আরো পড়ুনঃ শিদের নৈপুণ্যে বংলাদেশকে হারাল আফগানিস্তান


Related Articles

সেমি-ফাইনালে আগে ব্যাট করছে বাংলাদেশ

ইমার্জিং এশিয়া কাপের সেমিফাইনাল লাইন-আপ চূড়ান্ত

আফগানিস্তান পারলেও পারছে না বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কা!

লিটনের এক্স-রে রিপোর্টে সুখবর

স্ট্রেচারে করে মাঠ ছাড়লেন লিটন