মুস্তাফিজের প্রশংসায় পঞ্চমুখ প্রতিপক্ষ শিবিরও

অন্যান্য দলের তুলনায় রাজস্থান রয়্যালসে তারকা ক্রিকেটারের উপস্থিতি কম। নানা কারণে বিদেশি খেলোয়াড়দের অনেকে না থাকায় মুস্তাফিজুর রহমানই দলের তুরুপের তাস। সেই মুস্তাফিজ দলের হয়ে লড়ছেন একাই, কুড়াচ্ছেন প্রশংসাও।

প্রতিপক্ষেরও প্রশংসা কুড়ালেন মুস্তাফিজ
মুস্তাফিজের প্রশংসায় পঞ্চমুখ হয়েছে প্রতিপক্ষ রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরও। ছবি : বিসিসিআই

বুধবার (৩০ সেপ্টেম্বর) আইপিএলের হাই ভোল্টেজ ম্যাচে রাজস্থান রয়্যালস মুখোমুখি হয়েছিল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরের। মাত্র ১৪৯ রানের পুঁজি নিয়ে রাজস্থান জিততে পারেনি, তবে মন কেড়েছে মুস্তাফিজের পারফরম্যান্স।

Advertisment

আরও পড়ুন : টুইটারে প্রশংসার জোয়ারে ভাসছেন মুস্তাফিজ

গ্লেন ম্যাক্সওয়েলদের সামনে অন্য বোলাররা সুবিধা করতে না পারলেও মুস্তাফিজ ছিলেন যথারীতি মিতব্যয়ী, একই সাথে দলের একমাত্র বোলার হিসেবে পেয়েছেন উইকেটের দেখা। তবে মুস্তাফিজ এদিন রঙ ছড়িয়েছেন ফিল্ডিংয়েও।

রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরের বিপক্ষে আসরে নিজেদের ১১তম ম্যাচে মুস্তাফিজ দারুণ প্রচেষ্টায় একটি ছক্কা আটকান, যা নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে চলছে মাতামাতি। ব্যাঙ্গালোরের ইনিংসের নবম ওভারের পঞ্চম বলে কার্তিক তিয়াগিকে সজোরে হাঁকান গ্লেন ম্যাক্সওয়েল।

কিন্তু বাউন্ডারি লাইনে দাঁড়ানো মুস্তাফিজ বলের গতিবিধি বুঝে লাফিয়ে ওঠেন। তার দুর্দান্ত প্রচেষ্টায় নিশ্চিত ছক্কা থেকে বঞ্চিত হয় ব্যাঙ্গালোর। সেই বলে বিরাট কোহলিরা পান মাত্র ১ রান।

এই ছক্কায় রাজস্থানের সমর্থকরা তো বটেই, খোদ ব্যাঙ্গালোরও মুস্তাফিজকে প্রশংসায় ভাসিয়েছে। এক টুইট বার্তায় দলটি লিখেছে, ‘মিথ্যা বলছি না, মুস্তাফিজের এই ফিল্ডিং দুর্দান্ত প্রচেষ্টা ছিল।’

বরাবরের মত এদিনও রাজস্থানের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের পোস্টগুলো মুখর ছিল মুস্তাফিজের বন্দনায়। আসরে অবশ্য একটু বেকায়দায়ই আছে রাজস্থান। মাত্র চারটি ম্যাচ জেতা দলের জন্য শেষ চারে অংশগ্রহণের সমীকরণ কঠিন হয়ে পড়েছে।

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।