মেন্ডিস-ম্যাথিউস শেখালেন— ধৈর্য কাকে বলে!

0
2423

‘লাথামের মহাকাব্যিক ইনিংসে পরাজয়ের সামনে শ্রীলঙ্কা’— ওয়েলিংটন টেস্টের তৃতীয় দিন শেষে প্রতিবেদকের খবরের শিরোনাম ছিল এমনই। তবে এমন ধারণাও যে ভুল ছিল— কুশাল মেন্ডিস ও অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস ধৈর্যের পরীক্ষা দিয়ে প্রমাণ করলেন সেটিই। ৩ উইকেটে ২০ রান চতুর্থ দিন খেলতে নামা শ্রীলঙ্কা দিন পার করেছে কোনো উইকেট না হারিয়েই!

মেন্ডিস-ম্যাথিউস শেখালেন— ধৈর্য কাকে বলে!

নিউজিল্যান্ডের গতি আর বাউন্সকে সামলে এদিন দৃঢ়চেতা ব্যাটিং প্রদর্শন করেছেন মেন্ডিস ও ম্যাথিউস। পুরো ৯০ ওভার ও ৩টি সেশন এই দুজন পার করেছেন অপরাজিত থেকেই। ইনিংসে ১০২ ওভার ব্যাট করা শ্রীলঙ্কা চতুর্থ দিন শেষ করেছে ২৫৯ রান নিয়ে। এখনও নিউজিল্যান্ডের চেয়ে ৩৭ রানে পিছিয়ে থাকলেও ইনিংসে পরাজয় তো বটেই, শেষ দিনে পরাজয় এড়ানোর ভালো সুযোগ পাচ্ছে সফরকারী দলটি।

Advertisment

চতুর্থ দিন শ্রীলঙ্কা নিউজিল্যান্ডের চেয়ে পিছিয়ে ছিল ২৭৬ রানে। তৃতীয় দিনের শেষ সেশনে দ্রুত ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলা দলটি চতুর্থ দিনের ৩টি সেশন খেলতে পারে কি না, বা ম্যাচের দৈর্ঘ্যও ততদূর পর্যন্ত যায় কি না— এমন ভাবনা ছিলই। কিন্তু ভাবনাকে ভুল প্রমাণ করে দিয়ে মেন্ডিস ১১৬ এবং ম্যাথিউস ১১৭ রান নিয়ে দিনের খেলা শেষ করে মাঠ ছেড়েছেন। মেন্ডিসের ২৮৭ বলের ইনিংসে আছে ১২টি চার, যেখানে ম্যাথিউসের ২৯৩ বলের ইনিংসে চারের সংখ্যা ১১টি।

দুর্দান্ত এই ব্যাটিং দিয়ে রেকর্ড বইয়েও নাম লিখিয়েছেন এই দুজন। কোনো উইকেট না হারিয়ে আস্ত একটি দিন পার করার ২২তম ঘটনা এটি। আর চতুর্থ দিনে কোনো উইকেট না হারানোর দিক থেকে এটি ষষ্ঠ ঘটনা। দিনের খেলায় স্কোর বোর্ডে ২৩৯ রান জড়ো করা মেন্ডিস ও ম্যাথিউস রানের দিক থেকে অবশ্য এই তালিকার পেছনের দিকে- ১৬তম অবস্থানে। তবে এটিও প্রমাণ করছে— লঙ্কান এই দুই ক্রিকেটারের ধৈর্য বটে!

সংক্ষিপ্ত স্কোর (চতুর্থ দিন শেষে)

টস: নিউজিল্যান্ড

শ্রীলঙ্কা ১ম ইনিংস: ২৮২/১০ (৯০ ওভার)
ম্যাথিউস ৮৩ ডিকওয়েলা ৮০*, করুনারত্নে ৭৯
সাউদি ৬৮/৬, ওয়াগনার ৭৫/২

নিউজিল্যান্ড ১ম ইনিংস: ৫৭৮/১০ (১৫৭.৩ ওভার( ওভার)
লাথাম ২৬৪*, উইলিয়ামসন ৯১, টেলর ৫০, নিকোলাস ৫০
ধনঞ্জয়া ৫৪/২, পেরেরা ১৫৬/২

শ্রীলঙ্কা ২য় ইনিংস: ২৫৯/৩ (১০২ ওভার)
মেন্ডিস ১১৭*, ম্যাথিউস ১১৬*
সাউদি ৩৬/২, বোল্ট ৫০/১

শ্রীলঙ্কা ৩৭ রানে পিছিয়ে।

আরও পড়ুন: বাংলাদেশের বিজয় দিবসে বাংলাদেশকেই উপেক্ষা করলেন শেবাগ!