Scores

‘যেখানেই খেলি না কেন ভালো খেলতে হবে’

জাতীয় দলে সুযোগ পান না এখন আর। তবে নিয়মিত খেলে যাচ্ছেন ঘরোয়া ক্রিকেটে। আর সেখানে প্রতিনিয়ত প্রমাণ করে চলেছেন নিজেকে।

চট্টগ্রাম টেস্টের দলে রাজ্জাক

বিসিএলের পঞ্চম রাউন্ডে স্পর্শ করেছিলেন প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে কোনো বাংলাদেশির সবচেয়ে বেশিবার পাঁচ উইকেট পাওয়ার রেকর্ড। ইনিংসে ৩২ বার ৫ উইকেট শিকার করে রাজ্জাক ছিলেন এনামুল হক জুনিয়রের পাশে। বিসিএলের শেষ রাউন্ডের প্রথম ইনিংসে দক্ষিণাঞ্চলের হয়ে আবারও পাঁচ উইকেট পেয়ে রাজ্জাক ছাড়িয়ে গেছেন এনামুলকেও।

Also Read - আইপিএলের জন্য বিশ্বকাপ সূচিতে পরিবর্তন!


দিনের খেলা শেষে রাজ্জাক জানান তার এই সাফল্যের রহস্য, ‘খুব সম্ভবত আমি এই ধরনেরই মানুষ। কারণ, আমি নিজে দেখেছি, আমি যেখানেই খেলি না কেন, চেষ্টা করি ভালো খেলে শীর্ষে থাকার জন্য। সব সময় যে হয় তা না, তবে চেষ্টা করি। হারটা মেনে নিতে পারি না। হতে পারে এসব কারণেই আমি অনুপ্রাণিত হই। প্রতি দিন সন্ধ্যায় খারাপ লাগলে তো সমস্যা। তার থেকে ভালো কিছুর চেষ্টা করা ভালো।

তিনি জানান, ‘খেলা চলছে, খেলছি এই-ই ভাবনা। আর কোনো ভাবনা নেই। খেলোয়াড়দের ভাবনা একটাই। যেখানেই খেলি না কেন ভালো খেলতে হবে।

রাজ্জাকের বোলিং তোপে (৫৩/৩) নিজেদের প্রথম ইনিংসে উত্তরাঞ্চল অলআউট হয় মাত্র ১১৫ রানে। শুরুর দিকে উইকেট বোলারদের জন্য সহায়ক ছিল বলেও জানান রাজ্জাক, দেখলেই বোঝা যায়, উইকেটে বোলারদের জন্য সাহায্য ছিল। বোলিংয়ের সিদ্ধান্ত এ কারণেই নেওয়া হয়েছে। উইকেটে ঘাস থাকলে সে উইকেটে সাধারণত ফিল্ডিংই করা হয়। আমি মনে করি, বোলাররা সিদ্ধান্ত অনুযায়ী কাজ করেছে। পরের দিকে ব্যাটিং সহজ হয়েছে। বিশেষ করে আমি পরের দিকে যে ৬/৭ ওভার বোলিং করেছি তখন দেখেছি সকালের চেয়ে ভালো।

এমন পারফরমেন্সের পর এই ম্যাচ থেকে ভালো ফল আনার ব্যাপারেও আশাবাদী রাজ্জাক। তিনি বলেন, ‘প্রথম দিন শেষে অবশ্যই আশাবাদী। যে পরিস্থিতিতেই হোক আমরা চেষ্টা করি জেতার জন্য খেলতে। কখনও হয় কখনও হয় না। তবে মূল লক্ষ্য থাকে জয়। প্রথম দিন শেষে কিছুটা এগিয়ে আছি আমরা।

আরও পড়ুনঃ হেরেও মুস্তাফিজদের উপর খুশি রোহিত

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

১০০ উইকেটের ক্লাবে ঢুকেই মুস্তাফিজের রেকর্ড

রাজ্জাককে পেছনে ফেলে বিশ্বকাপে মুস্তাফিজের অনন্য রেকর্ড

বিশ্বকাপে থাকছেন রাজ্জাক!

বিশ্বকাপের সেরা ৫ টাইগার বোলার

রাজ্জাককে ছাড়িয়ে শীর্ষে মাশরাফি