Score

“যেভাবে সব সময় সমর্থন করেন সেভাবে করবেন”

সিলেটের অভিষেক টেস্ট যত দ্রুত সম্ভব ভুলে যেতে চাইবেন সমর্থকরা। জিম্বাবুয়ের কাছে ১৫১ রানের বিশাল পরাজয় এদেশের ক্রিকেট অঙ্গনকে দিয়েছে অশনিসংকেত। কিন্তু সিরিজ শুরুর আগে এই টেস্ট নিয়েই ছিল কত রোমাঞ্চ আর জল্পনা-কল্পনা!

৩২০ এর মধ্যে জিম্বাবুয়েকে আটকাতে চায় বাংলাদেশ

সিলেটের দর্শকরা দলের দুঃসময়েও পাশে থেকেছেন। দেশের অন্যান্য ভেন্যুতে টেস্ট ম্যাচে দর্শকদের যেমন সাড়া পাওয়া যায়, এর চেয়েও বেশি সাড়া ছিল সিলেটে। স্কুল-কলেজ পড়ুয়া শিক্ষার্থীরা ক্লাস ফাঁকি দিয়ে খেলা দেখেছেন, দলকে উৎসাহ যুগিয়েছেন। সেই উৎসাহর ইতিবাচক ফলাফল দেখা হয়নি তাদের। দল পরাজিত হয়ে মাঠ ছেড়েছে, দর্শকরা গ্যালারি ছেড়েছেন দুঃখ নিয়ে।

দর্শকদের আস্থার প্রতিদান না পারায় দুঃখ প্রকাশ করেছে জিম্বাবুয়ে সিরিজে বাংলাদেশের অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। একইসাথে দর্শকদের কাছে আগের মতই সমর্থন প্রত্যাশা করেছেন তিনি।

Also Read - জিম্বাবুয়ে কোচের কাছে জয়টি ‘দীপাবলির উপহার’

অধিনায়ক এবং দলের অংশ হিসেবে নিজেদের এমন পারফরম্যান্স সহজে মেনে নিতে পারছেন না রিয়াদ নিজেও। সেই সাথে স্বীকার করে নিয়েছেন নিজেদের ব্যর্থতা। রিয়াদ বলেন, অধিনায়ক হিসেবে এবং খেলোয়াড় হিসেবেও এটা মানা কষ্টকরদর্শকরা এসেছে আমাদের ভালো খেলা দেখতেআমরা পারফর্ম করতে পারিনিএটার জন্য আমরা দুঃখিতআমরা সব সময় প্রত্যাশা করি উনারা যেভাবে সব সময় সমর্থন করেন সেভাবে করবেন।’

ঘুরে দাঁড়ানোর প্রত্যাশা ব্যক্ত করে রিয়াদ দৃষ্টান্ত হিসেবে সামনে এনেছেন দেশের ক্রিকেটের অতীত দুঃসময়কেও, যা বীরদর্পে মোকাবেলা করে সুসময়ের দেখাও পেয়েছে টাইগাররা। রিয়াদ বলেন, বাংলাদেশের ক্রিকেটের আগেও এমন সময় এসেছে তখনও আমরা ঘুরে দাঁড়িয়েছিআশা করি সবাই মিলে আবার ঘুরে দাঁড়াব।’

তবে হারের পেছনে একাদশের কোনো দায় দেখছেন না রিয়াদ। তার মতে, বাংলাদেশের একাদশ নির্বাচনে কোনো ভুল ছিল না। যদিও ম্যাচ নিয়ে আলোচনার বেশিরভাগ অংশজুড়েই বিতর্কিত হয়েছে একাদশ।

রিয়াদ বলেন, ‘আমাদের একাদশ নিয়ে যদি কথা বলতে হয় তাহলে আমি বলবো আমাদের এই একাদশটাই সেরা ছিলকারণ পিচ শুস্ক ছিলএর কারণে এখানে তিনটা স্পিনার খেলানো আমার কাছে এবং টিম ম্যানেজমেন্টের কাছে যথোপযুক্ত সিদ্ধান্ত মনে হয়েছেপ্লেয়ারদের পক্ষ থেকে এটুকুই বলতে পারি আমরা কোনোকিছু সহজে নিব না, আমরা এখান থেকে শক্তভাবে ফিরে আসতে পারিআমার মনে হয় একটা ইনিংসই যথেষ্টপরের টেস্টে ভিন্ন বাংলাদেশকে দেখবেন ইনশাআল্লাহ।’

আরও পড়ুন: এক ম্যাচ হাতে রেখেই সিরিজ জিতলো ভারত

Related Articles

টেস্টের পারফরম্যান্সে পুরোপুরি খুশি নন পাপন

উইকেট না পেলেও অধিনায়ককে পাশে পাচ্ছেন খালেদ

রাজপুতের কাছে ‘মাত্র তিনটি সেশনের ব্যাপার’

শেষদিনের রোমাঞ্চে নিজেদেরই এগিয়ে রাখছেন মিরাজ

শেষ ইনিংসে ব্যাটিং এড়াতেই ফলো-অনকে ‘না’