Scores

রিয়াদের ঝড়ে সেন্ট কিটসের জয়

মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের ঝড়ো ইনিংসে ভর করে ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগে বৃষ্টি আইনে জ্যামাইকা তালাওয়াহসকে সাত উইকেটে হারিয়েছে সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টস। পাঁচ নম্বরে নেমে ব্যাট হাতে তাণ্ডব চালান মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। ১১ বলে ২৮ রান করে পাঁচ বল আগেই নিশ্চিত করেন দলের জয়। এ জয়ে প্লে-অফ নিশ্চিত করেছে রিয়াদের দল। রিয়াদের ঝড়ে জয় নিয়ে প্লে-অফে সেন্ট কিটস

টস হেরে প্রথমে ব্যাটিং করতে নামে জ্যামাইকা তালাওয়হাস। উদ্বোধনী জুটিতে জনসন চার্লস এবং গ্লেন ফিলিপ্স দলকে ২২ রানের ভিত গড়ে দেন। ১১ বলে ১৩ রনা করা চার্লসকে ফিরিয়ে দিয়ে এ জুটি ভাঙেন ফ্যাবিয়ান এলেন। বড় ইনিংস খেলতে পারেননি কেনার লুইস। ৯ বলে ৯ রান করে হন কার্লোস ব্রাথওয়েটের শিকার।

এরপর রোভম্যান পাওয়েলকে নিয়ে প্রতিরোধ গড়েন গ্লেন ফিলিপ্স। তৃতীয় উইকেটে দুজন মিলে গড়েন ৩৯ রানের জুটি। ২৯ বলে ৪০ রান করে আলজারি জোসেফের বলে লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়েন ফিলিপ্স।

Also Read - সিপিএল থেকে ছিটকে গেলেন স্মিথ


অন্য প্রান্তে ঝড় তুলেন রোভম্যান পাওয়েল। ডেভিড মিলারকে সাথে নিয়ে যোগ করেন আরো ৭৯ রান। ২ চার ও ১ ছক্কায় সাজানো ২০ বলে ৩২ রান করে দলীয় ১৬০ রানের মাথায় ফিরে যান ডেভিড মিলার। তখনো বাকি আরো ৩ ওভার। শেষ ৩ ওভারে ৪৬ রান সংগ্রহ করে জ্যামাইকা তালাওয়াহস। আন্দ্রে রাসেল প্রত্যাশিত ঝড় তুলতে পারেননি। ১৯ তম ওভারে ফিরে যান তিন বলে এক রান করে। এক বল পর ফিরে যান রোভম্যান পাওয়েল। নামের পাশে তখন ৮৪। মাত্র ৪০ বলে এ ইনিংস খেলেন তিনি। ১১ টি চার ও ৪ টি ছক্কা হাঁকান পাওয়েল।

শেষে ঝড় তুলেন কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম। ১ চার ও ১ ছক্কায় ৫ বলে ১৪ রানের ছোট্ট কিন্তু কার্যকরী ইনিংস খেলেন তিনি। ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ২০৬ রান করে জ্যামাইকা তালাওয়াহস। দুইটি উইকেট পান বেন কাটিং। বোলিং করেননি মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ।

বড় লক্ষ্য তাড়া করতে নামা সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টসের সূচনাটাও হয়েছিল দুর্দান্ত। কৃস্মার সান্টোকির প্রথম ওভারে চারটি চার মারেন ক্রিস গেইল। প্রথম ওভারে রান হয় ১৮। পরের ওভারের প্রথম বলেই ওশেন থমাস বোল্ড করেন এভিন লুইসকে। এরপর রানের গতিটাও কমে আসে। পাওয়ারপ্লের শেষ ওভারে ঝড় তুলেন র‍্যাসি ফন ডার ডুসেন এবং ক্রিস গেইল। ফন ডার ডুসেনের দুই চার ও গেইলের ছক্কায় ঐ ওভারে ১৮ রান হয়। পাওয়ারপ্লে শেষে সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টসের রান হয় এক উইকেটে ৬২।

সপ্তম ওভারে ক্যাচ তুলে দিয়েছিনে ফন ডার ডুসেন। তবে চেষ্টা করলেও তা ধরতে পারেননি আন্দ্রে রাসেল। ঐ বলের পরেই ম্যাচে হানা দেয় বৃষ্টি। বৃষ্টি শেষে ম্যাচ কমিয়ে আনা হয় ১১ ওভারে। নতুন লক্ষ্য নির্ধারিত হয় ১১৮। ২৭ বলে সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টসের প্রয়োজন ৫৩ রান। বৃষ্টির পর খেলা শুরু হলে প্রথম বলেই ছক্কা মারেন গেইল। এক বল পরেই ক্যাচ তুলে দেন তিনি। ২৪ বলে ৪১ রান করে সাজঘরে ফিরে যান গেইল।

পরের ওভারে এসেই আঘাত হানেন এডাম জাম্পা। এ লেগির বলে ০ রান করে বোল্ড হন বেন কাটিং। দুই বলে দুই উইকেট হারিয়ে যেন বিপাকে পড়ে যায় সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টস।রিয়াদের ঝড়ে জয় নিয়ে প্লে-অফে সেন্ট কিটস

এরপর হাল ধরেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। জাম্পাকে দেখেশুনে খেলেন রিয়াদ ও ফন ডার ডুসেন। শেষ তিন ওভারে প্রয়োজন ছিল ৪৩ রান। ওশেন থমাসের প্রথম দুই বলে ছক্কা মারেন ফন ডার ডুসেন। প্রান্ত বদল করে পরের বলে স্ট্রাইকদেন রিয়াদকে।

টানা দুই চার মারেন রিয়াদ। ওভারের শেষ বলে ডিপ মিড উইকেট দিয়ে মারেন বিশাল ছয়। তিন বলে ১৪ রান নিয়ে সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টসের নাগালে নিয়ে আসেন রিয়াদ। সব মিলিয়ে ঐ ওভারে রান হয় ২৭। অ্যাডাম জাম্পার করা পরের ওভারেও ছক্কা হাঁকান রিয়াদ। ঐ ওভারে ১৪ রান এলে শেষ ওভারে মাত্র ২ রান দরকার হয় সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টসের। রোভম্যান পাওয়েলের বলে শেষ ওভারের প্রথম বলেই জয়সূচক রান তুলে নেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ।

২ চার ও ২ ছক্কায় ১১ বলে ২৮ রানের এক বিধ্বংসী ইনিংস খেলেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। ২৪ বলে ৪৫ রান করে অপরাজিত থাকা ফন ডার ডুসেন পান ম্যাচসেরার পুরস্কার।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ জ্যামাইকা তালাওয়াহস ২০৬/৬, ২০ ওভার
পাওয়েল ৮৪, ফিলিপ্স ৪০, মিলার ৩২
কাটিং ২/২৯, অ্যালেন ১/৪৩

সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টস ১১৮/৩, ১০.১ ওভার  (বৃষ্টি আইনে লক্ষ্য ১১ ওভারে ১১৮)
ফন ডার ডুসেন ৪৫*, গেইল ৪১, রিয়াদ ২৮*
জাম্পা ১/১৮, সান্টোকি ১/২৭

দেখুন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের ব্যাট থেকে ম্যাচে হওয়া দুটি ছক্কার ভিডিও-

 

 

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

ফাইনাল থেকে এক ম্যাচ দূরে রিয়াদের সেন্ট কিটস

অলরাউন্ডার স্টিভ স্মিথ জেতাল বার্বাডোজকে

মানরো-ব্রাভোর ঝড়ে ত্রিনবাগোর শ্বাসরূদ্ধকর জয়

মাহমুদউল্লাহদের বিপক্ষে জ্যামাইকার বড় জয়

সিপিএলে মাহমুদউল্লাহ’র সেন্ট কিটসের ম্যাচসূচি