Scores

রেকর্ড বইয়ে মেয়ার্সের ঝড়

অভিষেকেই ব্যাটে অবিশ্বাস্য কীর্তিগাঁথা রচনা করেছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের কাইল মেয়ার্স। ২৮ বছর বয়সী এ বাঁহাতি ব্যাটসম্যানের দুর্দান্ত দ্বিশতকে নাম তুলেছেন রেকর্ড বইয়ের নানা পাতায়। বাংলাদেশকে হতাশার সাগরে ডুবিয়ে মেয়ার্স বিস্মিত করেছেন ক্রিকেটবিশ্বকে।

রেকর্ড বইয়ে মেয়ার্সের ঝড়

এশিয়ায় ৩৯৫ রান তাড়া করে টেস্ট জয়ের নজির ছিল না আগে। এর আগে এশিয়ায় সর্বোচ্চ রান তাড়া করে জয় ছিল জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে শ্রীলঙ্কার ৩৮৮ রান। অপরাজিত ২১০ রানের ইনিংস খেলে সফল রান তাড়ার ইনিংসে সর্বোচ্চ রানের রেকর্ডে অস্ট্রেলিয়ার আর্থার মরিসের ১৮২ রানের ইনিংস। এ তালিকায় সবার ওপরে সাবেক ক্যারিবিয়ান ক্রিকেটার গর্ডন গ্রিনিজের।

Also Read - মেয়ার্সের দ্বিশতকে ওয়েস্ট ইন্ডিজের ঐতিহাসিক জয়


ইতিহাসের ষষ্ঠ ব্যাটসম্যান হিসেবে টেস্ট অভিষেকে ডাবল সেঞ্চুরি করেছেন মেয়ার্স। টেস্ট অভিষেকে সর্বশেষ দ্বিশতক হাঁকিয়েছিলেন দক্ষিণ আফ্রিকার জ্যাক রুডলফ। সেই টেস্টেও প্রতিপক্ষ ছিল বাংলাদেশ,  ২০০৩ সালে চট্টগ্রামের এম এ আজিজ স্টেডিয়ামে হয়েছিল সেই ম্যাচ। ।

এ দুইজন ছাড়া এর আগে অভিষেকে ডাবল সেঞ্চুরি হাঁকানো ব্যাটসম্যানরা হলেন টিপ ফস্টার, লরেন্স রোউই, ম্যাথু সিনক্লেয়ার এবং ব্রেন্ডন কুরুপ্পু। অভিষেকে চতুর্থ ইনিংসে এটিই সর্বোচ্চ রান। এর আগে অভিষেকে চতুর্থ ইনিংসে সেরা ইনিংস ছিল ভারতের আব্বাস আলির (১১২ রান)।

চতুর্থ উইকেটে দুই অভিষিক্ত ক্যারিবিয়ান এনক্রুমাহ বনার এবং কাইল মেয়ার্স গড়েছেন ২১৬ রানের জুটি। এ জুটিই ঐতিহাসিক জয়ের পথে এগিয়ে নিয়ে গিয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে। টেস্ট ক্রিকেটে দুই অভিষিক্ত ব্যাটসম্যানের মাঝে এটিই দ্বিতীয় সর্বোচ্চ জুটি। দুই অভিষিক্ত ব্যাটসম্যানের সর্বোচ্চ জুটি ২৪৯ রানের, গড়েছিলেন পাকিস্তানের খালিদ ইবাদুল্লাহ এবং আব্দুল কাদির।

 

Related Articles

বনার-মেয়ার্সের ব্যাটে ম্যাচ বাঁচাল ওয়েস্ট ইন্ডিজ

মেয়ার্স-রুটকে পেছনে ফেলে ফেব্রুয়ারির সেরা অশ্বিন

স্কোরবোর্ডে না তাকিয়ে ব্যাট করেছেন মেয়ার্স

মেয়ার্সের দ্বিশতকে ওয়েস্ট ইন্ডিজের ঐতিহাসিক জয়