লর্ডস টেস্টেও হারল ভারত

ক্রিকেটের মক্কা খ্যাত লর্ডসে খেলা। এই ম্যাচ আগে থেকেই পাচ্ছিল হেভিওয়েটের মর্যাদা। আলোচনায় আসার জন্য অবশ্য উপাদানের কমতি ছিল না। বৃষ্টিতে ভেসে যাওয়া উদ্বোধনী দিন, প্রথম ইনিংসে ভারতের দ্রুত গুটিয়ে যাওয়া, জেমস অ্যান্ডারসনের পাঁচ উইকেট-ক্রিস ওকসের শতকে অনার্স বোর্ডে নাম লেখানো কিংবা মধ্যাহ্নভোজের খাদ্য তালিকায় গরুর মাংস দেখতে পাওয়া কোহলিদের। সবকিছু ছাপিয়ে অবশ্য আলোচিত লর্ডস টেস্ট আলোচনায় থাকছে ইংল্যান্ডের জয়গানের মাধ্যমে।

লর্ডস টেস্টেও হারল ভারত

ভারতের প্রথম ইনিংসের মত দ্বিতীয় ইনিংসেও বল হাতে তাণ্ডব চালিয়েছেন ইংলিশরা। ফলে পাঁচদিনের ম্যাচে চারদিনেই ভারত হেরে গেছে ইনিংসে ও ১৫৯ রানের বিশাল ব্যবধানে। এক্ষেত্রে সফরকারীদের ধন্যবাদ পেতে পারে বৃষ্টি। প্রকৃতির বৈরিতায় একদিন ভেসে না গেলে হয়ত তিনদিনেই পরিণতি দেখত লর্ডস টেস্ট!

Also Read - দক্ষিণ আফ্রিকাকে উড়িয়ে লঙ্কানদের সান্ত্বনার জয়

৬ উইকেটে ৩৫৭ রান নিয়ে চতুর্থ দিন শুরু করা ইংল্যান্ড ৭ উইকেটে ৩৯৬ রান সংগ্রহের পর নিজেদের প্রথম ইনিংস ঘোষণা করে। আগের দিনেই শতক তুলে নেওয়া ওকস ১৩৭ রানেই থেকে যান অপরাজিত। ৪০ রান করে স্যাম কারান বিদায় নেওয়ার পরপরই ঘোষণা করা হয় ইনিংস।

২৮৯ রানের বড় লিড নিয়ে বল হাতে নেমে যথারীতি বিধ্বংসী বোলিং ইংল্যান্ডের। এতে আবারও ছিন্নভিন্ন ভারতের ব্যাটিং লাইনআপ। স্কোরবোর্ডে কোনো রান ওঠার আগেই সাজঘরে ওপেনার মুরালি বিজয়, আগের ইনিংসের ‘ধারাবাহিকতা’ অক্ষুণ্ণ রেখে। লোকেশ রাহুল অবশ্য প্রথম ইনিংসের চেয়ে দুই রান বেশি করে থামলেন ১০-এ। এরপর আজিঙ্কা রাহানে ফিরলেন ১৩ রানে, চেতশ্বর পূজারা ১৭ রানে, পূজারার রানে অধিনায়ক বিরাট কোহলিও। রানের সংখ্যা উইকেট পতনের সাথে সাথে বাড়ছিল ঠিকই। তবে জয় ঠিকই চলে যাচ্ছিল দূরে। একসময় চলে গেল দৃষ্টিসীমার বাইরেই, যখন প্রতিরোধ গড়ার চেষ্টা করা হার্দিক পান্ডিয়াও সাজঘরে ফিরলেন। শেষদিকে রবিচন্দ্রন অশ্বিন নিজেকে দায়মুক্ত রাখার চেষ্টাটুকু করে গেছেন। ৩৩ রানে অপরাজিত থেকে তিনিই ম্যাচে ভারতের ‘সেরা‘ ইনিংসধারী ব্যাটসম্যান! ১৩০ রানে গুটিয়ে গেলেও তিনি নিতে পারেন দলের স্কোর একশ পার করে দেওয়ার কৃতিত্ব!

ইংল্যান্ডের পক্ষে এই ইনিংসেও দুর্দান্ত ছিলেন অ্যান্ডারসন- এবার শিকার ৪ উইকেট। সমানসংখ্যক উইকেট শিকার করেছেন স্টুয়ার্ট ব্রডও। দুর্দান্ত শতকের পর ক্রিস ওকস ২টি উইকেট শিকার করে জানিয়েছেন, বোলিংটাও কম পারেন না! প্রথম ইনিংসেও যে তার শিকারে ছিল ২টি উইকেট!

সংক্ষিপ্ত স্কোর

ভারত ১০৭/১০ (৩৫.২ ওভার) ও ১৩০/১০ (৪৭ ওভার)

ইংল্যান্ড ৩৯৬/৭ (ডি.) (৮৮.১ ওভার)

ফল: ইংল্যান্ড ইনিংস ও ১৫৯ রানে জয়ী।

সিরিজ: ইংল্যান্ড ২ – ০ ভারত

আরও পড়ুন: মুরালি বিজয়ের তিক্ত রেকর্ড

Related Articles

সবাইকে অবাক করে ক্রিকেটে ফিরছেন ডি ভিলিয়ার্স?

বোলারদের নৈপুণ্যে ও শর্টের ব্যাটে অজিদের সহজ জয়

খোলস ছেড়ে বেরিয়ে আসতে চায় জিম্বাবুয়ে

স্পট ফিক্সিংয়ের প্রশ্নে ১৫ ম্যাচ

মান বাঁচানোর ইনিংস দিয়েই জাত চেনালেন ইমরুল