Scores

লিটন-তামিমের ব্যাটিংয়ের ভক্ত মুশফিক

সব ক্রিকেটারেরই থাকে প্রিয় ক্রিকেটার কিংবা থাকে প্রিয় ব্যাটিং বা বোলিং কৌশল। বাংলাদেশের ব্যাটসম্যান মুশফিকের প্রিয় ব্যাটসম্যান ব্রায়ান লারা- একথা কমবেশি সব ক্রিকেটপ্রেমির জানা। কিন্তু নিজ দলেও আছেন এমন ব্যাটসম্যান যাদের ব্যাটিং মুগ্ধ হয়ে উপভোগ করেন মুশফিক।

লিটনের সাথে একমত নন তামিম

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ডেইলি ক্রিকেটের সরাসরি আড্ডায় এসে মুশফিক জানান বাংলাদেশ দলের কোন ব্যাটসম্যানের ব্যাটিং স্টাইল তার প্রিয়। বর্তমান ওয়ানডে অধিনায়ক তামিম ইকবাল ও তরুণ ব্যাটসম্যান লিটন দাস আছেন মুশফিকের প্রিয় ব্যাটসম্যানের তালিকায়।

Also Read - ভাগ্যের সাথে নিজেকেও দুষছেন নাফিস


এই উত্তরে মুশফিক বলেন, ‘তামিমের ব্যাটিং স্টাইল আমার অনেক ভালো লাগে। ওর ড্রাইভগুলো অনেক ক্ল্যাসিকাল। লিটনের ব্যাটিং স্টাইল অনেক ভালো লাগে। এই দুই জনের ব্যাটিং স্টাইল বলতে পারেন চোখে ধরার মতো।’

‘তামিমের ডাউন দ্য গ্রাউন্ডের ছয়ের মারগুলো; ওর পায়ের ফ্লিকগুলো, লিটনের পায়ের ফ্লিক- মনে হচ্ছে ও (লিটন) ঘুমিয়ে ঘুমিয়ে খেলতেছে, তারপর কাভার ড্রাইভগুলো অনেক ভালো লাগে।’

এমনকি এই দুইজনের ব্যাটিং স্টাইলের মতো তার নিজে ব্যাটিং কৌশলও যদি হতো এই ইচ্ছাও মাঝেমাঝে প্রকাশ করেন তিনি। তবে সৃষ্টিকর্তা প্রদত্ত কৌশলেই সন্তুষ্টিও প্রকাশ করেন এই উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান।

মুশফিক বলেন, ‘এই দুইজনের ব্যাটিংই আমি অনেক উপভোগ করি। নিজেকেও বলি, যদি আমিও এরকম ব্যাটিং স্টাইলটা পেতাম। আল্লাহ হয়ত সবাইকে সবকিছু দেয় না কিন্তু আল্লাহ আমাকে সেইজন্য আলহামদুলিল্লাহ।’

নিজের ব্যাটিং কৌশল কীভাবে দেখেন তা জানাতে যেয়ে বেশ মজার উত্তর দেন মুশফিক। বাংলাদেশের এই সাবেক অধিনায়ক বলেন নিজের ব্যাটিংয়ের ভিডিও পরে দেখলে আর ভালো লাগে না তার কাছে।

মুশফিকের ভাষায়, ‘আমি যতই বড় ইনিংস খেলি, যতই ভালো ইনিংস খেলি না কেন আমি যখন ভিডিও দেখি আমার নিজের ব্যাটিং কখনোই ওরকম ভালো লাগে না। মনে হয় ওটা কেমনে মারলাম, এইটা কেমনে মারলাম! চার বা ছয় হলেও স্টাইলটা আমার কাছে খুব একটা ভালো লাগে না।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

Related Articles

তামিম-লিটনদের ব্যর্থতা নিয়ে চিন্তিত নন ডমিঙ্গো

ডমিঙ্গোর আশা ভালো ‘দলনেতা’ হবেন তামিম

আমরা ফাইনালে খেলার যোগ্যতা রাখি না : তামিম

হেরে বিদায় তামিম একাদশের, ফাইনালে মাহমুদউল্লাহরা

দ্রুত বিজয় ফিরে গেলেও ভালো শুরু তামিমের