শহিদুলের ৫; ৭৯ রানে অলআউট কেএসসিএ

0
836

ভারত সফরে নিজেদের তৃতীয় চারদিনের ম্যাচে স্বাগতিক কর্নাটক স্টেট ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনকে প্রথম ইনিংসে মাত্র ৭৯ রানে অলআউট করেছে বিসিবি একাদশ। সফরকারী বোলারদের বোলিং তোপে প্রথম ওভারে ৪১ ওভারেই সবকয়টি উইকেট হারায় স্বাগতিকরা।

মধ্যাঞ্চলকে খেলায় ফেরালেন শহিদুল-মজিদ
শহিদুল ইসলাম। ফাইল ছবি

বেঙ্গালুরুর এম চিন্নাস্বামী স্টেডিয়ামে টস জিতে প্রথমে বোলিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন মুমিনুল হক। সফরকারী দলের অধিনায়কের সিদ্ধান্ত যে ভুল ছিল না ম্যাচের শুরু থেকেই তার প্রমাণ দিতে থাকে বোলাররা।

প্রথমবারের মতো সাফল্য পেতে মাত্র ১২ বল অপেক্ষা করতে হয় সফরকারীদের। তৃতীয় ওভারের প্রথম বলেই দলকে সাফল্য এনে দেন শহিদুল ইসলাম। ১ রান করা রোহান কাদামকে বোল্ড করে সাজঘরে ফেরান তিনি। তিন বলের ব্যবধানে আবারও দলকে উইকেট শিকারের আনন্দে মাতান তিনি। এবার তার শিকারে পরিণত হয় শিভাম মিশ্র। লেগ-বিফোরের ফাঁদে পড়ে রানের খাতা খোলার আগেই প্যাভিলিয়নে ফিরতে হয় তাকে।

Advertisment

এরপর উইকেট শিকারের উৎসবে নাম লেখান আরেক পেসার এবাদত হোসেন। ১২ রান করা অর্জুন এসপিকে সাইফের হাতে ক্যাচ বানিয়ে ফেরান তিনি। এবাদতের উইকেট শিকারের রেশ কাটতে না কাটতেই এক বলের ব্যবধানে আবারও উচ্ছ্বাসে মাতে সফরকারীরা। এ যাত্রায় বোলার আবারও সেই শহিদুল। লেগ-বিফোরের ফাঁদে তাকে ফিরতে হয় ব্যক্তিগত ২ রানে। এতে দলীয় ১৫ রানে ৪ উইকেট হারায় কেএসসিএ।

পঞ্চম উইকেট জুটিতে প্রতিরোধ গড়তে চেষ্ঠা চালায় প্রভীন দুবে ও অভিনব মনোহর। ২৭ রানের জুটি গড়ার পর স্বাগতিকদের পথে কাটা হয়ে দাঁড়ান এবাদত। ১৬ রান করা প্রভীনকে আউট করে বিচ্ছিন্ন করেন এ উইকেট জুড়ি।

এরপর আরিফুলকে আক্রমণে আনেন মুমিনুল। বোলিংয়ে এসেই অধিনায়কের আস্থার মূল্যয়ন দেন তিনি। একে একে তুলে নেন মনোহর (১২),  কার্তিক (০), বিনয়ের (৭) উইকেট। আরিফুলের বোলিং তোপে মুহূর্তের মধ্যে ৫১ রানে ৭ উইকেট হারিয়ে বসে স্বাগতিকরা।

‘অপেক্ষা’র যে রেকর্ডে আরিফুল দ্বিতীয়-
এরপর অষ্টম উইকেট জুটিতে ২৭ রান যোগ করেন দেবায়া ও আনান্দ। মধ্যাহ্ন ভোজের বিরতির পর এ উইকেট জুটি বিচ্ছিন্ন করেন শহিদুল। ১৮ রান করা দেবায়াকে আউট করার পরের ওভারে এসে আনান্দের উইকেটও নেন তিনি। তার পাঁচ উইকেট পূর্ণ করার বিপরীতে প্রথম ইনিংস ৭৯ রানেই শেষ হয় কেএসসিএর।

সফরকারী বোলারদের মধ্যে শহিদুলের ৫ উইকেটের সাথে আরিফুল ৩ ও এবাদতের প্রাপ্তিতে মেলে ২ উইকেট।

সংক্ষিপ্ত স্কোর-

প্রথম দিন, দ্বিতীয় সেশন

কেএসসিএ (১ম ইনিংসে): ৪১ ওভারে ৭৯/১০
দেবায়া ১৮, প্রভীন ১৬, ; শহিদুল ১৬-৭-২০-৫, এবাদত ১৬-৬-৩৬-২, আরিফুল ৯-৪-২২-৩।

প্রথমবারের মত বিডিক্রিকটাইম নিয়ে এলো অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ্লিকেশন। বাংলাদেশ এবং সকল আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বল বাই বল লাইভ স্কোর, এবং সাম্প্রতিক নিউজ সহ সবকিছু এক মুহূর্তেই পাবেন বাংলাদেশ ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় অনলাইন পোর্টাল BDCricTime এর অ্যাপে। অ্যাপটি ডাউনলোড করতে গুগল প্লে-স্টোর থেকে সার্চ করুন BDCricTime অথবা ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।