Scores

শাহীন-ওয়াহাবের বোলিংয়ে ম্লান টেলরের শতক

তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচে জিম্বাবুয়েকে ২৬ রানে হারিয়ে সিরিজে এগিয়ে গেছে স্বাগতিক পাকিস্তান। সিরিজের উদ্বোধনী ম্যাচে ব্রেন্ডন টেলরের শতকের পরও পরাজয় নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয় সফরকারীদের।

টেলরের শতকের পরও পরাজয়ে শুরু জিম্বাবুয়ের

রাওয়ালপিন্ডিতে ২৮২ রানের লক্ষ্যে খেলতে নামা জিম্বাবুয়ে ম্যাচে টিকে ছিল টেলরের তিন অঙ্কের ইনিংস পর্যন্ত। যদিও দলীয় ২৮ রানের মধ্যেই দুই ওপেনার ব্রায়ান চারি (২) ও অধিনায়ক চামু চিবাবাকে (১৩) হারিয়ে শুরুটা মোটেও ভালো হয়নি। ক্রেইগ আরভিনকে নিয়ে বিপর্যয় প্রতিরোধের দায়িত্ব নেন টেলর। তৃতীয় উইকেটে গড়েন ৭১ রানের পার্টনারশিপ।

Also Read - ফিটনেস পরীক্ষায় পাশ করে খেলতে হবে টি-টোয়েন্টি কাপ


৬৮ বলে ৪১ রান করে সাজঘরে ফেরেন আরভিন। সন উইলিয়ামসও (৪) সুবিধা করতে পারেননি। একপ্রান্ত আগলে রাখা টেলরের সঙ্গী হয়ে ওঠেন ওয়েসলে মাধেভেরে। পঞ্চম উইকেটে ১১৯ রানের জুটি গড়ে দলকে জয়ের সুবাসও এনে দিচ্ছিলেন।

তবে ৭টি চারের মাধ্যকে ৬১ বলে ৫৫ রান করে মাধেভেরে এবং ১১টি চার ও ৩টি ছক্কায় ১১৭ বলে ১১২ রান করে টেলর বিদায় নেওয়ার পর খেই হারায় জিম্বাবুয়ে। শাহীন আফ্রিদ ও ওয়াহাব রিয়াজের দুর্দান্ত বোলিং শেষপর্যন্ত জয় এনে দেয় পাকিস্তানকে। নির্ধারিত ৫০ ওভারের ২ বল হাতে রেখেই ২৫৫ রানে গুটিয়ে যায় জিম্বাবুয়ে। শাহীন ৫টি ও ওয়াহাব ৪টি উইকেট শিকার করেন।

এর আগে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে ৫০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ২৮১ রান জড়ো করে পাকিস্তান। ব্যাট করতে নেমে ভালো শুরুর ইঙ্গিতই দিচ্ছিলেন দুই ওপেনার ইমাম উল হক ও আবিদ আলি। তবে আবিদ তার ইনিংস বড় করতে পারেননি। ২১ রান করে বিদায় নিলে ক্রিজে আসেন বাবর আজম। তবে অধিনায়কত্বে প্রথম ওয়ানডেতে বাবরও ছিলেন ব্যর্থ। ১৯ রান করে ফিরতে হয় সাজঘরে।

হারিস-ইমাদের ব্যাটে পাকিস্তানের লড়াকু সংগ্রহ

এরপর ক্রিজে আসেন হারিস সোহাইল। ইমাম উল হক পূর্ণ করেন অর্ধ-শতক। ৭৫ বলে সাজানো ৫৮ রানের ইনিংসের ইতি ঘটলেও হারিস অপর প্রান্ত আগলে রাখেন। ৬টি চার ও ২টি ছক্কায় ৮২ বলে ৭১ রান করেন হারিস। তার বিদায়ের আগে সাজঘরে ফিরে যান মোহাম্মদ রিজওয়ান (১৪) ও ইফতিখার আহমেদ (১২)।

শেষদিকে ফাহিম আশরাফের ১৬ বলে ২৩, শাহিন আফ্রিদির ৪ বলে ৮ ও ইমাদ ওয়াসিমের ২৬ বলে ৩৪ রানের ঝড়ো ইনিংসে ভর করে ২৮০ রানের বড় পুঁজি পায় পাকিস্তান।

জিম্বাবুয়ের পক্ষে টেন্ডাই চিসোরো ও ব্লেসিং মুজারাবানি দুটি করে উইকেট শিকার করেন। এছাড়া একটি করে উইকেট শিকার করেন কার্ল মুম্বা ও সিকান্দার রাজা।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

টস : পাকিস্তান

পাকিস্তান : ২৮০/৮ (৫০ ওভার)
হারিস ৭১, ইমাম ৫৮, ইমাদ ৩৪, ফাহিম ২৩
চিসোরো ৩১/২, মুজারাবানি ৩৯/২

জিম্বাবুয়ে : ২৫৫/১০ (৪৯.৪ ওভার)
টেলর ১১২, মাধেভেরে ৫৫, আরগিন ৪১
শাহীন ৪৯/৫, ওয়াহাব ৪১/৪

ফল : পাকিস্তান ২৬ রানে জয়ী।

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

 

Related Articles

ক্রাইস্টচার্চে সেনা প্রহরায় পাকিস্তানি ক্রিকেটাররা

‘২২ বার’ করোনা পরীক্ষা করিয়েছেন সৌরভ গাঙ্গুলি!

হাঁটু গেঁড়ে প্রতিবাদে দক্ষিণ আফ্রিকার ‘না’

মাঞ্জরেকারের মুখে কাপড় গুঁজে দিয়েছেন সৌরভ!

রাবাদার কাছে বায়ো-বাবল যেন বিলাসবহুল কারাগার