Score

অভিষেক ও বিদায়ীতে শতক হাঁকিয়ে কুকের বিরল কীর্তি

অ্যালেস্টার কুক অভিষেকটা হয়েছিল ভারতের বিপক্ষে। নিজের বিদায়ী টেস্টেও প্রতিপক্ষ সেই একই দল। অভিষেক টেস্টে শতক হাঁকিয়ে দিয়েছিলেন নিজের আগমনী বার্তা। শতক হাঁকিয়ে রাঙালেন বিদায়ী টেস্টটাও। ইতিহাসের পঞ্চম ক্রিকেটার হিসেবে নিজের অভিষেক ও বিদায়ী টেস্টে শতক হাঁকানোর কীর্তি গড়েছেন অ্যালেস্টার কুক।

অভিষেক ও বিদায়ীতে শতক হাঁকিয়ে কুকের বিরল কীর্তি
অভিবাদনের জবাব দিচ্ছেন কুক।©গেটি ইমেজেস

এর আগের চারজন ব্যাটসম্যানের তিনজনই অস্ট্রেলিয়ান। অন্যজন ভারতের মোহাম্মদ আজহারউদ্দিন। প্রথম ইংলিশ ক্রিকেটার হিসেবে শতক দিয়ে টেস্ট ক্যারিয়ারের সূচনা ও সমাপ্তিকে স্মরণীয় করে রাখলেন অ্যালেস্টার কুক।

নাগপুরে ২০০৬ সালের মার্চে ভারতের বিপক্ষে টেস্ট অভিষেক হয়েছিল অ্যালেস্টার কুকের। ঐ টেস্টের প্রথম ইনিংসে ৬০ রান করেছিলেন অ্যালেস্টার কুক। দ্বিতীয় ইনিংসে খেলেন অপরাজিত ১০৪ রানের ইনিংস।

প্রথম টেস্টেই ১৬৪ রান করে যেন নিজের সামর্থ্যের প্রমাণ রেখেছিলেন কুক। এরপর নিজেকে ধরে রেখেছেন অসাধারণভাবে। সুনিপুণ ব্যাটিং, নজর কাড়া সব স্ট্রোকে নিজেকে নিয়ে গিয়েছেন অনন্য উচ্চতায়। নামের পাশে যোগ করেছেন অজস্র অর্জন। ক্যারিয়ারের শেষ টেস্টও রাঙিয়ে দিয়ে গেলেন কুক।

Also Read - এপিএলে তামিমের দলে ডাক পেলেন মুশফিকও

এক যুগ পর ওভালে ভারতের বিপক্ষেই নিজের শেষ টেস্ট খেলছেন কুক। প্রথম ইনিংসে ৭১ রান করার পর দ্বিতীয় ইনিংসে ২৮৬ বলে ১৪৭ রানের অসাধারণ ইনিংস খেলেছেন তিনি। দুর্দান্ত এ ইনিংসে কুক মেরেছেন ১৪ চার ও ১ ছক্কা। এটি তার টেস্ট ক্যারিয়ারের ৩৩ তম এবং সর্বশেষ শতক।

১৪৭ রান করে হনুমা বিহারির শিকার হন অ্যালেস্টার কুক। হনুমা বিহারির বলে উইকেটরক্ষক রিশাভ পান্টের হাতে ক্যাচ দিয়ে বিদায় নেন অ্যালেস্টার কুক। সাজঘরে ফেরার সময় অভিবাদন পান প্রতিপক্ষ ভারতের ক্রিকেটারদের কাছ থেকে। শেষটা আরো স্মরণীয় করে তোলে ওভালের দর্শকদের দাঁড়িয়ে দেওয়া করতালি। ব্যাট তুলে অভিবাদনের জবাব দিতে দিতে সাজঘরে ফিরে যান অ্যালেস্টার কুক। পরিসমাপ্তি ঘটে ইংলিশ ক্রিকেটের এক অধ্যায়ের।

১৯০২ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে অস্ট্রেলিয়ার রেজি ডাফ নিজের অভিষেক টেস্টে শতক হাঁকিয়েছিলেন। ১৯০৫ সালে নিজের শেষ টেস্টে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে শতক হাঁকান তিনি। ১৯২৪ সালে সিডনিতে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে নিজের প্রথম টেস্টে সেঞ্চুরি করেছিলেন বিল পন্সফোর্ড। দশ বছর পর একই প্রতিপক্ষের বিপক্ষে শতক দিয়ে শেষ করেন।

১৯৭০ সালে আরেক অজি ক্রিকেটার গ্রেগ চ্যাপেল ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে পার্থে শতক হাঁকিয়েছিলেন অভিষেক টেস্টে। সিডনিতে পাকিস্তানের বিপক্ষে ক্যারিয়ারের শেষ টেস্টেও শতক হাঁকান তিনি। এরপর ১৯৮৪ সালে কলকাতায় অভিষেকে ইংল্যান্ড ও ২০০০ সালে বেঙ্গালুরুতে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে নিজের শেষ টেস্টে শতক হাঁকান মোহাম্মদ আজহারউদ্দিন।

তবে এ পাঁচজনের মধ্যেও অনন্য অ্যালেস্টার কুক। ইতিহাসের প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে অভিষেক টেস্টে অর্ধশতক ও শতক এবং শেষ টেস্টেও শতক ও অর্ধশতক পূর্ণ করেছেন কুক।

৭১ ও ১৪৭ মিলিয়ে দুই ইনিংসে মোট ২১৮ রান করেছেন অ্যালেস্টার কুক। ক্যারিয়ারের শেষ টেস্টে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহকদের তালিকায় দক্ষিণ আফ্রিকার ব্যারি রিচার্ডসকে টপকে ছয়ে উঠেছেন অ্যালেস্টার কুক। তবে বাঁহাতি ব্যাটসম্যানদের মধ্যে এটিই বিদায়ী টেস্টে করা সর্বোচ্চ রান। তালিকার প্রথম পাঁচের বাকি সবাই ছিলেন ডানহাতি ব্যাটসম্যান।  তারা হলেন- অস্ট্রেলিয়ার বিল পন্সফোর্ড, ওয়েস্ট ইন্ডিজের সেইমুর নার্স, ইংল্যান্ডের জ্যাক রাসেল এবং দক্ষিণ আফ্রিকার পিটার ফন ডার ভিজল।

বিদায়ী টেস্টে সর্বোচ্চ রানের রেকর্ডটা কুকের স্বদেশি অ্যান্ডি স্যান্ডহামের। কিংস্টনে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে নিজের ক্যারিয়ারের শেষ টেস্টে ৩৭৫ রান করেছিলেন তিনি। বিদায়ী টেস্টে তিন শতাধিক রান করা একমাত্র ব্যাটসম্যান অ্যান্ডি স্যান্ডহাম।

বিদায়ী টেস্টে সর্বোচ্চ রান করাদের তালিকাঃ

১। অ্যান্ডি স্যান্ডহাম (ইংল্যান্ড) -৩৭৫ রান

২। বিল পন্সফোর্ড (অস্ট্রেলিয়া)- ২৮৮ রান

৩। সেইমুর নার্স (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)- ২৫৮ রান

৪। জ্যাক রাসেল (ইংল্যান্ড)- ২৫১ রান

৫। পিটার ফন ডার ভিজল (দক্ষিণ আফ্রিকা)- ২২২ রান

৬। অ্যালেসটার কুক (ইংল্যান্ড)- ২১৮ রান 

 


আরো পড়ুনঃ ক্যারিয়ারের শেষ ইনিংসে কুকের সেঞ্চুরি


Related Articles

শেষ হলো কুক অধ্যায়

কুককে নিয়ে মুশফিকের বিশেষ টুইট

ক্যারিয়ারের শেষ ইনিংসে কুকের সেঞ্চুরি

কুকের অবসরে টুইটার প্রতিক্রিয়া

অবসরের ঘোষণা দিলেন কুক