সব ধরনের ক্রিকেট থেকে অবসরে মালিঙ্গা

শেষপর্যন্ত খেলোয়াড়ি জীবনকে বিদায়ই বলে দিলেন শ্রীলঙ্কার কিংবদন্তি পেসার লাসিথ মালিঙ্গা। আগেই টেস্ট ও ওয়ানডে এবং ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট থেকে অবসর নেওয়া এই তারকা পেসারকে আর কখনও খেলতে দেখা যাবে না টি-টোয়েন্টিতেও।

সব ধরনের ক্রিকেট থেকে অবসরে মালিঙ্গা

Advertisment

২০১৯ সালে ওয়ানডে থেকে অবসর নেওয়ার সময় মালিঙ্গা জানিয়েছিলেন, টি-টোয়েন্টি খেলে যেতে চান আরও অনেকদিন। এমনকি গত জুনেও জানিয়েছিলেন, খেলতে চান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সপ্তম আসরে।

কিন্তু শ্রীলঙ্কার বিশ্বকাপ স্কোয়াডে জায়গা হয়নি সাবেক এই অধিনায়কের। অধিনায়কের পদ থেকে আকস্মিকভাবে মালিঙ্গাকে সরিয়ে বোর্ড অবশ্য আগেই ইঙ্গিত দিয়েছিল, তিনি নেই লঙ্কানদের বিশ্বকাপের ভাবনায়। বিশ্বকাপ শুরুর আগেই তাই মালিঙ্গা দিয়ে দিলেন অবসরের ঘোষণা।

অবসরের বিষয়টি জানিয়ে মালিঙ্গা বলেন, ‘আমার জুতা এখন বিশ্রাম নেবে। তবে ক্রিকেটের জন্য ভালোবাসায় কোনো বিরতি নয়। আমার গত ১৭ বছরের অভিজ্ঞতা মাঠে আর প্রয়োজন নেই। আমি টি-টোয়েন্টিকে বিদায় জানানোর মাধ্যমে সব ধরনের ক্রিকেট থেকে অবসর নিচ্ছি।’

বিদায় বেলায় মালিঙ্গা ধন্যবাদ জানিয়েছেন দলগুলোকে, যেসব দলের হয়ে বিভিন্ন সময়ে খেলেছেন, সমৃদ্ধ করেছেন ক্যারিয়ার। তিনি আরও বলেন, ‘তরুণ প্রজন্মকে আমি সবসময় সমর্থন জানিয়ে যাব। যারা ক্রিকেট ভালোবাসে তাদের পাশে আমি সবসময় আছি।’

২০১৪ সালে মালিঙ্গার নেতৃত্বে বাংলাদেশে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জিতেছিল শ্রীলঙ্কা। ক্রিকেট বিশ্বের অনেকেই আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে মালিঙ্গার প্রত্যাবর্তনের অপেক্ষায় ছিলেন। শ্রীলঙ্কার হয়ে ৮৪টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচে ১০৭টি উইকেট শিকার করেছেন তিনি, যা আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারের রেকর্ড। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ২০২০ সালের মার্চে নিজের সর্বশেষ টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেন তিনি।

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।