সরফরাজ প্রসঙ্গে পিসিবির উপর চটেছেন ওয়াসিম

0
1246

সরফরাজকে নিয়ে বড় বিপাকে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। বর্ণবাদী মন্তব্যের জন্য ক্ষমা চেয়েও পার পাননি সরফরাজ। চার ম্যাচের জন্য এই ক্রিকেটারকে নিষিদ্ধ করেছে আইসিসি। যার ফলে সরফরাজকে দেশে ফিরিয়ে এনেছে পিসিবি। আর এতেই চটেছেন পাকিস্তানের গ্রেট বোলার ওয়াসিম আকরাম।

২২ জানুয়ারি পাঁচ ম্যাচ সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে দক্ষিণ আফ্রিকার ব্যাটিংয়ের সময় উইকেটের পিছনে থাকা পাকিস্তান অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদকে কুরুচিপূর্ণ ও বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্য করতে দেখা যায়। সরফরাজ উর্দুকে আন্দিলে ফিউলেঙ্কোকে উদ্দেশ্য করে বলেন,  “ওহে কালো ব্যক্তি, তোর মা আজ কোথায় বসে আছে! কি দুয়া পড়িয়ে এসেছিস আজকে তুই।”

Advertisment

যা নিয়ে উঠে সমালোচনার ঝড়। এরপর টুইটারে সবার কাছে ক্ষমা চাওয়ার পর আন্দিলে ফিউলেঙ্কোর সাথে দেখা করে দুঃখ প্রকাশ করেন সরফরাজ। তবে বর্ণবাদ বিরোধী কোড ভাঙ্গার জন্য সরফরাজকে চার ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ করে আইসিসি। যার ফলে চলতি দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সিরিজের দুইটি ওয়ানডে ও দুইটি টি-টোয়েন্টিতে খেলা হচ্ছে না পাকিস্তানের নিয়মিত অধিনায়কের। তবে সফরের শেষ ম্যাচে খেলার সুযোগ ছিল। এর পূর্বেই তাকে দেশে ফিরিয়ে এনেছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড।

যা পছন্দ হয়নি ওয়াসিম আকরামের। তিনি বলেন,‘দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে তাকে (সরফরাজ) ফিরিয়ে আনাটা ভুল সিদ্ধান্ত, যেখানে সে ৬ ফেব্রুয়ারি শেষ টি-টোয়েন্টি ম্যাচটি খেলতে পারতো। সরফরাজ যা করেছে তা ভুল। তবে অন্য যে কারও চেয়ে পাকিস্তানিরাই এটি নিয়ে বেশি চেঁচামেচি করছে এবং এটাকে একটা ইস্যু বানিয়েছে।’

এদিকে সরফরাজের অবর্তমানে পাকিস্তানের অধিনায়কত্ব করছেন অভিজ্ঞ শোয়েব মালিক। আর প্রথম ম্যাচেই বড় জয় পেয়েছে পাকিস্তান। তবে বিশ্বকাপে সরফরাজকেই অধিনায়ক হিসেবে চান ওয়াসিম।

এই প্রসঙ্গে তিনি বলেন,‘বিশ্বকাপের আগে অধিনায়ক পরিবর্তনের কোনো দরকারই নেই। আমাদের দীর্ঘমেয়াদি অধিনায়ক দরকার, স্বল্পমেয়াদি নয়। শোয়েব মালিক এখন দলকে নেতৃত্ব দিচ্ছে এবং ভালো করছে। কিন্তু সে বলে দিয়েছে বিশ্বকাপের পর ওয়ানডে থেকে অবসর নেবে।’

[আরও পড়ুনঃ প্লে-অফ নিশ্চিত রংপুর-কুমিল্লার]