সাকিবের ফিটনেসের ব্যাপারে সন্দিহান ডমিঙ্গো

0
849

করোনা আক্রান্ত হওয়ার কারণে সাকিব আল হাসানকে ছাড়াই চট্টগ্রাম টেস্টের পরিকল্পনা সাজিয়েছিল বাংলাদেশ। টেস্টের দুই দিন আগে সাকিব পেয়েছেন করোনামুক্তির সনদ। এবার যোগ দিচ্ছেন দলের সাথেও।

মার্শদের বিপক্ষে সাকিবের বোলিং দেখতে মুখিয়ে আছেন ডমিঙ্গো (1)
করোনা থেকে সেরে উঠলেও সাকিবকে কতটা ফিট পাওয়া যাবে তা নিয়ে সংশয় ডমিঙ্গোর। ফাইল ছবি

তবে অনুশীলনে ফিরলেও সাকিব এত কম সময়ে ম্যাচ খেলার মত ফিট হয়ে উঠতে পারবেন কি না সেই প্রশ্ন উঠছে। বাংলাদেশ দলের প্রধান কোচ রাসেল ডমিঙ্গো মনে করেন, সাকিবকে ম্যাচ খেলার মত ফিট হিসেবে পাওয়ার সম্ভাবনা ক্ষীণ।

Advertisment

সাকিবের খেলার সম্ভাবনা সম্পর্কে প্রশ্ন করা হলে গণমাধ্যমকে ডমিঙ্গো বলেন, ‘তার ফিটনেস কেমন তা আমাদের দেখতে হবে। মাত্র করোনা থেকে সেরে উঠেছে। ইদানীং তেমন ক্রিকেটও খেলেনি। অবশ্যই সে আমাদের বড় খেলোয়াড়। কিন্তু দেখতে হবে কাল তার কী অবস্থা। গত ২-৩ সপ্তাহ ব্যাটিং-বোলিং করেনি। এটা পাঁচদিনের ক্রিকেট। গরমও আছে অনেক। বেশ কিছু বিষয় বিবেচনা করতে হবে।’

নিজের করোনা আক্রান্ত হওয়ার অভিজ্ঞতা থেকে ডমিঙ্গো মনে করছেন, মাত্র করোনা থেকে সেরে ওঠার পর টেস্ট খেলা সম্ভব নয়। করোনা আক্রান্ত থাকাকালে অবশ্য সাকিবের মধ্যে উপসর্গ ছিল অল্প। তবুও আইসোলেশনে বদ্ধদশায় থাকার ধকল বিবেচনা না করে উপায় নেই।

চোটাক্রান্ত সাকিবের বিকল্প এখনো ভাবেননি ডমিঙ্গো
করোনা নেগেটিভ হয়ে শীঘ্রই দলের সাথে যোগ দিচ্ছেন সাকিব। ফাইল ছবি

ডমিঙ্গো বলেন, ‘আমার বাজেভাবে করোনা হয়েছিল। করোনা থেকে সেরে উঠলে আগের মত শক্তি থাকে না। এটা টি-টোয়েন্টি বা ওয়ানডে নয় যে ৬-৭ ওভার বল করলে হয়ে যাচ্ছে। পাঁচদিন আপনাকে খেলতে হবে। আমরা অবশ্যই তাকে চাই। সে-ই আমাদের সেরা ক্রিকেটার। তবে সে পারফর্ম করার জন্য নিজেকে নিংড়ে দিতে পারছে, দিনে অন্তত ১৫ ওভার বল করতে পারছে, শীর্ষ ছয়ের মধ্যে ব্যাট করতে পারছে এসব নিশ্চিত করতে হবে। যে কেউ পরিপূর্ণ ফিট সাকিবকে একাদশে চাইবে। ৫০-৬০ ভাগ সুস্থতা নিয়ে খেলা কঠিন।’

সেক্ষেত্রে সাকিব না থাকলে সাকিবের ঘাটতি পূরণে কাকে নেওয়া হবে তা-ও বড় প্রশ্ন বটে। আপাতত দৌড়ে এগিয়ে আছেন মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, যিনি গত দুই বছর কোনো টেস্ট খেলেননি। শুধু ব্যাটিং নয়, বোলিংয়েও সাকিবের ঘাটতি পুষিয়ে দিতে পারবেন এমন এক ক্রিকেটারেরই খোঁজ করছেন প্রধান কোচ।

ডমিঙ্গোর ভাষায়, ‘আমাদের এমন কাউকে বিবেচনা করতে হবে যে বল করতে পারে। ইয়াসির ভালো কিছু ইনিংস খেলেছে, তবে ১০-১৫ ওভার বল করতে পারবে এমন কাউকে আমাদের প্রয়োজন। মনে হয় না মুমিনুল ১০-১৫ ওভার বল করার মত আত্মবিশ্বাস রাখে। শান্ত একদিনে ৬-৭ ওভার বল করার মত নয়। যেসব দলে ৬-৭ নম্বরের ব্যাটার ১০-১৫ ওভার বল করতে পারে সেই দলটাই হল ভারসাম্যপূর্ণ। সাকিব না থাকলে সঠিক মানুষটাকে খুঁজতে হবে। সে থাকলে কাজটা সহজ হয়ে যায়। তবে তার তেমন সম্ভাবনা নেই। সাকিব না খেললে মোসাদ্দেক অবশ্যই বিবেচনায় থাকবে।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।