সুযোগ কাজে লাগানোর পর ইভান্সের কৃতজ্ঞতা

0
856

লরি ইভান্স- অখ্যাত ইংলিশ এক ক্রিকেটার। বিপিএলে তাকে কিনতে দেখে রাজশাহী কিংসের উদ্দেশ্যে ভ্রু কুঁচকেছিলেন অনেকে। তাদের প্রতি সমুচিত জবাব দিতে পারছিল না রাজশাহী কিংসও। লরি ইভান্সের ব্যাটে যে রান নেই!

সুযোগ কাজে লাগানোর পর ইভান্সের কৃতজ্ঞতা

তবে ৩১ বছর বয়সী ক্রিকেটার অবশেষে জ্বলে উঠলেন। শুধু তথাকথিত জ্বলেই উঠেননি, তুলে নিয়েছেন ষষ্ঠ বিপিএলের প্রথম শতক। ম্যাচ শেষে ম্যান অব দ্যা ম্যাচের খেতাব পাওয়া ইংলিশ ক্রিকেটার তাকে দলে সুযোগ করে দেওয়ার জন্য টিম ম্যানেজমেন্টের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান।

Advertisment

দেশি তারকাদের ভিড়ে এবার বিদেশি তারকাদের দিকে কম নজরই দিয়েছে রাজশাহী। তাই ইভান্সই ছিলেন দলের আস্থা। এ কারণে রান না পেলেও সুযোগ পাচ্ছিলেন বারবার। তার উপর বিশ্বাস রাখায় জানিয়েছেন কৃতজ্ঞতা, আমার উপর বিশ্বাস রাখার জন্য কোচ এবং দলের মালিকদের প্রতি কৃতজ্ঞতা। আজ রান না করলে আমি দলে আর জায়গা পেতাম না। (রায়ান টেন ডেসকাটকে উদ্দেশ্য করে) একজন পরিচিত মানুষ পেয়েছিলাম ব্যাটিং করার সময়। দুজন একটু একটু করে বোলারদের উপর চাপ সৃষ্টি করেছি। অনেক রান হওয়ার পরই বুঝতে পেরেছি জেতার জন্য যথেষ্ট।’

দলের টপ অর্ডাররা সাফল্য পেতে কঠোর পরিশ্রম করা দরকার জানিয়ে সংবাদ সম্মেলনে ইভান্স আরও বলেন, আজকের লড়াইটা দারুণ ছিল। নিজের বেসিকের উপর কাজ করে প্রথমে ভালো একটা অবস্থান অর্জন করতে চেয়েছি। টপ অর্ডার ব্যাটসম্যানরা আজ ভালো কিছু করার সুযোগ পেয়েছিল। কিন্তু তা হয়নি, কঠোর পরিশ্রম যে ব্যর্থতা দূর করতে পারে।’

ইভান্স জানান, সিলেট পর্ব শেষ করে ঢাকায় ফিরে এই ম্যাচের আগেরদিনই তিনি বুঝতে পারছিলেন, ভালো কিছু হতে যাচ্ছে। আমি জানি না ঠিক কেন, তবে ঢাকায় আসার পর গতকাল অনুশীলনে নেমেই আমি ভালো কিছু হতে যাচ্ছে অনুভব করছিলামআফগানিস্তান প্রিমিয়ার লিগের পর কিছুটা বিরতি ছিল তখন বিয়েও করে করিতাই বাংলাদেশে যখন আসি তখন আমার সেরা ছন্দটুকু ছিল না।’– বলেন ইভান্স।