Scores

সুযোগ পেয়েও ব্যর্থ আশরাফুল

প্লেয়ার ড্রাফট থেকে ১৮ লাখ টাকার বিনিময়ে মোহাম্মদ আশরাফুলকে দলে নিয়েছিল চিটাগং ভাইকিংস। কিন্তু পাঁচ বছর পর বিপিএলে ফিরেও সুযোগটা কাজে লাগাতে পারেননি তিনি।

ফেসবুকে ভাইরাল মাশরাফি-আশরাফুলের খুনসুটি

টুর্নামেন্টের প্রথম ম্যাচেই সুযোগ পেয়েছিলেন চিটাগং ভাইকিংসের একাদশে। দায়িত্ব দেয়া হয়েছিল দলের টপ অর্ডার সামলানোর। কিন্তু নিজের কাজটা ঠিকভাবে করতে পুরোপুরি ব্যর্থ হয়েছেন ৩৪ বছর বয়সী এই ক্রিকেটার।

টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী ম্যাচে রংপুর রাইডার্সের মুখোমুখি হয় আশরাফুলরা। ঐ ম্যাচে ৫ বলে মাত্র ৩ রান করেই আউট হয়ে যান তিনি। লো-স্কোরিং ঐ ম্যাচে শফিউলের বলে অ্যালেক্স হেলসের হাতে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফিরে যান তিনি।

Also Read - চোট নিয়েও লুইসের এমন পারফরম্যান্স!


পরের ম্যাচে সিলেট সিক্সার্সের বিপক্ষে মন্থর গতিতে বিশোর্ধ্ব ইনিংস খেলেন। তবে ইনিংস লম্বা করতে এ যাত্রায়ও ব্যর্থ হন তিনি। তাসকিনের বলে সাব্বিরের তালুবন্দী হওয়ার আগে করেন ২৩ বলে ২২ রান। সেই ম্যাচটি হেরেছিল তাঁর দল চিটাগাং ভাইকিংসও।

ওই দুই ম্যাচের পরেই তাঁর বদলে একাদশে জায়গা পান্য ইয়াসির আলি চৌধুরী রাব্বি। একাদশে জায়গা পেয়েই সুযোগটা লুফে নেন তিনি। ইয়াসির আলি ধারাবাহিকভাবে ভালো খেলতে থাকায় আর একাদশে সুযোগই পাচ্ছিলেন না আশরাফুল

চিটাগং ভাইকিংসের শেষ চার নিশ্চিত হয়ে যাওয়ার পরে গ্রুপ পর্বে দলের শেষ ম্যাচে আবারে সুযোগ দেয়া হয় আশরাফুলকে। কিন্তু আবারো ব্যর্থ হন তিনি। এবারে রানের খাতা খোলার আগেই ফিরে যান সেই তাসকিনের শিকার হয়েই। এবার তাঁর ক্যাচটা লুফে নেন উইকেটরক্ষক জাকের আলি। আর এতেই শেষ হয় দীর্ঘ পাঁচ বছরের অপেক্ষার পর আশরাফুলের এবারের বিপিএল যাত্রা।

একনজরে বিপিএল ২০১৯ আসরে আশরাফুলের ব্যাটিং পরিসংখ্যান-

♦প্রথম ম্যাচ- ৫ বলে ৩ রান- প্রতিপক্ষ রংপুর রাইডার্স।

♦দ্বিতীয় ম্যাচ- ২৩ বলে ২২ রান- প্রতিপক্ষ সিলেট সিক্সার্স।

♦তৃতীয় ম্যাচ- ২ বলে ০ রান- প্রতিপক্ষ সিলেট সিক্সার্স।


আরও পড়ুনঃ চোট নিয়েও এমন পারফরম্যান্স!


Related Articles

টি-টোয়েন্টির জন্য নির্বাচকদের ভাবনায় রাব্বি!

খালেদের বোলিং দেখে মুগ্ধ মরিসন

নিজেকে নিয়ে ‘গবেষণা’ করেন না মুশফিক

“দলের মালিকেরও খারাপ লাগবে”

তবুও ভাইকিংসকে নিয়ে খুশি মুশফিক