SCORE

সর্বশেষ

সেঞ্চুরির হ্যাটট্রিক তুষারের

ফার্স্ট ক্লাস ক্রিকেটে কয়েক মাস আগেই প্রথম বাংলাদেশি হিসেবে ১০০০০ রানের ক্লাবে প্রবেশ করেছেন তুষার ইমরান। এবার নিজের নামের পাশে আরও একটি কীর্তি যোগ করেছেন এই ব্যাটসম্যান। বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগ, বিসিএলের ২০১৭-১৮ মৌসুমের চতুর্থ রাউন্ডে পূর্বাঞ্চলের বিপক্ষে ১৩তম বাংলাদেশি হিসেবে এক ম্যাচে জোড়া সেঞ্চুরির কীর্তি গড়েছেন তিনি।

সেঞ্চুরির হ্যাটট্রিক তুষারের

শুধু জোড়া সেঞ্চুরিই নয়, সেঞ্চুরির হ্যাটট্রিকের কীর্তিও গড়েছেন এই ব্যাটসম্যান। আড়াই মাস বিরতিতে শুরু হওয়া বিসিএলের চতুর্থ রাউন্ডে সিলেটে পূর্বাঞ্চলের বিপক্ষে এই কীর্তি গড়েন তুষার। এর আগে বিসিএলের তৃতীয় রাউন্ডে বিসিবি নর্থ জোনের বিপক্ষে ১৪৮ রানের ইনিংস খেলেন তুষার। পরবর্তীতে দ্বিতীয় ইনিংস খেলার সুযোগ পাননি তিনি।

Also Read - আইপিএলের অভিজ্ঞতা কাজে লাগাতে চান সাকিব

চতুর্থ রাউন্ডে পূর্বাঞ্চলের বিপক্ষে প্রথম ইনিংসে ১৩০ রানের ইনিংস খেলেন তুষার। তার করা সেঞ্চুরিতে প্রথম ইনিংসে ৪০৩ রান দাড় করায় দক্ষিণাঞ্চল। দ্বিতীয় ইনিংসে ১০৩ রানের ইনিংস খেলে রিটায়ার্ড হার্ট হন তিনি। শেষ পর্যন্ত ম্যাচটি ‘ড্র’ ঘোষণা করা হয়। তার এই সেঞ্চুরি নিয়ে ফার্স্ট ক্লাস ক্রিকেটে মোট ২৭টি সেঞ্চুরি রয়েছে তুষার ইমরানের।

দক্ষিণাঞ্চলের হয়ে তুষার বাদে ৬৬ রান করেন মোহাম্মদ মিঠুন। পূর্বাঞ্চলের হয়ে প্রথম ইনিংসে ৭৫ রান করে আউট হলেও দ্বিতীয় ইনিংসে সেঞ্চুরির দেখা পান লিটন দাস, খেলেন ১১৩ রানের ইনিংস। লিটন বাদেও সেঞ্চুরি পেয়েছেন তরুণ অলরাউন্ডার আফিফ হোসেন।

বাংলাদেশের হয়ে ফার্স্ট ক্লাস ক্রিকেটে প্রথম জোড়া সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছিলেন শাহরিয়ার হোসেন। ১৯৯৯ সালে মেরিলবোন ক্রিকেট ক্লাবের বিপক্ষে ম্যাচে প্রথম ইনিংসে ১৩৩ ও দ্বিতীয় ইনিংসে অপরাজিত ১২১ রানের ইনিংস খেলেন তিনি। দ্বিতীয়টি আসরে তার দুই বছর পরেই। ময়মনসিংহে ঢাকা-চট্টগ্রামের মধ্যকার ম্যাচে প্রথম ইনিংসে ২১০ ও দ্বিতীয় ইনিংসে ১১০ রান করেন বাংলাদেশ দলের বর্তমান প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু।

তাছাড়া টানা তিন ইনিংসে সেঞ্চুরি করে তামিম ইকবাল ও মিজানুর রহমানের সাথে ‘বিরল রেকর্ডে’ ভাগ বসিয়েছেন তিনি। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে এ কীর্তি গড়েন তামিম ইকবাল। এরপর চলতি মৌসুমে তামিমের রেকর্ড ভাঙ্গার পথে হাঁটলেও চতুর্থ ইনিংসে ৬৪ রান করে আউট হওয়ায় টানা তিন সেঞ্চুরির রেকর্ডে বন্দী থাকেন মিজানুর রহমান।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ 

দক্ষিণাঞ্চল (প্রথম ইনিংস) ৪০৩

তুষার ইমরান ১৩০, ফজলে ৮৯ঃ খালেদ ৪-৮৪

পূর্বাঞ্চল (প্রথম ইনিংস) ৩০০

জাকের ৭৬, লিটন ৭৫ঃ রাব্বি ৪-৯৩

দক্ষিণাঞ্চল (দ্বিতীয় ইনিংস) ৩১১-৭ (ডিক্লে)

তুষার ১০৩, মিঠুন ৬৬ঃ সোহাগ গাজী ৩-৮২

পূর্বাঞ্চল ২২৪-১

লিটন ১১৩*, আফিফ ১০০*: রাব্বি ১-৩২

ফলাফলঃ ‘ড্র’

আরও পড়ুনঃ ঘরের মাঠে সেঞ্চুরি মুশফিকের

Related Articles

সৌম্য, সাদমানের পর ফিরলেন তুষারও

তুষার-মোসাদ্দেকে প্রতিরোধের চেষ্টা বাংলাদেশের

আবহাওয়ার কারণে এ’দলের ভেন্যু পরিবর্তন

তুষারের কাছে ‘এ’ দল ফিরে আসার মঞ্চ

‘এ’ দলের স্কোয়াডে তুষার-সৌম্য-সাব্বির