স্পিনারদের খোঁজে নামছে বিসিবি

মোহম্মদ রফিক, আবদুর রাজ্জাকদের কথা মনে পড়ে? সোহাগ গাজী নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে হ্যাটট্রিকসহ পাঁচ উইকেট নিয়েছিলেন সেই ম্যাচটার কথা? এগুলো সবই এখন অতীত। একসময় বাংলাদেশের বোলিং লাইন আপ শুধু স্পিনারদেরই আধিপত্য দেখা যেত। বিশেষ করে বললে বা হাতি স্পিনারদের। কালের বিবর্তনে স্পিনারদের সেই সুদিন হারিয়ে গেছে। এখন বাংলাদেশ দলে শুধুই পেসারদের আধিপত্য।
 
মুস্তাফিজ, আবু হায়দার রনি, আল-আমিন, তাসকিন, রুবেল সবাই নিজেদের যোগ্যতা প্রমাণ করেই বাংলাদেশ দলে সুযোগ করে নিচ্ছেন। বাংলাদেশের ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক মাশরাফিও একজন পেস বোলার। সেই তুলনায় বাংলাদেশ পাচ্ছেনা ঐ মানের স্পিনারদের। এবার নতুন করে স্পিনারদের খোঁজে নামছে বিসিবি। আসতেছে ‘স্পিনার হান্ট’।
72421
 
এক সময় পেসারদের ঘাটতি মেটাতে আয়োজন করা হয়েছিল ‘পেসার হান্টের’। সেটা প্রায় ১১ বছর আগের ঘটনা। ২০০৭ সালে দ্বিতীয়বার পেসারহান্টের আয়োজন করা হয়েছিল। সেখান থেকে উঠে এসেছিলেন আজকের রুবেল হোসেন। মাঝের সময়টাতে স্পিনারদের আধিপত্যের কারণেই তেমন ভালো মানের পেসাররা উঠে আসে নি। এ বছরেই আবার রবি সৌজন্যে হয়েছে পেসার হান্ট। সেখান  থেকে উঠে এসেছেন ১০জন পেসার। তাদের নিয়ে চলছে বিশেষ ক্যাম্প।
 
সম্প্রতি গত এক বছর বাংলাদেশের বোলিং লাইন আপে দুর্ধর্ষ পেসাররা আসার পর বেশ চিন্তাতেই পরেছে বিসিবি। ওয়ানডেতে এক আরাফাত সানি ছাড়া তেমন বলার মত কেউ পারফর্ম করতে পারছেনা। সোহাগ গাজী কিছুদিন নিজের জাত চেনালেও বোলিং অ্যাকশন শুধরে এখন আর সেই ফর্ম দেখাতে পারছেনা। বেশ খরাই চলছে বাংলাদেশের স্পিন বিভাগে। সেই স্পিন বিভাগকেই আগের মত শক্তিশালী গড়ে তোলার লক্ষ্যে এবার স্পিনার হান্টের আয়োজন করতে যাচ্ছে বিসিবি।
 
শুক্রুবার ভারত সিরিজ নিয়ে কথা বলার এক পর্যায়ে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন জানালেন তাদের নতুন প্রোজেক্টের ভেতর সবার উপরেই রয়েছে স্পিনার হান্ট। দেশ সেরা ঘূর্ণি যাদুকরদের খুঁজে বের করে আনার প্রয়াসে খুব শীঘ্রই কাজ শুরু করবে বিসিবি। ইতোমধ্যে এই কাজ পরিচালনার জন্য স্পিন কোচও খোঁজা শুরু করে দিয়েছে বিসিবি। তবে কখন এই কাজ শুরু হবে সে বিষয়ে বিস্তারিত কিছু বলেননি পাপন।বিশ্বসেরা দল হয়ে ওঠার জন্য স্পিন এবং পেস দুই বিভাগই শক্তিশালী হওয়া গুরুত্বপূর্ণ। আসা করা যায় আবারো বাংলাদেশ মাতবে স্পিন যাদুতে।
-রুশাদ রাসেল,প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটিম.কম

1 COMMENT