Scores

স্মিথ-ওয়ার্নারকে দ্বিতীয় সু্যোগ দেওয়ার পক্ষে পেইন

বল টেম্পারিংয়ের দায়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে নিষিদ্ধ রয়েছনে অস্ট্রেলিয়ার সাবেক অধিনায়ক স্টিভ স্মিথ ও ডেভিড ওয়ার্নার। অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলের বর্তমান অধিনায়ক টিম পেইন মনে করেন তারা দলে ফিরলে আগের মতই সম্মান দেওয়া হবে।

স্মিথ-ওয়ার্নারকে দ্বিতীয় সু্যোগ দেওয়ার পক্ষে পেইন

নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ এখনো শেষ হয়নি স্মিথ ও ওয়ার্নারের। তবে নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ শেষ হয়েছে এই কান্ডে জড়িত থাকা ক্যামরন ব্যানক্রফটের। ফলে এখন থেকে অস্ট্রেলিয়ার ঘরোয়া ক্রিকেটেও অংশগ্রহণ করতে পারবেন এই ক্রিকেটার। তবে ব্যানক্রফটের চেয়ে অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দল মিস করেছে স্মিথ ও ওয়ার্নারকে। এই দুই ক্রিকেটারের অনুপস্থিতিতে এখনো বেশ ভালোই ভোগ করছে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া।

এই দুই ক্রিকেটারের অনুপস্থিতিতে প্রথমবারের মতো অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টেস্ট সিরিজ জয়ের অপেক্ষার প্রহর গুনছে ভারত। গাভাস্কার-বর্ডার সিরিজের চতুর্থ টেস্ট শুরু হওয়ার আগে স্মিথ-ওয়ার্নারের ব্যাপার কথা বলেন বর্তমান অধিনায়ক টিম পেইন। নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে তারা দলে ফিরলে কিভাবে তাদের গ্রহণ করা হবে সেই প্রশ্নের উত্তর দেন পেইন।

Also Read - টিম প্রিভিউ: ঢাকা ডায়নামাইটসের কর্তৃত্ব ফিরে পাওয়ার লড়াই


“তাদেরকে স্বাগত জানাতে প্রস্তুত আমরা। সবারই আলদা চিন্তা-ভাবনা রয়েছে। সবাই এই ব্যাপারে একেকভাবে দেখবে। কিন্তু আমি মনে করি তাদের সময়ে তারা অনেক কিছুই দিয়েছে দলকে এবং আমি আশা করছি তারা ফিরলে অস্ট্রেলিয়ার সমর্থকরা তাদের আগের মতই আপন করে নিবে ও তাদের দ্বিতীয় সুযোগটি দিবে। আমি আশা করছি দলের অন্যান্য ক্রিকেটারদের যেমন করে দেখে ঐভাবেই তাদের দেখবে সমর্থকরা।”

বর্তমানে গাভাস্কার-বর্ডার টেস্ট সিরিজে ২-১ এ এগিয়ে রয়েছে ভারত। সিরিজের দ্বিতীয় টেস্ট জিতে ঘুরে দাঁড়ালেও ভারতের কাছে মেলবোর্ন টেস্টে পরাজিত হয় অস্ট্রেলিয়া। পেইন মনে করেন সেই টেস্টে স্মিথ ও ওয়ার্নারকে বাজেভাবে মিস করেছে অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দল।

“আমি মনে করি, আপনি যদি দলের ২-৩ জন সেরা খেলোয়াড়কে নিয়ে মাঠে নামেন তাহলে যেকোন দলই স্ট্রাগলিং করবে। তারা কিন্তু দলের নিয়মিত পারফর্মার। আমরা অপেক্ষা করছি দলের সেরা ক্রিকেটারদের ফিরে পাওয়ার। আমি আশা করছি তারা ফিরলে আমরা এই অবস্থা থেকে বের হতে পারব।”

গত বছর দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টেস্টে বল টেম্পারিং কান্ডে জড়িত থাকেন স্মিথ, ওয়ার্নার ও ব্যানক্রফট। যার ফলে ৯ মাস ও এক বছরের জন্য আন্তর্জাতিক ও ঘরোয়া ক্রিকেট থেকে নিষিদ্ধ করা স্মিথ, ওয়ার্নার ও ব্যানক্রফটকে। আগামী মার্চেই নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ শেষ হবে স্মিথ ও ওয়ার্নারের।

আরও পড়ুনঃ বিপিএল খেললে লাভবান হবে স্মিথই! 

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

সব ফরম্যাটেই ইসিবির সাথে আর্চারের চুক্তি

আফগানিস্তানের বিপক্ষে টস জিতে বোলিংয়ে বাংলাদেশ

এবার টেস্ট থেকে মঈনের ‘অনির্দিষ্টকালের বিরতি’

শাহীন-হাসানকে ছাড়াই পাকিস্তানের ওয়ানডে স্কোয়াড

দুই ফাইনালিস্টের নিয়ম রক্ষার ম্যাচে চোখ রাঙাচ্ছে বৃষ্টি