Scores

স্যামসনের রেকর্ডগড়া সেঞ্চুরি সত্ত্বেও হারল মুস্তাফিজরা

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) চতুর্দশ আসরের চতুর্থ ম্যাচে পাঞ্জাব কিংসের কাছে ৪ রানে হেরে গেছে রাজস্থান রয়্যালস। আইপিএলের ইতিহাসে অধিনায়কত্বের অভিষেকে প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে সেঞ্চুরি হাঁকিয়েও দলের পরাজয় এড়াতে পারেননি রাজস্থানের স্যাঞ্জু স্যামসন।

সাঞ্জুর বিধ্বংসী শতকে মুস্তাফিজদের শুভসূচনা

আইপিএলের ইতিহাসে রান তাড়ার রেকর্ডে এটি হত দ্বিতীয়, যদি না শেষদিকে মরিস ওমন ম্লান না থাকতেন। এখনকার রেকর্ডও রাজস্থানের। গত আসরে পাঞ্জাবের বিপক্ষেই (তখন নাম ছিল কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব) ২২৩ রান তাড়া করে প্রথম আসরের শিরোপাজয়ীরা।

Also Read - অনিশ্চয়তায় রিয়াদের টেস্ট ক্যারিয়ার!

মুম্বাইয়ে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে ২২১ রান জড়ো করে পাঞ্জাব। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৯১ রান করেন অধিনায়ক লোকেশ রাহুল। মাত্র ৫০ বলের মোকাবেলায় তিনি হাঁকান ৭টি চার ও ৫টি ছক্কা।

এছাড়া ৬টি ছক্কা হাঁকানো দীপক হুদা ২৮ বলে ৬৪ ও ক্রিস গেইল ২৮ বলে ৪০ রান করেন। বাংলাদেশি পেসার মুস্তাফিজুর রহমান ৪ ওভার বল করে বিলি করেন ৪৫ রান, ছিলেন উইকেটশূন্য। যদিও আম্পায়ারিংয়ের ভুল, রিভিউ না নেওয়া আর জস বাটলারের ক্যাচ হাতছাড়ার কারণে একাধিক উইকেট শিকার থেকে বঞ্চিত থাকতে হয় তাকে।

রাজস্থানের পক্ষে চেতন সাকারিয়া তিনটি ও ক্রিস মরিস দুটি উইকেট শিকার করেন।

জয়ের লক্ষ্যে খেলতে নেমে রানের খাতা খোলার আগেই বেন স্টোকসকে হারায় রাজস্থান। এতে ক্রিজে আসেন সাঞ্জু। ১২ রান করে সাজঘরে ফেরেন আরেক ওপেনার মনন ভোহরা। জস বাটলার ১৩ বলে ২৫, শিভ ডুবে ১৫ বলে ২৩ ও রিয়ান পরাগ ১১ বলে ২৫ রান করে আউট হন।

তবে একপ্রান্ত আগলে রেখে মারকুটে ব্যাটিং চালিয়ে যান ৩৫ রানে জীবন পাওয়া সাঞ্জু। ক্যারিয়ারের তৃতীয় শতক পূর্ণ করেও তাণ্ডব থামেনি। তবে থেমেছে ইনিংসের শেষ বলে। শেষ বলে প্রয়োজন ছিল ৫ রান। ছক্কা হাঁকাতে গিয়ে বাউন্ডারি লাইনে দীপক হুদার হাতে তালুবন্দী হন। তখন দলীয় সংগ্রহ ২১৭, ৭ উইকেট হারিয়ে। অপর প্রান্তে অপরাজিত মরিস ৪ বল খেলেছেন, রান করেছেন মাত্র ২! ৬৩ বলে ১১৯ রান করা সাঞ্জু হাঁকান ১২টি চার ও ৭টি ছক্কা।

সংক্ষিপ্ত স্কোর 

টস : রাজস্থান রয়্যালস

পাঞ্জাব কিংস : ২২১/৬ (২০ ওভার)
রাহুল ৯১, দীপক ৬৪, গেইল ৪০
সাকারিয়া ৩১/৩, মরিস ৪১/২, মুস্তাফিজ ৪৫/০

রাজস্থান রয়্যালস : ২১৭/৭ (২০ ওভার)
সাঞ্জু ১১৯, বাটলার ২৫, মরিস ২*
শামি ৩৩/২, আরশদ্বীপ ৩৫/৩

ফল : পাঞ্জাব কিংস ৪ রানে জয়ী।

Related Articles

আইপিএলের বাকি অংশের সূচি ঘোষণা

আইপিএলে অজি-ইংলিশদের বিকল্প ভাবনায় বাংলাদেশি ক্রিকেটাররা

আইপিএল নয়, বাংলাদেশকেই বেছে নিচ্ছেন বাটলার

বিসিসিআইয়ের অনুরোধে বদলে গেল সিপিএলের সূচি

ভারতকে কটাক্ষ : শঙ্কায় ম্যাককালাম-মরগানের আইপিএল ভবিষ্যৎ