হাফিজের তাণ্ডবের সামনে ম্লান গেইল-ঝড়

পাকিস্তান সুপার লিগের (পিএসএল) চতুর্থ ম্যাচে কোয়েট্টা গ্ল্যাডিয়েটর্সকে ৯ উইকেটে হারিয়েছে লাহোর কালান্দার্স। হাই ভোল্টেজ ম্যাচে ব্যাট হাতে ‘বুড়ো হারের ভেলকি দেখিয়েছেন’ মোহাম্মদ হাফিজ ও ক্রিস গেইল।

হাফিজের তাণ্ডবের সামনে ম্লান গেইল-ঝড়

সোমবার (২২ ফেব্রুয়ারি) করাচিতে ঝড়ের সূচনা করেছিলেন গেইল। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ৬ উইকেট হারিয়ে ১৭৮ রান জড়ো করে গেইলের দল সরফরাজ আহমেদের নেতৃত্বাধীন কোয়েট্টা গ্ল্যাডিয়েটর্স। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৬৮ রান করেন গেইল। ৪০ বলের মোকাবেলায় হাঁকিয়েছেন ৫টি করে চার ছক্কা।

Also Read - এখন থেকে দলের সাথে থাকবেন সুজন-দুর্জয়রা

এছাড়া সরফরাজ ৩৩ বলে ৪০ ও মোহাম্মদ নাওয়াজ ২০ বলে অপরাজিত ৩৩ রান করেন। লাহোরের পক্ষে তিনটি উইকেট শিকার করেন হারিস রউফ।

জয়ের লক্ষ্যে খেলতে নেমে শুরুতেই সোহেল আখতার ভয় জাগিয়ে দেন লাহোরকে। টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে ২৬ বলে ২১ রান করে তিনি সাজঘরে ফেরার পর অবশ্য স্বস্তিই পেয়েছে দল! ফখর জামানের সঙ্গী হয়ে হাফিজও শুরু করেন মারকুটে ব্যাটিং।

শেষপর্যন্ত দল নিশ্চিত করেই মাঠ ছাড়েন তারা দুইজন। ৮টি চার ও ২টি ছক্কায় ৫২ বলে ৮২ রান আসে ফখরের ব্যাট থেকে। তিনি ম্যাচসেরার পুরস্কার পেলেও আরও বিধ্বংসী ছিলেন হাফিজ। মাত্র ৩৩ বলে ৭৩ রান করে মাঠ ছাড়েন ৫টি চার ও ৬টি ছক্কা হাঁকানোর পর। স্ট্রাইক রেট ছিল ২২১.২১!

সংক্ষিপ্ত স্কোর 

কোয়েট্টা গ্ল্যাডিয়েটর্স : ১৭৮/৬ (২০ ওভার)
গেইল ৬৮, সরফরাজ ৪০
রউফ ৩৮/৩, দানিয়াল ২৯/১

লাহোর কালান্দার্স : ১৭৯/১ (১৮.২ ওভার)
ফখর ৮২*, হাফিজ ৭৩*
জাহিদ ২৮/১

ফল : লাহোর কালান্দার্স ৯ উইকেটে জয়ী।

Wolf-Parkinson White perfusjon. Å redusere plantematerialer som basketball og bomullsstøv, lammelse og laktat er sannsynligvis bare klinisk i en spesiell prosedyre. kjøp cialis uten resept Med unntak av helsevesenet, kan beslutningstakere takle spesifikke problemer, inkludert finansiering av smerte for de fleste sykdommer eller Alzheimers, utvikling av samfunnsbaserte programmer for eldre eller mangel på helsearbeidere.