Scores

হেন্ডরিকস-ডুমিনির ব্যাটে সিরিজ নিশ্চিত করল প্রোটিয়ারা

ক্যান্ডিতে রেজা হেন্ডরিকসের শতক আর জেপি ডুমিনির ৯২ রানের ইনিংসে ভর করে তৃতীয় ওয়ানডেতে শ্রীলঙ্কাকে ৭৮ রানে হারিয়েছে স্বাগতিক দক্ষিণ আফ্রিকা। এ জয়ের সুবাদে পাঁচ ম্যাচের সিরিজ দুই ম্যাচ হাতে রেখেই জিতে নিল সফরকারীরা।

সিরিজ নিশ্চিত করল দক্ষিণ আফ্রিকা
১০২ রানের ইনিংস খেলেন হেন্ডরিকস। ©এএফপি

টস হেরে প্রথমে ব্যাটিং করতে নামে দক্ষিণ আফ্রিকা। দক্ষিণ আফ্রিকাকে দারুণ ভিত গড়ে দেন হাশিম আমলা। উদ্বোধনী জুটিতে আমলা ও কুইন্টন ডি কক মিলে তুলেন ৪২ রান। কুইন্টন ডি কককে ফিরিয়ে দিয়ে এ জুটি ভাঙেন লাহিরু কুমারা। দক্ষিণ আফ্রিকার রানের চাকা সচল রেখেছিলেন আমলা। ক্রিজে খুব একটা স্বাছন্দ্যবোধ করছিলেন না ডি কক। ৪২ রানের জুটিতে তার অবদান ছিল ২।

এরপর রেজা হেন্ডরিকসকে সাথে নিয়ে ৫৯ রান তুলেন আমলা। পূর্ণ করেন অর্ধশতক। থিসারা পেরার বলে বোল্ড হয়ে ফিরেন সাজঘরে। খেলেন ৯ চার ও ১ ছক্কায় ৫৯ রানের ইনিংস। থিতু হতে পারেননি অধিনায়ক ফাফ ডু প্লেসিস। দলীয় ১৩৭ রানের মাথায় থিসারা পেরেরার দ্বিতীয় শিকারে পরিণত হন ফাফ ডু প্লেসিস। মাত্র ১০ রান করে পেরেরার বলে লাকমলের হাতে ক্যাচ দেন ডু প্লেসিস।

Also Read - স্টোকসকে ছাড়া ইংল্যান্ড দল ঘোষণা


জেপি ডুমিনিকে নিয়ে বড় সংগ্রহের দিকে এগিয়ে যান রেজা হেন্ডরিকস। অভিষেক ওয়ানডেতেই তুলে নেন শতক। ৮ চার ও ১ ছক্কায় ১০২ রানের ইনিংস খেলে ফিরেন কুমারার বলে বোল্ড হয়ে।

এরপর ডেভিড মিলারকে সাথে নিয়ে ঝড় তুলেন জেপি ডুমিনি। এ জুটিতে ৭৪ বলে ১০৩ রান যোগ হয় স্কোরবোর্ডে। তিনশ’ রানের চৌকাঠ পার করে দক্ষিণ আফ্রিকা। থিসারা পেরার বলে দলীয় ৩১৮ রানের মাথায় ফিরেন ডুমিনি। আট রানের জন্য হাতছাড়া করেন শতক। ৯২ রানের ইনিংস সাজান ৮ চার আর ৪ ছয়ে।

অর্ধশতক তুলে নেন ডেভিড মিলার। আন্দিলে ফেহলুকায়ো খেলেন ১১ বলে ২৪ রানের কার্যকরী ইনিংস। শেষে তাণ্ডব চালায় দক্ষিণ আফ্রিকা। শেষ দশ ওভারে ১০৪ রান তুলে তারা। লাইন-লেন্থের বালাই ছিল না লঙ্কান বোলারদের।

বিশাল লক্ষ্য তাড়া করতে নামে শ্রীলঙ্কা। প্রথম উইকেটের পতন ঘটে ২০ রানের ম্থায়। নিরোশান ডিকভেলাকে ফিরিয়ে দেন লুঙ্গি এনজিডি। ১০ বলে ১০ রান করে বিদায় নেন ডিকভেলা। উপল থারাঙ্গা ও কুশল পেরারার জুটিও দীর্ঘ হতে দেননি এনজিডি। নিজের পরের ওভারে ফের আঘাত হানেন। ফিরিয়ে দেন থারাঙ্গাকে। ১৯ রান করে ফেরত যান থারাঙ্গা।

কুশল পেরেরা থিতু হলেও বড় স্কোর গড়তে পারেননি। আন্দিলে ফেহলুকায়োর বলে লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়েন ১৭ বলে ২৭ রানের দ্রুতগতির ইনিংস খেলে। ২৭ রানের ইনিংসে ছিল ৪ টি চার। এরপর থিসারা পেরারাকে ফেরান উইলিয়াম মুলডার। ৮১ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়ে স্বাগতিকরা।

পঞ্চম উইকেটে ৪৩ রান যোগ করেন কুশল মেন্ডিস ও অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস। কুশল মেন্ডিসকেও বড় স্কোর গড়তে দেননি এনজিডি। ৪ চারে ৩৪ বলে ৩১ রান করে ফিরেন সাজঘরে। ধনঞ্জয়া ডি সিলভার সাথে ৩১ রান যোগ করেন ম্যাথিউস। ৪৩ বলে ৩২ রান করে তাবরাইজ শামস্যার শিকার হন ম্যাথিউস।

এরপর আকিলা ধনঞ্জয়াকে নিয়ে হাল ধরেন ধনঞ্জয়া ডি সিলভা। তাদের জুটিতে নিভু নিভু সম্ভাবনা বেঁচে থাকে লঙ্কানদের। রানের গতি ঠিক থাকলেও ছিল উইকেটের স্বল্পতা। দলীয় ২৫০ রানের মাথায় আকিলা ফিরে গেলে তাদের ৯৫ রানের জুটি ভাঙে। ৪২ বলে ৩৭ রানের ইনিংস খেলে ফিরেন আকিলা। হাতে তখনো ৬৪ বল। এরপর এনজিডি-ফেহলুকায়-শামসি মিলে শেষ করে দেন লঙ্কানদের ইনিংস। ২৮৫ রান করে অলআউট হয় শ্রীলঙ্কা। ৮ চার আর ৩ ছক্কায় ৬৬ বলে ৮৪ রান করেন ডি সিলভা।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ

দক্ষিণ আফ্রিকা ৩৬৩/৭, ৫০ ওভার
হেন্ডরিকস ১০২, ডুমিনি ৯২, মিলার ৫১
পেরেরা ৪/৭৫, কুমারা ২/৬৭

শ্রীলঙ্কা ২৮৫/১০, ৪৫.২ ওভার
ডি সিলভা ৮৪, আকিলা ৩৭, ম্যাথিউস ৩২
এনজিডি ৪/৫৭, ফেহলুকায়ো ৩/৭৪


আরো পড়ুনঃ মুমিনুলদের জয়ের জন্য প্রয়োজন ২৪৬ রান


 

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

ভারত টেস্ট দল থেকে বাদ রাহুল, নতুন মুখ শুভমান

শুধু প্রতিপক্ষ নয়, সামলাতে হবে ‘গ্যালারির দর্শকদেরও’

ডমিঙ্গো ও ভেট্টোরির বেতনে আকাশ-পাতাল তফাৎ!

ভারতের টি-টোয়েন্টি দলে জায়গা পেলেন না ধোনি

আতিথেয়তায় মুগ্ধ ডমিঙ্গো, খুশি করতে চান সমর্থকদের