‘১০ হাজার টেস্ট রান করা অসম্ভব’

বাংলাদেশের সব ফরম্যাটে সর্বোচ্চ রান তার। নিজেকে আরো উচ্চতায় নিয়ে যেতে এখনো এগিয়ে যাচ্ছেন বাংলাদেশের ড্যাসিং ওপেনার তামিম ইকবাল। সব ব্যাটসম্যানেরই লক্ষ্য থাকে নিজেকে সর্বোচ্চ চূড়ায় নিয়ে যাওয়ার। আর সেটি যদি ১০ হাজার রান পূর্ণ করার মাধ্যমে হয় তাহলে তো সোনায় সোহাগা। তবে তামিম অতো কিছু মানছেন না। টেস্টে ১০ হাজার রান করা তার পক্ষে একদমই অসম্ভব বলে মনে করেন দেশ সেরা এই ওপেনার।

img_20160629_170421

Advertisment

টেস্টের নিচের সারির দল হওয়ার কারণে বছরে হাতে গোনা ৪-৫টি টেস্ট খেলা হয় তামিমের। তাই তার টেস্ট ক্যারিয়ারটাও বিদেশি ক্রিকেটারদের থেকে সংক্ষিপ্ত। ৪২টি টেস্টে ৩১১৮ রান করেছেন তামিম। ক্যারিয়ারের মাঝামাঝি পর্যায়ে রয়েছেন। কিন্তু ১০ হাজার রান করার মত পর্যাপ্ত সময়ও তার আর নেই।

 

১০ হাজার রান করা প্রসঙ্গে তামিম ‘ইন্ডিপেন্ডেন্ট বিডি’-কে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে বলেন, ‘আমরা যে হারে টেস্ট খেলছি তাতে করে এটি একদমই অসম্ভব কাজ। এমনকি আমি এটি চাইও না। একবার চিন্তা করেন আমরা বছরে কয়টা টেস্ট খেলি। দুই কি তিন টেস্ট খেলি।’

 

‘বছরে এক দুইটা টেস্ট খেলে একজন ব্যাটসম্যান হিসেবে আমি বুঝতে পারি এটি করা একদমই সম্ভব না। আপনাকে বছরে ৭-৮টি টেস্ট খেলতে হবে যদি আপনি এমন উচ্চতায় যেতে চান। আগামী ১০ বছর যদি আমি বছরে ৭-৮টি করে টেস্ট খেলতে পারি তাহলে হয়তো সম্ভব হতে পারে আমার জন্য ১০ হাজার রান করা।’

 

টেস্টে সম্ভব না হলেও ওয়ানডেতে ঠিকই ১০ হাজার রান করার স্বপ্ন দেখছেন তামিম। বর্তমানে ১৫২টি ওয়ানডে ম্যাচে ৪৭১৩ রান করেছেন তামিম। বিশ্বাস করেন দশ হাজার রান তিনি করতে পারবেন। ‘আমি যেকোন ফরম্যাটেই ১০ হাজার রান করতে চাই কিন্তু শুধু ওয়ানডেতেই এটি এখন কেবল সম্ভব যদি আমি আরো ১৫০টি ওয়ানডে ম্যাচ খেলতে পারি।’

 

-রুশাদ রাসেল, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটিম.কম