‘৮’ বছরের সংসার ভাঙল ধাওয়ানের

বলিউডের সিনেমার কোনো গল্পকেও হার মানাত শিখর ধাওয়ানের প্রেম কাহিনী। প্রেয়সী আয়েশাকে অনেক কষ্টে বানিয়েছিলেন নিজের জীবন সঙ্গিনী। সেই আয়েশার সাথে ধাওয়ানের দাম্পত্য জীবন টিকল মাত্র ৮ বছর!

'৮' বছরের সংসার ভাঙল ধাওয়ানের

Advertisment

ভারতীয় ক্রিকেটার ধাওয়ান ও তার স্ত্রী আয়েশা মুখোপাধ্যায়ের সম্পর্কের ইতি ঘটেছে। ইনস্টাগ্রামে দেওয়া এক বার্তায় বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন খোদ আয়েশা। আইপিএল ও টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রাক্বালে বিবাহবিচ্ছেদের ঘটনা বড় এক ধাক্কা হয়ে এল ধাওয়ানের জন্য।

২০০৯ সালে ইন্টারনেটে পরিচয় হয় ধাওয়ান ও আয়েশার। দুই পক্ষের পরিচিত হরভজন সিংয়ের মাধ্যমে করেন বন্ধুত্ব। অস্ট্রেলিয়ান ব্যবসায়ীর সাথে বিয়ে হয়েছিল আয়েশার। সেই ব্যবসায়ীর সাথে বিবাহবিচ্ছেদ করে, দুই পক্ষের পরিবারকে মানিয়ে ধরেছিলেন ধাওয়ানের হাত।

আয়েশার প্রথম ঘরের দুই সন্তানকে ধাওয়ান নিজের সন্তানের মতই দেখতেন। তাদের ঘর আলো করেও এসেছিল এক পুত্র সন্তান। তবে শেষপর্যন্ত ঘরের সব আলো নিভে গেল দুর্দান্ত এক প্রেম কাহিনীর করুণ পরিণতিতে।

আয়েশা বলেন, ‘আমার সত্যিই হাসি আসছে, কীভাবে আমি কিছু কঠিন শব্দ লিখব। এই প্রথম ডিভোর্সি হিসেবে অভিজ্ঞতা হলো। প্রথমবার যখন আমি বিবাহবিচ্ছেদের কথা শুনেছি তখন আমি সত্যিই খুব ভয় পেয়েছিলাম। আমার মনে হয়েছিল যে আমি ব্যর্থ হয়েছি এবং আমি সেই সময়ে খুব ভুল কিছু করছিলাম।’

আয়েশা আরও বলেন, ‘আমার মনে হয়েছিল যেন আমি সবাইকে হতাশ করেছি এবং এমনকি স্বার্থপরও বোধ করেছি। আমি অনুভব করলাম যে আমি আমার বাবা-মাকে হতাশ করছি, আমি অনুভব করেছি যে আমি আমার সন্তানকে নিচু করে দিচ্ছি এবং এমনকি কিছুটা হলেও আমি অনুভব করেছি যেন আমি ঈশ্বরকে ছোট করে দিচ্ছি। বিবাহবিচ্ছেদ এমন একটি নোংরা শব্দ।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।