SCORE

সর্বশেষ

প্রথম টি-টোয়েন্টিতে রুদ্ধশ্বাস জয়

ডাবলিনে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে চার উইকেটের রুদ্ধশ্বাস জয় পেয়েছে বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দল। আগে ব্যাট করে আয়ারল্যান্ডের দেয়া ১৩৪ রানের জবাবে শেষ বলে লক্ষ্যে পৌঁছায় সফরকারীরা।

 

Also Read - প্রথম বাংলাদেশী হিসেবে জাহানারার পাঁচ উইকেট

টস জিতে আইরিশদের ব্যাটিং করতে পাঠায় বাংলাদেশ দলের কাপ্তান সালমা খাতুন। দুই ওপেনার শিলিংটন ও সেসেলিয়া জয়েসকে লেগ বিফোরের ফাঁদে ফেলে ভালো শুরু এনে দেন জাহানারা। প্রথম দুই ওভারে তের রান দিয়ে নেন দুই উইকেট।

এরপর সালমা খাতুন এসে আউট করেন লুইসকে। শুরুর ধাক্কা সামাল দেয়ার চেষ্টা করেন কাপ্তান ডিলানি ও ইসাবেল জয়েস। দলীয় ৭১ রানে দুইজনের জুটি ভাঙ্গেন খাদিজাতুল কুবরা। এরপর ২য় মেয়াদে বল করতে এসে সতেরোতম ওভারের তিন ও ছয় নম্বর বলে তুলে নেন ভয়ংকর হয়ে উঠতে থাকা কিম গার্থ ও গার্থের বদলে ক্রিজে আসা রিচার্ডসনকে। ১৯ বলে ২০ করেন গার্থ। রিচার্ডসন ফিরে যান ২ রানে।

নিজের শেষ ওভারে বল করতে এসে পথের কাঁটা হয়ে থাকা ইসাবেল জয়েসের স্টাম্প উপড়ে ফেলে নিজে আনন্দে ভাসেন আর বাকিদেরও ভাসান আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নারীদের মধ্যে প্রথমবারের মত পাঁচ উইকেট শিকার করে। ৪১ বলে চার চারে ৪১ করেন ইসাবেল জয়েস। নিজের চার ওভারে ২৮ রান দিয়ে পাঁচ উইকেট নেন জাহানারা। একটি করে উইকেট নেন অধিনায়ক সালমা খাতুন ও খাদিজাতুল কুবরা। দুজনেই খরচ করেন ২০ রান করে। আইরিশদের ইনিংস থামে আট উইকেট হারিয়ে ১৩৪ রানে।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে ২য় ওভারেই উইকেট হারায় বাংলাদেশ দল। এরপর আয়েশা রহমান ও ফারজানা হক জুটি বাধার চেষ্টা করলেও দলীয় ৩৯ রানে আয়েশা ও ৬৮ রানে ফিরে যান ফারজানা। আয়েশা ও ফারজানা দুইজনের ব্যাট থেকে আসে যথাক্রমে ২৩ বলে ২৪ ও ২৫ বলে ১৩ রান।

একপাশ আগলে রেখে ব্যাট চালাতে থাকেন নিগার সুলতানা। রুমানা এসেও সঙ্গ দিতে পারেন নি বেশি। সাত রান করে ফিরে গেছেন সাজঘরে। ৩৮ বলে ৪৬ করে যখন আউট হন নিগার সুলতানা বাংলাদেশের তখন দরকার ১৪ বলে উনিশ।

ফিনিশিং এর কাজটা করেন ফাহিমা খাতুন। ১৮ বলে ছাব্বিশ রান করেন তিনি। চার উইকেটে শেষ বলে ম্যাচ জেতে বাংলাদেশ।

টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের হয়ে এর আগে ৪ উইকেট ছিল কেবল একজনেরই। ২০১২ এশিয়া কাপে গুয়াংজুতে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৬ রানে ৪ উইকেট নিয়েছিলেন সালমা খাতুন।

ওয়ানডেতে বাংলাদেশের মেয়েদের হয়ে সেরা বোলিংয়ের রেকর্ড রুমানা আহমেদের। ২০১৩ সালেই ভারতের বিপক্ষে আহমেদাবাদে ৪ উইকেট নিয়েছিলেন ২০ রানে।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ

আয়ারল্যান্ডঃ ১৩৪/৮ (২০ ওভার)
ইসোবেল জয়েস ৪১, গেবি লুইস ২৮, ডেল্যানি ২২
জাহানারা ২৮/৫, সালমা ২০/১, খাদিজা ২০/১

বাংলাদেশঃ ১৩৫/৬ (২০ ওভার)
নিগার সুলতানা ৪৬, ফাহিমা খাতুন ২৬*, আয়েশা ২৪
রিচার্ডসন ২০/২, লুইস ২০/২

ফালাফলঃ বাংলাদেশ নারী দল জয়ী ৪ উইকেটে

আরো পড়ুনঃ  তামিম-সাকিবে প্রতিরোধ গড়ার চেষ্টায় বাংলাদেশ

Related Articles

২০১৯ সালের আগস্টে হবে আগামী অ্যাশেজ

আইরিশদের হারিয়ে বাছাইপর্বের সেরা বাংলাদেশ

সালমাদের পারফরম্যান্সে মুগ্ধ অঞ্জু

আয়ারল্যান্ডে অভিভাবক-সান্নিধ্যে নারী দল

রুদ্ধশ্বাস ম্যাচে সিরিজের প্রথম হার টাইগ্রেসদের