Scores

ফিক্সিং নিয়ে শোয়েবের বোমা: আমি খেলতাম ২১ জনের বিপক্ষে!

ক্রিকেট ম্যাচে দুই দল মিলিয়ে খেলোয়াড়ের সংখ্যা থাকে ২২ জন। যেখানে ২১ জনই কোনো না কোনোভাবে ম্যাচ ফিক্সিংয়ের সাথে জড়িত থাকতেন! অন্তত তেমটাই মনে করেন

সাকিবের মত একই ভুল করেছিলেন যারা

ক্রিকেট ম্যাচ গড়াপেটা নতুন কিছু নয়। ফিক্সিং রুখতে আলাদা আইন করেছে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা। ক্রিকেটাররা ফিক্সিংয়ের প্রস্তাব পেলে তা সরাসরি জানাতে হবে আইসিসিকে।

বাট-আসিফের জন্য জাতীয় দলের দরজা বন্ধ!

ফিক্সিং কেলেঙ্কারিতে নাম লিখিয়েছিলেন পাকিস্তানের তিন ক্রিকেটার সালমান বাট, মোহাম্মদ আসিফ ও মোহাম্মদ আমির। নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে বাঁহাতি পেসার আমির জাতীয় দলে ফিরলেও ফিরতে পারেননি বাকি