Scores

আকবরদের দেওয়া কথা রাখতে ‘এক পায়ে খাড়া’ বিসিবি

বাংলাদেশ ক্রিকেট ইতিহাসে স্বর্ণাক্ষরে লেখা থাকবে ‘বিশ্বকাপজয়ী বাংলাদেশ দল’ লেখাটি। হোক না অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ! দেশের ক্রিকেটে এতো বড় সাফল্য যারা বয়ে এনেছেন, তাদেরকে যোগ্য প্রতিদান দিতে চায় বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। যার কিছু প্রক্রিয়া আটকে আছে প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসের প্রকোপে।

যুব বিশ্বকাপের ট্রফি হাতে আকবর আলী। ফাইল ছবি

 

গত ১২ ফেব্রুয়ারি আকবর আলীরা ট্রফি নিয়ে দেশে ফিরলে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন ঘোষণা দেন, বিশ্বকাপজয়ী দলের প্রতিটি সদস্যকে মাসে এক লক্ষ করে টাকা দেওয়া হবে। গোটা বিশ্বের মত বাংলাদেশ ক্রিকেটে করোনার থাবা পড়লেও সেই প্রক্রিয়া বন্ধ হয়ে যায়নি। নিয়ম করে খেলোয়াড়দের টাকা দিয়ে যাচ্ছে বিসিবি।

Also Read - যুব ক্রিকেট লিগের নামকরণ হচ্ছে শেখ কামালের নামে


আজ (৬ জুলাই) গণমাধ্যমকে দেওয়া এক ভিডিও বার্তায় বিষয়টি নিশ্চিত করেন পাপন, ‘ওদের সঙ্গে আমাদের দুটি ব্যাপার ছিল। তিনটি প্রোগ্রাম ছিল, প্রথম যেটা ছিল সেটা আমরা করে দিয়েছি এরই মধ্যে। এটা নিয়ে আমরা মাথা ঘামাই না। প্রত্যেকে মাসে এক লক্ষ টাকা করে পাচ্ছে। তাই এদিক থেকে তাদের মন খারাপ করার কোনো কারণ নেই।’

এছাড়া অতীতের মত বয়সভিত্তিক দলের সেরা সাফল্য এনে দেওয়া এই ক্রিকেটাররা যেন হারিয়ে না যায়, সেদিকেও লক্ষ্য রাখার কথা জানিয়েছিল বোর্ড। সেই সময় বিসিবি সভাপতি জানিয়েছিলেন, আলাদা করে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দলকে আরও দুই বছর পরিচর্যা করা হবে।

সেই প্রক্রিয়ার অগ্রগতি সম্পর্কে পাপন বলেন, ‘ওদের জন্য আমরা একজন কোচের অধীনে স্পেশাল ট্রেনিংয়ের ব্যবস্থা করবো। সেটাতেও আমরা এক পায়ে খাড়া। কোচদের সঙ্গে আমরা কথা বলছি। ওরা এই কোচকে নিয়েই আসলে করতে চাচ্ছে। এছাড়া, ওদেরকে অন্য একটি দেশে নিয়ে গিয়ে ট্রেনিং করার সবকিছু চূড়ান্ত করেছি।’

‘কিন্তু সমস্যা হচ্ছে করোনার কারণে তো সবকিছু বন্ধ। কোথায় অনুশীলন করাবো আর কোথায় সুযোগ দিব! তাই এটা হলো একটা ব্যাপার। এটা ওরা বুঝতে পারে এবং আমি নিশ্চিত যে আমাদের প্রতি ওদের মন খারাপের কোনো কারণ নেই।’– সাথে যোগ করেন তিনি।

বিশ্বকাপজয়ী দলের আরও একটি প্রক্রিয়া আটকে আছে বলে জানান পাপন, ‘আমরা বসে আছি কারণ মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর হাত দিয়ে দেয়া হবে জিনিসটা। সেগুলো সব তৈরি করা আছে। যেদিন আমরা পারবো মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সামনে ওদেরকে নিয়ে যেতে, ট্রফিটাও প্রধানমন্ত্রীকে দেবে, সেদিনই আমরা চেকগুলো দিয়ে দিতে পারবো।’

‘ওদের সবার নামে একটা এফডিআর করবো, একটা বড় অঙ্কের এফডিআর করে দেয়া হবে প্রত্যেকের নামে। এটার জন্য বসে আছি। এগুলোর সবই করোনার জন্য আটকে গেছে। তবে সবই হবে, কোনো কিছু বাতিল হয়নি।’- আরও বলেন তিনি।

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

Related Articles

মাশরাফির অবদানকে খাটো করে দেখার সুযোগ নেই : পাপন

মাশরাফি কেন অবসর নেননি, প্রশ্ন পাপনের

সাকিবকে তিন ফরম্যাটের অধিনায়ক করার পরিকল্পনা নেই বিসিবির

‘এই অবস্থায় টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ খেলা সম্ভব নয়’

শ্রীলঙ্কার এলপিএল আয়োজনের সামর্থ্য নিয়ে সন্দিহান পাপন