উইজডেনের সেরা টেস্ট একাদশে মুশফিক

0
1520

ক্রিকেটের বাইবেল খ্যাত উইজডেন সেরা ক্রিকেটারদের নিয়ে একটি একাদশ ঘোষণা করেছে। যেখানে বিবেচনায় আনা হয়েছে কৈশোরে টেস্ট অভিষেকের পরে কারা ক্যারিয়ারে বড় উন্নতি করেছে। বর্তমান ক্রিকেটারদের মধ্যে কেব দুইজন আছেন এই দলে।

উইজডেনের সেরা টেস্ট একাদশে মুশফিক

Advertisment

উইজডেনের এই সেরা একাদশ নির্বাচন কিশোর ক্রিকেটার বিবেচনায় হলেও কৈশোরে তারা ২২ গজে কেমন পারফর্ম করেছেন তার ওপর ভিত্তি করে করা হয়নি। বরং কৈশোরে অভিষেক হয়েছে যাদের এবং ক্যারিয়ার জুড়ে ভালো পারফর্ম করেছেন তাদেরকেই এখানে জায়গা দেওয়া হয়েছে। এই একাদশ নির্বাচনের ক্ষেত্রে আরেকটা শর্ত ছিল যে এক দেশ থেকে দুইজনের বেশি নেওয়া যাবে না।

২০০৫ সালে লর্ডসে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ওই ভেন্যুতে সবচেয়ে কম বয়সে অভিষেক হয়েছিল মুশফিকুর রহিমের। তারপর গত ১৫ বছরে নিজেকে সম্মানিত এক আসনে নিয়ে গিয়েছেন মুশফিক। পরিশ্রমের ফল হিসেবে তার নামও উঠেছে এই তালিকায়। একমাত্র বাংলাদেশি ও বর্তমান ক্রিকেটারদের দুইজনের একজন হয়ে এই সুযোগ করে নেয়েছেন তিনি।

মুশফিক দলে নেওয়ার ব্যাখ্যায় উইজডেন বলছে, ‘৩৩ বছর বয়সেও এখনো দুর্দান্ত খেলে যাওয়া মুশফিকুর রহিম ইতোমধ্যে তার দেশের অন্যতম সেরা একজন ব্যাটসম্যান হিসেবে জায়গা করে নিয়েছেন। ক্ষুদ্রকায় মুশফিক একমাত্র উইকেটরক্ষ ব্যাটসম্যান হিসেবে দুইটি ডাবল সেঞ্চুরি করার কীর্তি গড়েছেন এবং বাংলাদেশি ক্রিকেটার হিসেবে ডাবল সেঞ্চুরি করার তালিকায় ৬০ শতাংশই তার দখলে।’

মুশফিক ছাড়া বর্তমান ক্রিকেটারদের মধ্যে এই দলে জায়গা পেয়েছেন অস্ট্রেলিয়ান পেসার প্যাট কামিন্স। শচীন টেন্ডুলকারের মতো কিংবদন্তি ক্রিকেটার আছেন এই দলে৷ অধিনায়কত্বের দায়িত্বে রাখা হয়েছে পাকিস্তানের বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক ইমরান খানকে।

একনজরে উইজডেনের সেরা কিশোর (টিনএজ) একাদশ : নেইল হার্ভে, শচীন টেন্ডুলকার, ডেনিস কম্পটন, মার্টিন ক্রো, গ্রায়েম পোলক, গ্যারি সোবার্স, মুশফিকুর রহিম (উইকেটরক্ষক), ইমরান খান (অধিনায়ক), অনিল কুম্বলে, ওয়াসিম আকরাম, প্যাট কামিন্স।

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।