দলের প্রয়োজনে নিজেকে পরিবর্তনের গল্প শোনালেন রিয়াদ

0
2860

২০০৭ সাল থেকে দীর্ঘ ১৪ বছর ধরে বাংলাদেশ দলের নিয়মিত সদস্য মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। তবে শুরু থেকে দীর্ঘস্থায়ী একটি পজিশনে ব্যাট করার সুযোগ রিয়াদ পাননি। দলের সিদ্ধান্ত পরিবর্তনের পাশাপাশি তিনি কীভাবে নিজেকে প্রস্তুত করেছেন তা খোলামেলা বলেছেন এই ব্যাটসম্যান।

দলের প্রয়োজনে নিজেকে পরিবর্তনের গল্প শোনালেন রিয়াদ
মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ওয়ানডে ম্যাচ দিয়ে ২০০৭ সালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেক হয় রিয়াদের। একই বছর টি-টোয়েন্টিতেও অভিষেক হয় তার। ২০০৯ সালে শুরু করেন সাদা পোশাকের যাত্রা। ১৪ বছর ধরে বাংলাদেশ জাতীয় দলে খেলছেন রিয়াদ। এই দীর্ঘ সময়ে কখনো টপ অর্ডার, কখনো মিডল অর্ডার কিংবা কখনো ফিনিশারের ভূমিকা পালন করতে হয়েছে রিয়াদকে।

Advertisment

ক্যারিয়ারের শুরুর সময়ে বেশির ভাগ ইনিংসই তাকে খেলতে হয়েছিল ফিনিশারের ভূমিকায়। ওই অবস্থানে সবচেয়ে বেশি প্রয়োজন হয় দ্রুত রান সংগ্রহ করা, তাই তখন হিটিংয়ের দিকেই নজর ছিল তার। রিয়াদ জানান, সেই সময়টাতে হিটিং নিয়ে অনেক উন্নতির চেষ্টা করেছিলেন।

আইসিসির এক অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, “আমি প্রায় ১৪ বছর ধরে বাংলাদেশের পক্ষে খেলছি। যখন আমি প্রথমে শুরু করেছিলাম, প্রথম সাত থেকে আট বছর ধরেই আমাকে ৭ বা ৮ নং পজিশনে ব্যাট করা লেগেছিল। তাই আমাকে হিটিং নিয়ে বিশেষ করে কাজ করতে হতো। এই জায়গায় আমার অনেক উন্নতি করতে হয়েছিল।”

ব্যাটিং ব্যর্থতাকেই দুষলেন রিয়াদ (2)

২০১৪ সাল থেকে ব্যাটিং অর্ডারে তার কিছুটা উন্নতি হয়। তখন আবার খেলার ধরন পরিবর্তন করে হয়েছিল বলে জানান রিয়াদ। শুরুতে যেমন হিটিংয়ে নজর ছিল, এই সময়ে আবার কৌশল পরিবর্তন করে ফেলতে হয় ধীরস্থির হয়ে খেলার জন্য। উল্লেখ্য, ২০১৫ বিশ্বকাপে তিন নং পজিশনে খেলে দুইটি শতক হাঁকিয়েছিলেন তিনি।

রিয়াদের ভাষায়, “তারপর ২০১৪ সাল থেকে আমি একটু ওপরে ব্যাট করা শুরু করি। তারপর আমার আবার নিজের খেলার ধরন পরিবর্তন করতে হয়েছে। চেষ্টা করেছি পরিস্থিতি বুঝে কীভাবে আমি খেলা চালিয়ে যেতে পারি, কীভাবে ম্যাচটিকে বের করে আনতে পারি। নিয়মিতই এসব করার চেষ্টা করেছি, যেন প্রতি ম্যাচেই আমরা জয়ের ভালো সুযোগ সৃষ্টি করতে পারি।”

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।