পারফরম্যান্স বিবেচনায় সাকিবের মূল্য প্রায় ৯ কোটি!

0
2336

টি-টোয়েন্টি ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক টুর্নামেন্টের জনপ্রিয় আসর ভারতের আইপিএল ক্যারিয়ার শুরু করেছিলেন ২০১১ সালে কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে। নাইটদের হয়ে খেলেছেন সাত আসর। এই সাত আসরে মাঝখানে নিলামের জন্য তাকে ছেড়ে দিলেও আবারো তাকে দলে ভিড়ায় কলকাতা নাইট রাইডার্স। কলকাতায় থাকাকালীন দুইবার চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল দলটি। ওই দুইবারেই বল ও ব্যাট হাতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখেছিলেন সাকিব।

মাঝে রশিদ ও আমার ওভারগুলো টার্নিং পয়েন্ট : সাকিব
এই আসরে হায়দরাবাদের হয়ে খেলেছেন সাকিব। ছবিঃ বিসিসিআই

দীর্ঘ সাত বছর কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে খেলার পর আইপিএলের এগারোতম আসরে নিলামের জন্য ছেড়ে দেয় কলকাতা। এবার আবার তাকে দলে ভিড়ায়নি ফ্র্যাঞ্চাইজিটি। সাকিব পেয়েছেন নতুন ঠিকানা। নিলামে ভারতীয় দুই কোটি রুপিতে তাকে দলে নেয় সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। এবারের আসরে তার দল ফাইনালে গেলেও জিততে পারেনি শিরোপা।

Advertisment

চেন্নাই সুপার কিংসের কাছে ৮ উইকেটে হারে সাকিবরা। নতুন দলে ব্যাট ও বল হাতে দারুণ ভূমিকা পালন করেছেন সাকিব আল হাসান। ১৩ ইনিংসে ২১ গড়ে ব্যাট হাতে ২৩৯ রান করেন তিনি। ছিলেন দলের সেরা পাঁচ রান সংগ্রাহক তালিকার মধ্যে। ব্যাট হাতে পাশাপাশি বল হাতেও মোটামুটি উজ্জ্বল ছিলেন এই অভিজ্ঞ অলরাউন্ডার। ১৭ ম্যাচে ১৪টি উইকেট নিয়েছেন সাকিব।

সম্প্রতি আইপিএলের পারফরম্যান্স নিয়ে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে ক্রিকেটের জনপ্রিয় ওয়েবসাইট ইএসপিএন ক্রিকইনফো। সেখানে ক্রিকেটারদের পারফরম্যান্সের উপর একটি মূল্য দেখিয়েছে ওয়েবসাইটটি। প্রতিবেদনে দেখা গিয়েছে সাকিবকে যে পরিমাণ অর্থ দিয়ে তাকে দলে নিয়েছে তার চেয়ে পাঁচ গুণ অর্থের পারফরম্যান্স করেছেন এই অলরাউন্ডার।

সাকিব
দুই কোটির সাকিব ফেরত দিয়েছেন ৯ কোটি! ছবিঃ ক্রিকইনফো

দুই কোটি রুপির সাকিব সানরাইজার্স হায়দরাবাদকে ফেরত দিয়েছেন ৯ কোটি রুপি! বাংলাদেশি টাকায় যা ১১ কোটি। অর্থাৎ সাকিবকে কিনে মোটেও ঠকেনি ফ্র্যাঞ্চাইজিটি। এই তালিকার সবার উপরে রয়েছেন দলটির অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন। নিলামে ৩ কোটি রুপিতে তাকে দলে ভিড়িয়েছিল ফ্র্যাঞ্চাইজিটি।

আইপিএলের পারফরম্যান্সের বিচারে সেটি দাঁড়িয়েছে ১০ কোটি রুপিতে! অর্থাৎ তিন গুণ অর্থ ফেরত দিয়েছেন হায়দরাবাদকে। এই তালিকার দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন চেন্নাইকে তৃতীয় শিরোপা এনে দেওয়া অজি ক্রিকেটার শেন ওয়াটসন। ৪ কোটি রুপি দিয়ে কেনা হয় তাকে, ১১ কোটি রুপি ফেরত দিয়েছেন এবারের আসরের চ্যাম্পিয়ন দলটিকে। এই তালিকায় রয়েছেন আম্বাতি রাইডু ও সুনীল নারাইন।

আরও পড়ুনঃ টেস্টে থাকছে টস