ফাইনালের দিন রোজা ছিলেন নাফিসা

কত কয়েকদিন নাফিসা কামালের ফেসবুক প্রোফাইলে ঢুঁ মারলে একই ধরলের পোস্ট দেখা গেছে, যেখানে লেখা- ‘আলহামদুলিল্লাহ’। দলের জয়ে স্বস্তি ও সন্তুষ্টি প্রকাশ করা ছাড়া সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে আর কোনো পোস্ট দেননি নাফিসা। তার দল শেষপর্যন্ত ঘরে তুলেছে বিপিএলের অষ্টম আসরের শিরোপা।

ফাইনালের দিন রোজা ছিলেন নাফিসা-
বিপিএলে নিজেদের তৃতীয় শিরোপা হাতে নাফিসা কামাল।

বিপিএলে এটি কুমিল্লার তৃতীয় শিরোপা। হাই ভোল্টেজ ফাইনালে কুমিল্লা মুখোমুখি হয়েছিল ফরচুন বরিশালের। ফাইনালের আগে তিন দেখায় দুইবারই কুমিল্লা হেরেছে বরিশালের কাছে। নাফিসা তাই বেশ দুশ্চিন্তায় ছিলেন। এজন্য ফাইনালের দিন রোজা রেখেছিলেন।

Advertisment

শিরোপা জয়ের পর টিম বাসে থাকাকালে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের পক্ষ থেকে ফেসবুকে লাইভ ভিডিও পোস্ট করা হয়। সেখানে দলের মিডিয়া ম্যানেজার খান নয়ন জানান, ফাইনালের দিন রোজা ছিলেন ফ্র্যাঞ্চাইজির কর্ণধার নাফিসা।

নয়ন বলেন, ‘আপনারা নাফিসা কামালকে খুব ক্লান্ত দেখছেন। কারণ উনি সারাদিন রোজা পালন করেছেন। টেনশনে… না বলে পারলাম না। উনার দোয়া আল্লাহপাক কবুল করেছেন। আলহামদুলিল্লাহ, আল্লাহর দরবারে অনেক শোকরিয়া।’ 

ফাইনালের দিন রোজা ছিলেন নাফিসা২
শিরোপা জয়ের পর দলের সাথে নাফিসার উল্লাস।

এদিকে ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে নাফিসা জানান, দল এই শিরোপা উৎসর্গ করছে তার বাবা, অর্থমন্ত্রী ও সাবেক আইসিসি ও বিসিবি সভাপতি আ হ ম মুস্তফা কামালকে। সেই সাথে এই ট্রফি উৎসর্গ করা হয়েছে কুমিল্লাবাসীকে।

নাফিসা বলেন, ‘এটা আমার বাবার জন্য। অস্বীকার করা যাবে না এটা। ক্রিকেট নিয়ে উনার ভালোবাসা সবার মাঝে ছড়িয়ে দিয়ে গেছেন। আমাদের কোচ, ইমরুল, নয়ন তাদের বাসায় ডেকে এনে যেভাবে গল্প করেন… উনার গল্প ও ভালোবাসা আমাদের প্রেরণা দেয়। তাই বাবাকেই উৎসর্গ করি। সাথে কুমিল্লার সবাই। এই কাপ আমার বাবা ও কুমিল্লাবাসীর।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।